১০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  রবিবার ২৭ নভেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই হাতে আসবে করোনার ভ্যাকসিন, সর্বদল বৈঠকে ঘোষণা প্রধানমন্ত্রীর

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: December 4, 2020 1:36 pm|    Updated: December 4, 2020 1:57 pm

After all party meet PM Modi says coronavirus vaccine will be ready in weeks |Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মুখ্যমন্ত্রীদের নিয়ে করা বৈঠকে ভ্যাকসিন নিয়ে কোনও আশার কথা শোনাতে পারেননি। কিন্তু সর্বদল বৈঠকে নিরাশ করলেন না প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi)। ঘোষণা করে দিলেন আগামী কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই ভারতে চলে আসবে মারণ ভাইরাসের ভ্যাকসিন। বিজ্ঞানীরা সবুজ সংকেত দিলেই শুরু হয়ে যাবে টিকাকরণও।

দেশের বর্তমান করোনা পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনার জন্য আজ সব দলের প্রতিনিধিদের নিয়ে একটি ভারচুয়াল বৈঠক ডাকেন প্রধানমন্ত্রী। যাতে আমন্ত্রণ জানানো হয় সব বড় দলের রাজ্যসভা এবং লোকসভার দলনেতাদের। কংগ্রেসের তরফে বৈঠকে হাজির ছিলেন গুলাম নবি আজাদ এবং অধীর চৌধুরী (Adhir Ranjan Chowdhury)। তৃণমূলের তরফে সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়, ডিএমকের টি আর বালু, জেডিএসের এইচ ডি দেবেগৌড়া। সব দলের প্রতিনিধিরা এদিন বৈঠকে বলার সুযোগ পাননি। তবে, প্রধানমন্ত্রী প্রত্যেককে নিজেদের বক্তব্য লিখিত আকারে পেশ করতে অনুরোধ করেন। এবং জানান, তাঁদের পরামর্শকেও সমান গুরুত্ব দেওয়া হবে।

[আরও পড়ুন: করোনা ভ্যাকসিনের জরুরি অনুমোদন মিলতে পারে ডিসেম্বরের শেষে, দাবি AIIMS অধিকর্তার]

বৈঠক শেষ মোদি ঘোষণা করেন, “এই মুহূর্তে ভারতে অন্তত আটটি করোনা ভ্যাকসিন (Corona Vaccine) ট্রায়ালের বিভিন্ন স্তরে আছে। এবং আগামী কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই টিকা সরকারের হাতে চলে আসবে। বিজ্ঞানীরা সবুজ সংকেত দিলেই শুরু হয়ে যাবে টিকাকরণ। স্বাস্থ্যকর্মী, করোনাযোদ্ধা, বয়স্ক মানুষ এবং ক্রনিক রোগ আছে, এমন ব্যক্তিদের অগ্রাধিকারের ভিত্তিতে টিকা দেওয়া হবে। আমাদের বিজ্ঞানীরা সফলভাবে টিকা তৈরির ব্যপারে অত্যন্ত আশাবাদী। গোটা পৃথিবী আমাদের দিকে তাকিয়ে আছে সস্তা এবং উপযোগী টিকার আশায়।” প্রধানমন্ত্রী আশাবাদী যে, রাজ্য এবং কেন্দ্র সরকারের সম্মিলিত প্রয়াসে টিকাকরণে কোনও সমস্যা হবে না। তাঁর দাবি, “ভারত অন্যান্য দেশের তুলনায় টিকাকরণের ক্ষেত্রে অনেক অভিজ্ঞ। এবং সেটা আমাদের কাজে লাগবে। কেন্দ্র রাজ্য সরকারগুলির সঙ্গে টিকাকরণ নিয়ে কথা বলছে, এবং এক্ষেত্রে জনস্বাস্থ্যকেই সবচেয়ে বেশি প্রাধান্য দেওয়া হবে।”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে