২ শ্রাবণ  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ১৮ জুলাই ২০১৯ 

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বন্ধুদের সঙ্গে চুটিয়ে আড্ডা মারতে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করেন? কিন্তু একথা জানা আছে ভারতে হোয়াটসঅ্যাপ নিষিদ্ধ হয়ে যেতে পারে? ভারতে হোয়াটসঅ্যাপ নিষিদ্ধ ঘোষণা করার আর্জি জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টে পিটিশন জমা দিয়েছিলেন হরিয়ানার আন্দোলনকারী সুদীপ যাদব৷ হোয়াটসঅ্যাপ ভারতের নিরাপত্তার পক্ষে ক্ষতিকারক এই নিরিখেই পিটিশন জমা দেওয়া হয়৷ বুধবার, ২৯ তারিখ সুপ্রিমকোর্টের এই বিষয়ে রায়্দানের কথা ছিল৷ সুপ্রিমকোর্ট আজ এই পিটিশন খারিজ করে দেয়৷ অর্থাৎ ভারতে বিনা বাধায় জারি থাকবে হোয়াটসঅ্যাপ পরিষেবা৷

প্রসঙ্গত, গত এপ্রিল মাসে গ্রাহক পরিষেবাকে আরও উন্নত করার স্বার্থে হোয়াটসঅ্যাপে ‘এন্ড টু এন্ড’ এনক্রিপশন পদ্ধতি চালু করা হয় সংস্থার তরফে৷ এই ব্যবস্থা চালু হলে, প্রেরকের হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজ কেবল গ্রাহকই পড়তে পারবেন৷ এই বার্তা সংস্থার পক্ষেও জানা সম্ভব নয়৷ কিন্তু সাধারণের সুবিধার পাশাপাশি এই এনক্রিপশন পদ্ধতি সন্ত্রাসবাদীদের পরোক্ষ সাহায্য করছে, এমনটাই দাবি করেন সুদীপ৷ এনক্রিপশন পদ্ধতির সাহায্যে জঙ্গিগোষ্ঠীগুলি নিজেদের মধ্যে বার্তা আদানপ্রদান খুব সহজেই করতে পারবে৷ গোয়েন্দাসংস্থাগুলি তো নয়ই, স্বয়ং হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ সেই খবর জানতে পারবে না৷ এতে বিপদের আশঙ্কা আরও বেড়ে যাবে৷
এই সমস্যার সমাধানের জন্যই দেশে হোয়াটসঅ্যাপ নিষিদ্ধ করার পক্ষে পিটিশন জমা দিয়েছিলেন সুদীপ৷ কিন্তু জনসাধারণের কথা মাথায় রেখে এবং নিত্যপ্রয়োজনে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারের গুরুত্বর কথা ভেবে সুদীপের আবেদন খারিজ করল সুপ্রিমকোর্ট৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং