BREAKING NEWS

৭  আশ্বিন  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বিয়ের টাকা জমিয়েছিলেন মা-বাবা, করোনা তহবিলে দান করলেন কন্যা

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: April 6, 2020 2:42 pm|    Updated: April 6, 2020 2:42 pm

Assam student donates nearly Rs 2 lakh to Corona relief fund

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘মানুষ মানুষের জন্য।’ প্রয়াত গায়ক ভূপেন হাজরিকা বা সবার প্রিয় ভূপেন দা’র এই গানকে সার্থক করলেন অসমেরই এক ছাত্রী। করোনা মহামারীর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে নেমে বিয়ের জন্য মা-বাবার জমানো টাকা নির্দ্বিধায় দান করলেন সরকারের ত্রাণ তহবিলে।

[আরও পড়ুন: হরিয়াণায় আইসোলেশনের জানলা দিয়ে পালানোর চেষ্টা! পড়ে গিয়ে ঘটনাস্থলেই মৃত এক]

স্থানীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে অসম সরকারের তহবিলে ১ লক্ষ ৯৩ হাজার টাকা দিয়েছেন অসমের রঙ্গিয়া এলাকার ছাত্রী রিমা ঘোষ। সদ্য, অসমের সেচমন্ত্রী ভবেশ কলিতার হাতে উপরোক্ত অঙ্কের একটি চেক তুলে দিয়েছেন ওই কলেজ ছাত্রী।এই বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে রিমা জানান, ওই টাকা তাঁর বিয়ের জন্য ব্যাংকে সঞ্চিত রেখেছিলেন মা-বাবা। তবে বর্তমান পরিস্থিতিতে বিয়ের চাইতে করোনা মহামারী ঠেকানো অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ। তাই তিনিও মারণ রোগটিকে পরাজিত করতে এই লড়াইয়ে শামিল হয়েছেন। ওই কলেজ ছাত্রী আরও বলেন, “আজ গোটা বিশ্ব করোনা ভাইরাসের সঙ্গে লড়াই করছে। তাই বাবার সঙ্গে আলোচনার পর সঞ্চিত অর্থ সরকারের ত্রাণ তহবিলে দান করার সিদ্ধান্ত নিই আমরা।”

এদিকে, অসম সরকার জানিয়েছে যে রাজ্যের ‘আরোগ্য নিধি’ ত্রাণ তহবিলে এপর্যন্ত ১৭ কোটি ৩৭ লক্ষ টাকা জমা পড়েছে। উল্লেখ্য, অসমে এপর্যন্ত ২৬টি করোনা সংক্রমণের মামলা প্রকাশ্যে এসেছে। এদের বেশিরভাগই তবলিঘি জামাতের সদস্য। রাজধানী দিল্লির নিজামুদ্দিন এলাকায় অনুষ্ঠিত এক ধর্মীয় অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে সেখান থেকেই এই মারণ করোনা ভাইরাস বয়ে নিয়ে এসেছে তাঁরা। উল্লেখ্য, করোনার গ্রাস থেকে বাঁচতে এবার প্রতিষ্ঠা দিবস পালন করবে না বলে জানিয়েছে অসমের বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন ‘ইউনাইটেড লিবারেশন ফ্রন্ট অফ অসম (আই)’ বা উলফা (স্বাধীন)।      

[আরও পড়ুন: প্রধানমন্ত্রীর সংহতির আহ্বানে সাড়া কেরলের মুখ্যমন্ত্রীর! নেভানো হল সরকারি বাসভবনের আলো]                                       

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে