BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  শুক্রবার ২৩ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

দিল্লিতে অধীরের বাড়িতে হামলা দুষ্কৃতীদের, রাজনীতির গন্ধ পাচ্ছেন বিরোধীরা

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: March 3, 2020 6:54 pm|    Updated: September 12, 2020 12:37 pm

An Images

সোমনাথ রায়, নয়াদিল্লি: হামলার মুখে অধীর চৌধুরির দিল্লির বাংলো। মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে পাঁচটা নাগাদ অজ্ঞাতপরিচয় জনা কয়েক দুষ্কৃতীর হুমায়ুন রোডের বাড়িতে হামলা চালায়। সেসময় সাংসদ তথা লোকসভার কংগ্রেস দলনেতা অধীর চৌধুরি বাড়িতে ছিলেন না। তবে তাঁর বাড়ির নিচে অফিসের কর্মীদের মারধর করা হয়, ফাইলপত্র, দরকার কাগজ ছিঁড়ে ফেলা হয় বলেও অভিযোগ। খবর পেয়ে সাংসদ বাড়ি ফেরেন। পুলিশে খবর পৌঁছয়। তদন্তে নেমেছে পুলিশ।

দিনভর সংসদের অধিবেশনে ব্যস্ত ছিলেন বহরমপুরের সাংসদ তথা লোকসভায় কংগ্রেসের দলনেতা অধীর চৌধুরি। হুমায়ুন রোডের বাংলোয় তিনি ছিলেন না। তাঁর অনুপস্থিতির ফাঁকেই বিকেল নাগাদ জনা ছয়েক দুষ্কৃতী বাড়িতে হামলা চালায় বলে অভিযোগ। তাঁর এই বাংলোর নিচে একটি অফিস রয়েছে। বাড়ির নিরাপত্তারক্ষীদের পাশাপাশি ওই অফিসের কর্মীদের মারধর করে দুষ্কৃতীরা। অফিসে ঢুকে ফাইলপত্র ঘেঁটে, কাগজ ছিঁড়ে ফেলা হয়। অফিসটি তছনছ করে চম্পট দেয় তারা। খবর পেয়ে বাড়িতে ফেরেন অধীর চৌধুরি। তিনি পুলিশে খবর দিলে, পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে সবটা খতিয়ে দেখেন। প্রাথমিকভাবে রাকেশ নারওয়াল নামে একজনকে চিহ্নিত করা গিয়েছে। যিনি অধীর চৌধুরির সঙ্গে দেখা করতে আসার নাম করে বাড়িতে ঢুকে হামলা চালান।

[আরও পড়ুন: নয়ডায় করোনার আতঙ্কে বন্ধ স্কুল! পিছিয়ে গেল পরীক্ষা]

একজন সাংসদের বাড়িতে এ ধরনের হামলায় রাজধানীর বুকে আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হয়েছে। অধীর চৌধুরি যেহেতু লোকসভায় কংগ্রেসের দলনেতা, তাই তাঁর নিরাপত্তা একজন সাংসদের চেয়ে বেশি। তবে আজকের ঘটনার পর তাঁর জন্য জেড প্লাস ক্যাটাগরি নিরাপত্তার দাবি তুলেছে কংগ্রেস। যদিও অধীরবাবু নিজের তাঁর নিরাপত্তা নিয়ে তেমন চিন্তিত নন বলে জানিয়েছেন। 

আজকের এই হামলার ঘটনা নিছকই দুষ্কৃতীদের কাণ্ড নাকি এর পিছনেও কোনও রাজনৈতিক কারণ আছে, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। মঙ্গলবার দিনভর সংসদে অধীর চৌধুরির সঙ্গে বিজেপির একাধিক সাংসদের বিরোধ বেঁধেছে। এমনকী হাতাহাতির পর্যায়েও পৌঁছে গিয়েছিল তাঁদের বাকবিতণ্ডা। অধিবেশন শেষের পর সেই বিরোধের প্রভাবেই কি হামলা চালানো হয়েছে তাঁর বাংলোয়? এই আশঙ্কাও এড়ানো যাচ্ছে না। সবমিলিয়ে, সাংসদদের হাই সিকিউরিটি জোনে এমন দুষ্কৃতী তাণ্ডব চিন্তায় ফেলছে সাধারণ বাসিন্দাদেরও।

দেখুন ভিডিও: 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement