১৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  সোমবার ৬ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

বড়পর্দায় এবার রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের কাহিনি, ছবির বাজেট কত জানেন?

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 4, 2018 8:09 pm|    Updated: May 4, 2018 8:09 pm

Baahubali writer to pen story of mega film on RSS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কেন্দ্রের মোদি সরকারের স্বচ্ছ ভারত অভিযান নিয়ে সিনেমা তৈরি করেছিলেন অক্ষয় কুমার৷ প্রশংসা পেয়েছিলেন সিনেমাপ্রেমীদের৷ একইভাবে সিনেমা তৈরি হতে চলেছে রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘ বা আরএসএস-কে নিয়ে৷ সিনেমাটির জন্য চিত্রনাট্য লিখছেন বাহুবলী-র চিত্রনাট্যকার কেভি বীজেন্দ্র প্রসাদ৷ সিনেমার বাজেট নির্ধারণ করা হয়েছে প্রায় ১৮০ কোটি টাকা৷ সিনেমা বানাতে ইতিমধ্যেই সম্মতি দিয়েছেন আরএসএস প্রধান তথা সরসংঘচালক মোহন ভাগবত৷ সিনেমাটি ২০১৯-এর লোকসভা ভোটের আগেই মুক্তি পাবে বলেও জানা গিয়েছে৷

মূলত হিন্দিতে মুক্তি পেলেও ইংরাজি, তেলুগু, তামিল, কন্নড় ভাষাতেও ডাব হবে সিনেমাটি৷ ইতিমধ্যেই আরএসএস প্রধান মোহন ভগবতের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে সিনেমার স্ক্রিপ্ট শোনানোর পর্ব সেরে ফেলেছেন বীজেন্দ্র প্রসাদ৷ সূত্রের খবর, সিনেমার স্ক্রিপ্ট খুবই মনে ধরেছে ভাগবতের৷ সেখানে যেমন ভাবে আরএসএসের জন্মলগ্ন থেকে এখনও পর্যন্ত তাদের কার্যক্রমকে বর্ণনা করা হয়েছে, যেমন ভাবে তাদের দেশাত্ববোধক কাজকর্মকে তুলে ধরা হয়েছে তা ছুঁয়ে গিয়েছে খোদ সরসংঘচালককে৷ বাহুবলী ছাড়া সুপারহিট বলিউড সিনেমা সলমন খানের বজরঙ্গী ভাইজানেরও স্ক্রিপ্ট লিখেছিলেন বীজেন্দ্র প্রসাদ৷ এই ছবির স্ক্রিপ্ট লিখতে সাহায্য তাকে করছেন এস গুরুমূর্তি৷ এছাড়া গত এক মাস ধরে কাজ করেছেন ২৭ জন স্ক্রিপ্ট রাইটার৷

সিনেমাটির পরিচালক এখনও নির্ধারিত হয়নি৷ তবে জানা গিয়েছে, সিনেমাটি প্রযোজনা করতে চলেছে বিজেপির সমর্থক ও দক্ষিণী সিনেমার নামকরা ব্যক্তিত্ব নায়ড়ু ভাইরা৷ এখনও পর্যন্ত সিনেমাটির দুটি নাম নির্দিষ্ট করে রাখা হয়েছে- ‘আরএসএস ভাগ্যধ্বজ’ ও ‘আরএসএস’৷ আরএসএস সূত্রে খবর, সংঘ পরিবার সম্পর্কে মানুষের মধ্যে যে ভ্রান্ত ধারনা রয়েছে তা দূর করার জন্যই এই সিনেমা বানানোর প্রয়োজন বলে মনে করছে আরএসএসের থিঙ্ক ট্যাঙ্ক৷ এই সিনেমায় আরএসএসের জন্মলগ্ন থেকে তাদের কাজকর্ম তুলে ধরা হবে৷ তেমনই দেখানো হবে ভি সাভারকর, এমএস গোলওয়ারকর ও কেশব বালিরামের মতও আরএসএসের প্রধানদের মাহাত্ম্য৷ বেশকিছু নামজাদা বলিউড তারকার পাশাপাশি নাম শোনা গিয়েছে অক্ষয় কুমারের৷

সিনেমা মুক্তির সময় হিসাবে ২০১৯-এর লোকসভা নির্বাচনের আগের সময়কেই কেন বেছে নেওয়া হল? এই বিষয়ে কোনও নির্দিষ্ট উত্তর দিতে পারেনি আরএসএস৷ তবে রাজনৈতিক মহল মনে করছে, লোকসভা ভোটে বিজেপির দিকে হাওয়া টানতে ও মেরুকরণ আরও স্পষ্ট করতে জেনে বুঝেই সিনেমাকে টোপ হিসাবে ব্যবহার করতে চাইছে গেরুয়া শিবির৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে