২ কার্তিক  ১৪২৬  রবিবার ২০ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  ইদের অনুষ্ঠান ঘিরে চরম অসভ্যতার সাক্ষী রইল অসমের ছয়গাঁও৷ যেখানে মহিলাদের রীতিমত পণ্য মনে করে  জামাকাপড় খুলে নাচার জন্য বাধ্য করা হল৷ এমনকী মহিলাদের মারধরের মতো অভিযোগও উঠল৷ যা নিয়ে ইতিমধ্যেই জোর চর্চা স্থানীয়দের মধ্যে৷ পরে অবশ্য পুলিশের কড়া পদক্ষেপে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়৷

ঘটনাটি ঘটেছে অসমের কামরূপ জেলার ছয়গাঁওয়ে। শনিবার, ইদ পরবর্তী সময়ে এলাকার মানুষের মনোরঞ্জনের স্বার্থে একটি সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল। অনুষ্ঠান দেখতে  হাজির হয়েছিলেন প্রায় কয়েকশো দর্শক। অনুষ্ঠানে নাচগান হচ্ছিল নির্ধারিত পরিকল্পনা মতোই। কিন্তু হঠাৎই মাঝপথে প্রায় ৫০০ জনেরও বেশি পুরুষ উত্তেজিত হয়ে পড়ে। স্টেজে তখন মহিলাদের একটি দল নৃত্য পরিবেশন করছিলেন। আচমকাই ওই মহিলাদের পোশাক খুলে নাচ করার দাবি তোলে ওই ৫০০ জন পুরুষ। কেউ তো সোজা স্টেজে উঠে পড়ে। তারপর মহিলাদের জামাকাপড় ধরে টানাটানি শুরু করে।

[ আরও পড়ুন: খেলতে গিয়ে ১৫০ ফুট গভীর কুয়োয় পড়ল দু’বছরের শিশু ]

কোনওমতে সম্ভ্রম বাঁচিয়ে ঘটনাস্থল থেকে বেরিয়ে আসতে সক্ষম হন ওই মহিলারা। গাড়িতে উঠে এলাকা ছাড়েন তাঁরা। কিন্তু গন্ডগোল এখানেই থেমে যায়নি। তাদের কথা না শুনে গাড়িতে ওই মহিলারা উঠে যাওয়া ৫০০ জন পুরুষ গাড়ির উপরই হামলা চালায়। পাথর ছোঁড়া হয় গাড়িতে। গাড়ি এতে সামান্য ক্ষতিগ্রস্ত হলেও মহিলারা কেউ তেমন আহত হননি। ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যান তাঁরা।

ঘটনার পর ছয়গাঁও থানায় অনুষ্ঠানের আয়োজকরা অভিযোগ দায়ের করেন। তাঁদের অভিযোগের ভিত্তিতে এখনও পর্যন্ত দু’জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তাদের নাম শাহরুখ খান ও সুবাহন খান।অভিযুক্তরা কোচবিহার জেলা থেকে এসেছিল বলে আয়োজকরা জানিয়েছেন৷ সূত্রের খবর, অনেক চড়া দামে বিক্রি করা হয়েছিল অনুষ্ঠানের ইদের অনুষ্ঠানের টিকিট। তা সত্ত্বেও তাতে নিরাপত্তা ব্যবস্থার এমন বেহাল ছবি উঠে এল৷ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

[ আরও পড়ুন: যোগীর সঙ্গে সম্পর্ক আছে, মহিলার বিস্ফোরক দাবি ঘিরে চাঞ্চল্য উত্তরপ্রদেশে ]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং