BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

উদ্ধবকে অযোধ্যায় স্বাগত নয়, কঙ্গনার পাশে দাঁড়িয়ে হুঁশিয়ারি VHP ও সাধুদের

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: September 11, 2020 4:12 pm|    Updated: September 11, 2020 4:12 pm

An Images

ফাইল ফটো

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কঙ্গনা রানাউতের মুম্বইয়ের অফিস ভাঙার প্রতিবাদে এবার গর্জে উঠলেন অযোধ্যার সাধুরা। এই বিষয়ে তাঁদের ও বিশ্ব হিন্দু পরিষদের পক্ষ থেকে মহারাষ্ট্রের উদ্ধব ঠাকরের সরকারের তীব্র সমালোচনা করা হল। শিব সেনা (Shiv Sena) প্রধানকে আর অযোধ্যায় যেতেও বারণ করা হল। পরিষ্কার জানিয়ে দেওয়া হল, এখানে এলে তাঁকে স্বাগত জানানো হবে না। উলটে তীব্র বিরোধিতা করা হবে।

কঙ্গনা রানাউতের সঙ্গে মহারাষ্ট্রের সরকার অত্যন্ত নির্মম আচরণ করেছে বলে অভিযোগ জানিয়ে বৃহন্মুম্বই পুরনিগমের তুমুল সমালোচনা করেন হনুমানগড়ি মন্দিরের পুরোহিত মহন্ত রাজু দাস। এপ্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘উদ্ধব ঠাকরে (Uddhav Thackeray) ও শিব সেনাকে অযোধ্যায় আর স্বাগত জানানো হবে না। উলটে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী এখানে এলে তাঁকে অযোধ্যার সাধুদের তীব্র বিরোধিতার মুখে পড়তে হবে। মহারাষ্ট্র সরকার ওই অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে কোনও সময় নষ্ট না করেই ব্যবস্থা নিয়েছে। কিন্তু, সেই সরকারই এখনও পর্যন্ত পালঘরে নৃশংসভাবে মৃত্যু হওয়া দুই সাধুর খুনিদের ধরতে পারেনি।’

[আরও পড়ুন: মার্কশিট পড়ুয়াদের কাছে ‘প্রেশার শিট’, নয়া শিক্ষানীতিতে চাপমুক্তির দাবি মোদির ]

বিশ্ব হিন্দু পরিষদ (VHP) -এর আঞ্চলিক মুখপাত্র শরদ শর্মা বলেন, ‘ওই অভিনেত্রী জাতীয়তাবাদী শক্তিগুলিকে সমর্থন করেন ও মুম্বইয়ের মাদক কারবারীদের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছেন। তাই অন্যায়ভাবে শিব সেনা ও মহারাষ্ট্র সরকার লাগাতার তাঁকে হেনস্তা করার চেষ্টা করছে। এটা কখনও মেনে নেওয়া যায় না।’

অযোধ্যা সন্ত সমাজের প্রধান মহন্ত কানাইয়া দাস আবার মহারাষ্ট্র সরকারের বিরুদ্ধে সমাজবিরোধীদের পক্ষ নেওয়ার অভিযোগ তোলেন। উদ্ধবকে হুমকি দিয়ে বলেন, ‘এখন আর উদ্ধব ঠাকরে-কে অযোধ্যায় স্বাগত জানানো হবে না। কেন শিব সেনা রানাউতকে আক্রমণ করছে? বিষয়টা সবাই বুঝতে পারছে যে ওরা আর নিজেদের পুরনো অবস্থানে নেই। বালাসাহেব ঠাকরের অধীনে যে শিব সেনা ছিল তার সঙ্গে এর কোনও মিল নেই। ‘

[আরও পড়ুন: কর্ণাটকে মন্দিরের ভিতর থেকে উদ্ধার তিন পুরোহিতের রক্তাক্ত দেহ, মৃত্যু ঘিরে রহস্য]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement