BREAKING NEWS

১৬ মাঘ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ৩১ জানুয়ারি ২০২৩ 

READ IN APP

Advertisement

‘কৃষকদের উপর নিয়ন্ত্রণ হারানো ভয় পাচ্ছেন আপনারা’, কৃষি বিল নিয়ে বিরোধীদের কটাক্ষ মোদির

Published by: Paramita Paul |    Posted: September 21, 2020 1:54 pm|    Updated: September 21, 2020 2:14 pm

Bengali news: Some Fear Control Slipping Away, PM Modi slams Opposition On Farm Bills | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: তীব্র বিতর্কের মধ্যেই রাজ্যসভার পাশ হয়েছে কৃষি বিল (Farm Bill, 2020)। তারপরে হিন্দি, ইংরাজি ও পাঞ্জাবিতে টুইট করে কৃষকদের শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী। সাংবাদিক বৈঠক করে বিলে গুনাগুন ব্যাখা করেছিলেন ছয় কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। তাতেও চিঁড়ে ভেজেনি। দেশজুড়ে এই বিলের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নেমেছেন কৃষকরা। সরব বিরোধীরাও। এমন পরিস্থিতিতে এই ‘ঐতিহাসিক’ বিল নিয়ে সোমবার রীতিমতো জাতির উদ্দেশে বক্তব্য রাখলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Narendra Modi)। আরও একবার আশ্বস্ত করলেন ন্যূনতম সহায়কমূল্য নিয়ে। এই বিল যে কৃষিমাণ্ডি বিরোধী নয়, তাও এদিন স্পষ্ট করে দিলেন তিনি। আবার এই বিলের বিরোধিতা করায় বিরোধীদেরও একহাত নিলেন মোদি। বললেন, “কৃষকদের উপর থেকে নিয়ন্ত্রণ ফসকে যাওয়ার ভয়ে মিথ্যা বলে ভুল বোঝাচ্ছে বিরোধীরা”।

এদিন ভারচুয়ালভাবে বিহারে ঘর তক ফাইবার-সহ একাধিক প্রকল্পের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। সেখান থেকেই ফের একবার এই বিল নিয়ে বক্তব্য রাখেন।প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কথায়, “একুশ শতকে দাঁড়িয়ে কৃষকদের আয় বাড়াতে, তাঁদের আর্থিক অবস্থার উন্নতি করতে এই বিল অত্যন্ত সহায়ক। এই বিল আইনে পরিণত হতে দেশের যে কোনও প্রান্তে নিজেদের ফসল বিক্রি করতে পারবেন চাষিরা”। 

[আরও পড়ুন : দেশে করোনা সংক্রমণ কি শিখরে পৌঁছেছে? জানুন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রীর জবাব]

কৃষি বিল পাশ হওয়ার পর থেকেই এমএসপি বা ন্যূনতম সহায়ক মূল্য নিয়ে চিন্তিত চাষিরা। বিরোধীদের দাবি, এই আইন কার্যকর হলে প্রতিবছর ন্যূনতম সহায়কমূল্য দিয়ে সরকার সরাসরি চাষিদের থেকে ফসল কেনার প্রথা লোপ পাবে। বেসরকারি হাতে চলে যাবে বাজার। ফলে বিপুল ক্ষতি হবে চাষিদের। তাঁদের আরও অভিযোগ, বিভিন্ন এলাকার কৃষিমাণ্ডিগুলি গুরুত্ব হারাবে। এই অভিযোগ অস্বীকার করে প্রধানমন্ত্রীর দাবি, “বিরোধীরা নিজেদের স্বার্থে ভুল বোঝাচ্ছে। কৃষিমাণ্ডি বন্ধ হবে না। বরং সরকার এটাকে আরও উন্নত করার চেষ্টা করছে। যাঁরা আজ প্রশ্ন তুলছেন তাঁরাই এতদিন ন্যূনতম সহায়কমূল্যের বিষয় চাষিদের ঠকিয়েছেন। কেন্দ্রের বিজেপি সরকার কৃষি দরদী”। একইসঙ্গে মোদির আশ্বাস, ন্যূনতম সহায়ক মূল্যের বিনিময় সরকার যেমন ফসল কিনত তেমনই কিনবে। 

[আরও পড়ুন : দেশে একদিনে করোনা সংক্রমিত প্রায় ৮৭ হাজার, আশা জাগিয়ে বিশ্বে সুস্থতার হারে শীর্ষে ভারত]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে