২ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

করোনা সন্দেহভাজনদের মৃতদেহ সৎকারের নিয়ম বদল, বড় ঘোষণা কেন্দ্রের

Published by: Paramita Paul |    Posted: June 14, 2020 9:39 pm|    Updated: June 14, 2020 9:46 pm

An Images

প্রতীকী ছবি

নন্দিতা রায়, নয়াদিল্লি: করোনায় মৃতদের সৎকার ঘিরে ক্রমাগত জলঘোলা হচ্ছে। কোথাও লাশের পাহাড় জমে থাকার অভিযোগ উঠছে, তো কোথাও আবার অমানবিকভাবে শেষকৃত্য করার অভিযোগ উঠেছে। এমনকী , এই ইস্যুতে কেন্দ্র-সহ চার রাজ্যকে নোটিশ ধরিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। তাই এবার এ নিয়ে বড় সিদ্ধান্ত নিল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। রবিবার রাতে টুইট করে সেই সিদ্ধান্তের কথা জানায় কেন্দ্র সরকার। কী সেই সিদ্ধান্ত্?

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের টুইটে বলা হয়েছে, করোনায় মৃত্যু হয়েছে,  শুধুমাত্র এমন সন্দেহের বশে আর দেহ আটকে রাখা চলবে না। ল্যাবের পরীক্ষার রিপোর্ট হাতে না এলেও মরদেহ পরিবারের হাতে তুলে দিতে হবে। তবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সরকারি নিয়ম মেনেই শেষকৃত্য করতে হবে বলে জানানো হয়েছে। প্রসঙ্গত, করোনা উপসর্গ আছে এমন কারোর মৃত্যুর পর লালারসের নমুনার রিপোর্ট হাতে আসার পরই দেহ ছাড়া হত। এবার সেই নিয়ম বদল করল কেন্দ্র সরকার। ওয়াকিবহাল মহলের ধারণা, যে হারে করোনায় মৃত্যু বাড়ছে, তাতে বিভিন্ন এলাকায় লাশের পাহাড় জমছে। উপরন্তু মৃত্যুর পর দেহ না পেয়ে ক্ষোভও বাড়ছে পরিজনদের। সেই ক্ষোভের আঁচ প্রশমিত করতেই এবার এমন সিদ্ধান্ত নিল কেন্দ্র সরকার। তবে এই সিদ্ধান্তে সংক্রমণ আরও ছড়াতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। প্রসঙ্গত, এদিনই থানের এক শ্মশানের দুই কর্মী করোনা আক্রান্ত হয়েছেন বলে খবর মিলেছে। 

[আরও পড়ুন : ব্যাংকে গ্রাহকের সশরীরে হাজিরা চাই, খাটিয়ায় চাপিয়ে শতায়ু মাকে টেনে নিয়ে গেলেন মেয়ে]

প্রসঙ্গত, বিভিন্ন রাজ্যে হাসপাতালে মৃতদেহ আটকে রাখার অভিযোগ উঠছে। অন্যরোগে মৃত্যু হলেও অনেক সময় করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট হাতে না আসা পর্যন্ত মৃতদেহ আটকে রাখা হচ্ছে। ফলে মৃতের আত্মীয়রা হেনস্থার শিকার হচ্ছেন। এবার সরকারের নয়া নিয়মের ফলে সেই হয়রানি অনেকটাই কমবে বলে মনে করা হচ্ছে।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement