BREAKING NEWS

১৭ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শনিবার ৪ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

কাশ্মীর পরিস্থিতি নিয়ে অজিত দোভালের সঙ্গে জরুরি বৈঠকে সেনাপ্রধান রাওয়াত

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: April 16, 2017 11:09 am|    Updated: October 9, 2019 4:52 pm

Army Chief Gen Bipin Rawat meets National Security Advisor Ajit Doval

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: জম্মু ও কাশ্মীরের পরিস্থিতি নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মুফতি মহম্মদের পর এবার সেনাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত দোভালের সঙ্গে জরুরি বৈঠকে বসলেন। কাশ্মীর পরিস্থিতি নিয়ে জেনারেল রাওয়াত নিজের বাসভবনে দোভালের সঙ্গে বৈঠক করেন। বুদগাম জেলায় সেনার জিপের বনেটে এক কাশ্মীরি যুবককে বেঁধে ঘোরানোর ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর এদিনের বৈঠক ডাকা হয়েছে।

জম্মু ও কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ওমর আবদুল্লা সম্প্রতি টুইটারে ওই ভিডিওটি পোস্ট করেন। সেনাকে লক্ষ্য করে যাতে বিপথগামী কাশ্মীরি যুবকরা পাথর না ছোড়ে, সেই বার্তা কড়াভাবে পৌঁছে দিতেই নাকি ওই যুবককে জিপের সামনে বেঁধে ঘোরানো হয়েছে। ভিডিওটি প্রকাশ্যে আসার পর থেকেই উত্তেজনার আঁচ বেড়েছে ভূস্বর্গে। শনিবার সন্ধ্যায় আরও একবার একটি পাথর ছোঁড়ার ঘটনার জেরে জওয়ানের গুলিতে মৃত্যু হয়েছে ২৩ বছরের এক কাশ্মীরি যুবকের৷ ঘটনাটি ঘটে শ্রীনগরের বাতমালু এলাকায়৷ পুলিশ জানিয়েছে বিএসএফের জিপ লক্ষ্য করে পাথর ছুঁড়ছিল সাজ্জাদ আহমেদ নামের ওই যুবক ও তার সঙ্গীরা৷ জবাবে বিএসএফ গুলি চালাতেই মৃত্যু হয় সাজ্জাদের৷ পুলিশ জানিয়েছে, ওই যুবক বারামুল্লার চান্দুসার বাসিন্দা৷ ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে৷

[Paytm-এ টাকা পাঠালেই মিলবে সেক্স পার্টনার, তদন্তে পুলিশ]

দেখুন সেই ভিডিও:


অন্যদিকে, শনিবারই সামনে এসেছে ভারতীয় জওয়ানদের আরও একটি বিতর্কিত ভিডিও৷ যেখানে দেখা গিয়েছে, ভারতীয় সেনা জওয়ানদের কিছু সদস্য জোর করে পাক বিরোধী স্লোগান উচ্চারণে বাধ্য করছে কিছু কাশ্মীরি যুবককে৷ দু’টি ঘটনা রেকর্ড করা হয়েছে ওই ভিডিওয়৷ তাতে দুই যুবককে মারধরও করতে দেখা গিয়েছে৷ সেনা জানিয়েছে, ঘটনার জন্য দায়ী জওয়ানদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে৷ তবে সেনাকে লক্ষ্য করে পাথর ছোড়ার ঘটনায় যেন কিছুতেই রাশ টানা যাচ্ছে না। তবে এর পিছনে পাকিস্তানেরও হাত রয়েছে বলে অনুমান কেন্দ্রীয় গোয়েন্দাদের।

[ফের দাম বাড়ল পেট্রল ও ডিজেলের]

সম্প্রতি কেন্দ্রীয় গোয়েন্দারা জানতে পেরেছেন, তপ্ত কাশ্মীরে নিরাপত্তারক্ষীদের লক্ষ্য করে পাথর ছুড়তে স্থানীয় যুবকদের জন্য মোটা অঙ্কের অর্থ পাঠাচ্ছে পাকিস্তান৷ নয়াদিল্লি দীর্ঘদিন ধরেই কাশ্মীরে অশান্তির পিছনে ইসলামাবাদের প্রত্যক্ষ হাত রয়েছে বলে দাবি করছিল৷ কিন্তু শরিফ প্রশাসন তা অস্বীকার করেছে৷ দক্ষিণ কাশ্মীরের পুলওয়ামায় বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে ফের সংঘর্ষ হয়েছে নিরাপত্তারক্ষীদের৷ শনিবার দুপুরে পুলওয়ামার ডিগ্রি কলেজের সামনে সংঘর্ষে ২০ জন জখম হয়েছেন৷ কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক৷ বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে রক্ষীরা টিয়ারগ্যাস ছুড়তে বাধ্য হয়৷ ভারতীয় গোয়েন্দা সূত্রে জানানো হয়েছে, প্রাচীন পণ্য-বিনিময় পদ্ধতিতে বিক্ষোভকারীদের ‘ক্যাশলেস’ রসদ যোগান দিচ্ছে পাকিস্তান৷ বিনিময় পদ্ধতিতে কোনও জিনিসের পরিবর্তে সমমূল্যের জিনিস দেওয়াই রীতি৷ সূত্রের খবর, পাক-অধিকৃত কাশ্মীরের মুজফফরাবাদ থেকে শ্রীনগরে আসা পণ্যবাহী ট্রাকের মাধ্যমে অর্থ পাঠানো হচ্ছে পাথর-হামলাকারীদের জন্য৷ পাকিস্তানের এই কৌশল ফাঁস হওয়ার পর থেকে পাক-অধিকৃত কাশ্মীর থেকে শ্রীনগরে আসা পণ্যবাহী ট্রাকগুলির উপর বিশেষ নজরদারির ব্যবস্থা করা হয়েছে৷ গত শনিবার জেনারেল রাওয়াত জম্মু ও কাশ্মীরের রাজ্যপাল এন এন ভোরার সঙ্গেও দেখা করেছেন। কাশ্মীরের পরিস্থিতি নিয়ে রাজ্যপালকে পূর্ণাঙ্গ রিপোর্ট পেশ করেছেন তিনি, খবর সূত্রের।

[হিন্দুদের বাড়ি ভাঙচুর করে অগ্নিসংযোগের অভিযোগ, এলাকায় উত্তেজনা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে