১৩ কার্তিক  ১৪২৭  শুক্রবার ৩০ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

ভারতে করোনার ভ্যাকসিন আসতে পারে নতুন বছরের গোড়াতেই, দাবি শীর্ষস্থানীয় বিজ্ঞানীর

Published by: Biswadip Dey |    Posted: September 22, 2020 4:19 pm|    Updated: September 22, 2020 4:36 pm

An Images

প্রতীকী ছবি

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সব কিছু ঠিক থাকলে আগামী বছরের গোড়াতেই ভারতের বাজারে চলে আসবে করোনার ভ্যাকসিন। তবে তার আগে ওই ভ্যাকসিন সার্বিকভাবে প্রয়োগের উপযোগী কিনা এবং তা দেশের ১৩০ কোটি মানুষের জন্য নিরাপদ কিনা তা খতিয়ে দেখা হবে। তারপরেই তা বাজারজাত করার ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। শীর্ষ ভ্যাকসিন বিজ্ঞানী গগনদীপ কাং একথা জানিয়েছেন।

তিনি WHO’র গ্লোবাল অ্যাডভাইজরি কমিটির সদস্য এবং ভেলোরের খ্রিস্টান মেডিক্যাল কলেজের মাইক্রো বায়োলজির অধ্যাপিকা। জুলাই পর্যন্ত তিনি ভ্যাকসিন নির্মাণ সংক্রান্ত ভারত সরকারের কমিটির প্রধান ছিলেন।

[আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্তকে পিটিয়ে মারল হাসপাতালের কর্মচারী, ভাইরাল গুজরাটের ভিডিও]

করোনার ভ্যাকসিন কবে আসবে তা নিয়ে দীর্ঘ সময় ধরেই নানা জল্পনা চলছে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প জানিয়েছিলেন অক্টোবরের মধ্যেই আমেরিকায় চলে আসবে ভ্যাকসিন। ভারতেও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi) আগস্টের মাঝামাঝি সময়ের মধ্যে ভ্যাকসিন আসার ব্যাপারে আশাপ্রকাশ করেছিলেন। গত বৃহস্পতিবার রাজ্যসভায় কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন দাবি করেছিলেন, আগামী বছরের শুরুতেই ভারতে কোভিড-১৯-এর (COVID-19) ভ্যাকসিনের দেখা মিলবে। তিনি জানান, এই সংক্রান্ত তিনটি গবেষণা তিনটি স্তরে রয়েছে। পাশাপাশি তিনি এও জানান, বছরের শুরু থেকে ভ্যাকসিন মিললেও তা সকলের কাছে পৌঁছতে সময় লাগবে।

[আরও পড়ুন: রাতভর সংসদ চত্বরে ধরনায় ৮ সাংসদ, সকালে চা আনলেন খোদ রাজ্যসভার ডেপুটি চেয়ারম্যান]

গগনদীপের কথাতেও একই সুর শোনা গিয়েছে। তিনিও জানিয়েছেন, তিন রকমের ভ্যাকসিনের পরীক্ষামূলক প্রয়োগ চলছে। প্রাপ্তবয়স্কদের শরীরের পাশাপাশি শিশু, গর্ভবতী মহিলা ও রোগীদের শরীরেও ভ্যাকসিন রোগ প্রতিরোধ তৈরি করতে পারছে কিনা সেটাও যাচাই করে দেখা হবে।

গগনদীপ জানিয়েছেন, ‘‘বছর শেষের আগেই আমাদের কাছে তথ্য চলে আসবে কোন ভ্যাকসিন কার্যকরী হয়েছে এবং কোন ভ্যাকসিন ততটা ফলপ্রসূ হবে না।’’ তিনি আরও বলেন, ‘‘যদি আমরা এই বছরের মধ্যে ভালো ফল পাই, তাহলে ২০২১ সালের প্রথমার্ধের মধ্যে দ্রুত ভ্যাকসিন বাজারজাত করা হবে। পরবর্তী সময়ে বেশি সংখ্যক ভ্যাকসিন বাজারে আনা হবে।’’

এদিকে দেশে করোনা সংক্রমণের মাত্রা এখনও আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় প্রায় ৭৫ হাজার মানুষ করোনার কবলে পড়েছেন। তবে এই সংখ্যা বিগত কয়েকদিনের তুলনায় কম।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement