১২ আষাঢ়  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ২৭ জুন ২০১৯ 

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভিতরে তখন দাউদাউ করে জ্বলছে আগুন৷ কালো ধোঁয়ায় ঢেকে গিয়েছে চতুর্দিক৷ কোনওক্রমে প্রাণ বাঁচাতে চাইছেন সকলে৷ কেউ ছাদ থেকে ঝাঁপ দিচ্ছে তো কেউ সিঁড়ি বেয়ে দ্রুত বেগে নেমে পড়ছেন৷ সবাই যখন নিচে নামতে ব্যস্ত, তখন বহুতলের তৃতীয় তলে উঠে পড়লেন এক ব্যক্তি৷ নিজের জীবনকে তুচ্ছ করে দুজন কিশোরীর প্রাণ বাঁচালেন তিনি৷ কেতন জোয়ারদার নামে ওই যুবকের ছবি এখন নেটদুনিয়ায় ভাইরাল৷ জীবন বিপন্ন করে কিশোরীদের প্রাণ বাঁচানোর পর সোশ্যাল মিডিয়ার ‘হিরো’ হয়ে গিয়েছেন কেতন৷ বিষাদের মাঝে কেতনের ভূমিকার প্রশংসা করতে ভোলেননি বিপদগ্রস্তরাও৷

[ আরও পড়ুন: গোমাংস রাখার অভিযোগে মুসলিমদের বেধড়ক মার, ভাইরাল গোরক্ষকদের তাণ্ডবের ভিডিও]

গুজরাটের সুরাটের তক্ষশিলা বহুতলটিতে একাধিক সংস্থার অফিস রয়েছে৷ তৃতীয় তলেই ছিল কোচিং সেন্টার৷ সেই সময় কোচিং সেন্টারে কমপক্ষে ৩০ জন পড়ুয়া ছিলেন৷ আচমকাই কোচিং সেন্টারে আগুন লেগে যায়৷ আতঙ্কিত হয়ে পড়েন সকলেই৷ আচমকাই বহুতল থেকে নিচে ঝাঁপিয়ে পড়েন একে একে অনেকেই৷ সেই ভয়ংকর মুহূর্তের ভিডিও ইতিমধ্যেই নেটদুনিয়ায় ভাইরাল হয়ে গিয়েছে৷ বিপদগ্রস্তদের প্রাণরক্ষার কৌশল দেখে আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন সকলেই৷ শেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, এখনও পর্যন্ত এই ঘটনায় ২১ জনের মৃত্যু হয়েছে৷ মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলেই আশঙ্কা করা হচ্ছে৷ বেশ কয়েক ঘণ্টার চেষ্টায় আগুনের লেলিহান শিখা নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়েছে৷ তবে কালো ধোঁয়ার দাপট এখনও রয়েছে৷ পকেট ফায়ার আদৌ রয়েছে কি না, তা খতিয়ে দেখছেন দমকলকর্মীরা৷ প্রাথমিক তদন্তে দমকলকর্মীদের অনুমান, শর্ট সার্কিট থেকেই অগ্নিকাণ্ডটি ঘটেছে৷ এই ঘটনায় স্বতঃপ্রণোদিত মামলা রুজু করা হয়েছে৷ আদৌ ওই বহুতলে অগ্নিনির্বাপণ ব্যবস্থা যথাযথ ছিল কি না, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে৷ এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত দুজনকে গ্রেপ্তারও করা হয়েছে৷ ধৃতদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০৪ এবং ১১৪ ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে৷ যতদিন না পর্যন্ত তদন্ত শেষ হবে, ততদিন কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে৷

[ আরও পড়ুন: লোকসভায় ২৭ জন মুসলিম প্রার্থীর জয়, একজনও বিজেপির নন]

শুক্রবার নিহতদের পরিবারের প্রতি শোকজ্ঞাপন করেছেন নরেন্দ্র মোদি এবং গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপানি৷ নিহতদের পরিজনকে চার লক্ষ টাকা করে আর্থিক সাহায্যের কথা ঘোষণা করেছেন তিনি৷ অগ্নিকাণ্ডে পড়ুয়াদের প্রাণহানির ঘটনার পর বিষাদই যেন গ্রাস করেছে গোটা এলাকাকে৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং