BREAKING NEWS

২৪ বৈশাখ  ১৪২৮  শনিবার ৮ মে ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

গান্ধী পরিবারকে ক্লিনচিট, কংগ্রেসের খারাপ ফলের জন্য নেতাদেরই দায়ী করলেন গুলাম নবি আজাদ

Published by: Abhisek Rakshit |    Posted: November 22, 2020 10:06 pm|    Updated: November 22, 2020 10:06 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:‌ ২৪ ঘণ্টা আগেই কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধীর (Sonia Gandhi) তৈরি করা বিশেষ তিনটি কমিটির একটিতে জায়গা পেয়েছেন। আর রবিবার গান্ধী পরিবারকে কার্যত ক্লিনচিট দিলেন ‘‌বিক্ষুব্ধ’‌ কংগ্রেস নেতা গুলাম নবি আজাদ (Ghulam Nabi Azad)। তার বদলে সম্প্রতি বিহার–সহ একাধিক নির্বাচনে হারের জন্য দলের অন্যান্য নেতাদের দায়ী করলেন তিনি। সংবাদসংস্থা এএনআইকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে দল প্রসঙ্গে একাধিক কথা বললেন। ভোটে হারের জন্য সাধারণ মানুষ ও কংগ্রেসের (Congress) স্থানীয় নেতাদের মধ্যে তৈরি হওয়া দূরত্বের কথা উল্লেখ করেন তিনি। কংগ্রেসের নেতারা বিলাসবহুল জীবনে অভ্যস্ত হয়ে গেছেন, এমন অভিযোগও তোলেন।

বিহার নির্বাচন (Bihar elections 2020) হোক কিংবা মধ্যপ্রদেশ–উত্তরপ্রদেশ, পরপর বেশ কয়েকটি নির্বাচন–উপনির্বাচনে খুবই হতাশাজনক পারফরম্যান্স কংগ্রেসের। এই প্রসঙ্গেই কংগ্রেসের বর্ষীয়ান নেতা গুলাম নবি আজাদ বলেন, ‘‌‘‌দলের নেতারা সবাই বিলাসবহুল জীবনযাত্রায় অভ্যস্ত হয়ে গিয়েছেন। টিকিট পেলেই তাঁরা পাঁচতারা হোটেলে চলে যান। রাস্তা খারাপ থাকলে সেদিকে যেতে চান না। এই সংস্কৃতিকে না পালটালে আমরা কখনই ভোটে জিততে পারব না।’‌’ কংগ্রেসের অবস্থা যে গত ৭২ বছরে সবচেয়ে করুণ, সেকথা স্বীকার করে নিলেও তিনি জানান, দলে কোনও বিরোধ নেই। কেউ ‘বিক্ষুব্ধ’ নন। যা হয়েছে, তা দলে পরিবর্তন আনার জন্য দরকারি ছিল।

[আরও পড়ুন:‌ ‌ ৪২ বছরের প্রতীক্ষার ফল, লন্ডন থেকে চেন্নাইয়ে ফিরল চুরি যাওয়া রাম-সীতার মূর্তি]

এর পাশাপাশি আশ্চর্যজনকভাবেই গান্ধী পরিবারকে ‘‌ক্লিনচিট’‌ দিলেন। গুলাম নবি আজাদের কথায়, ‘‌‘‌আমি গান্ধী পরিবারকে এ ব্যাপারে ক্লিনচিট দিতে চাই। কারণ, করোনার সময়ে এর থেকে বেশি কিছু ওঁরা করতে পারতেন না। আমাদের বেশিরভাগ দাবিই তো মেনে নেওয়াও হয়েছে। তবে দল বাঁচাতে শীর্ষ নেতৃত্বের উচিত নির্বাচনের রাস্তায় হাঁটা।’‌’‌

 

[আরও পড়ুন:‌ ‌ সোশ্যাল মিডিয়ায় আপত্তিকর পোস্ট করলে ৫ বছরের জেল! কেরলের নয়া আইন নিয়ে বিতর্ক]
 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement