১ কার্তিক  ১৪২৬  শনিবার ১৯ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

১ কার্তিক  ১৪২৬  শনিবার ১৯ অক্টোবর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বহুদলীয় গণতন্ত্রের উপর মানুষ আস্থা হারিয়েছেন বলে মন্তব্য করলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। মঙ্গলবার তিনি বলেছেন, স্বাধীনতার ৭০ বছর পর দেশের মানুষ খুব ভালভাবে বুঝে গিয়েছেন সংসদীয় গণতন্ত্রে বহুদলের উপর আস্থা রাখা যাচ্ছে না। বিভিন্ন দলের কাজকর্মের কারণেই সেই দলগুলির উপর মানুষ বিশ্বাস ও ভরসা হারিয়েছেন। তাঁরা বার বার সন্দেহ প্রকাশ করেছেন, এই দলগুলি কি আদৌ তাঁদের আশা আকাঙ্খা পূরণ করতে পারবেন? তাঁরা প্রচণ্ড হতাশ হয়েছেন। তার ফল বিজেপি বিপুল জনাদেশ পেয়ে ফের ক্ষমতায় ফিরেছে। নিট ফল, গত তিন দশকের মধ্যে বিজেপি একক সংখ্যাগরিষ্ঠ দল হিসাবে ক্ষমতা দখল করেছে।

[আরও পড়ুন: পুজো উদ্বোধনে শহরে আসছেন অমিত শাহ, বার্তা দেবেন এনআরসি নিয়েও]

তিনি বলেন, ভোটের আগে কত রকমের জোট গঠনের চেষ্টা হয়েছে, নানা স্বার্থের সংঘাত রয়েছে দলগুলির মধ্যে। তার উপর বেশিরভাগ দল দুর্নীতির আঁতুড়ঘর। তাই মানুষ বিজেপির উপর ভরসা রেখেছে। শাহ বলেন, কোনও সরকার টিকে থাকে ৩০ বছর। কিন্তু নিতে পারে একটি বড় বা ঐতিহাসিক পদক্ষেপ। অথচ দেখুন আমাদের সরকার পাঁচ বছরে ৫০টি বড়সড় পদক্ষেপ করেছে। শাহ বলেন, জাতীয় নিরাপত্তার পক্ষে যা কিছু বিপজ্জনক সেগুলির সঙ্গে কোনওরকম আপস করবে না কেন্দ্র। এদিকে, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর এহেন মন্তব্যে সমালোচনার ঝড় উঠেছে রাজনৈতিক মহলে। বিরোধীরা অমিত শাহর মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ করেছেন। ‘এক দেশ, এক ভাষা’ নিয়ে সরব হয়ে আগেই তোপের মুখে পড়েন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। এবার বিরোধীদের কটাক্ষ, ‘এক দেশ, এক দল’ নীতি প্রণয়ন করতে চাইছেন শাহ। বিরোধী দলগুলিকে শেষ করে দেওয়ার ষড়যন্ত্র করছে বিজেপি সরকার।

[আরও পড়ুন: ‘সার্জিক্যাল ও এয়ারস্ট্রাইক মানুষকে আনন্দ দিয়েছে’, দাবি অমিত শাহর]

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি হিন্দি দিবসে ‘এক দেশ এক ভাষা’র পক্ষে সওয়াল করেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ৷ সাফ জানান, ভারতের উন্নতি ও অগ্রগতির লক্ষ্যে একটি জাতীয় ভাষার প্রয়োজন রয়েছে৷ এবং একমাত্র হিন্দিই সেই ভাষা হতে পারে৷ কারণ এটি দেশের বহুল প্রচারিত ভাষাই৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং