৬ শ্রাবণ  ১৪২৬  সোমবার ২২ জুলাই ২০১৯ 

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  লোকসভা ভোটের জন্যই আরও দু’মাস চাকরি থেকে থেকে গেল ভারত সঞ্চার নিগম লিমিটেডের (বিএসএনএল) ৫৪ হাজারেরও বেশি কর্মীর। ভোটের আগে এই বিপুল পরিমাণ কর্মী ছাঁটাইয়ের কথা ঘোষণা করা হলে ইভিএমে বড় মাপের নেতিবাচক প্রভাব পড়তে পারে, এই আশঙ্কায় আপাতত মাস দু’য়েকের জন্য বিষয়টি ধামাচাপা দিয়ে রাখা হয়েছে।

[ আরও পড়ুন: সাজা শেষ হওয়ার পরও পাকিস্তানের জেলে বন্দি ১০ ভারতীয়, ফেরাতে উদ্যোগ কেন্দ্রের]

বিশ্বস্ত সূত্রের খবর, লোকসভা ভোটের পরই বিএসএনএলের ৫৪,৪৫১ জন কর্মীকে ছাঁটাই করতে চলেছে সংস্থা। বেশ কয়েক বছর ধরেই রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাটির পরিস্থিতি বেহাল।সংস্থার হাল ফেরাতে কী করা দরকার তা জানতে একটি বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করেছিল বিএসএনএল কর্তৃপক্ষ। ওই কমিটি সব দিক খতিয়ে দেখে ১০টি সুপারিশ করেছিল। যার মধ্যে তিনটি অনুমোদন করেছে বিএসএনএল। বিশেষজ্ঞ কমিটির করা সুপারিশগুলির মধ্যে উল্লেখযোগ্য বিষয়গুলি হল, সংস্থার কর্মীদের অবসরের বয়স ৬০ বছর থেকে কমিয়ে ৫৮ করা। পঞ্চাশোর্ধ কর্মীদের স্বেচ্ছাবসর বা ভিআরএস দেওয়া এবং যত শীঘ্র সম্ভব বিএসএনএলকে ৪জি স্পেকট্রাম বরাদ্দ করা। কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী সংস্থা অবসরের বয়স কমানো এবং স্বেচ্ছাবসর দেওয়ার সিদ্ধান্ত মেনে নেওয়ায় বিএসএলএলের প্রায় ৫৪,৪৫১ জন কর্মী ছাঁটাই হতে চলেছেন। অবসরের বয়স কমানোয় ৩৩,৫৬৮ জন কর্মী বাদ পড়তে চলেছেন। অন্যদিকে স্বেচ্ছাবসরে কারণে বাদ পড়তে চলেছেন ২০,৮৮৩ জন। তবে ভোটের কারণে এখনই বিষয়টি নিয়ে কোনও ঘোষণায় যেতে রাজি নয় বিএসএনএলের পরিচালন পর্যদ। তারা এখনও ছাঁটাইয়ের প্রস্তাব উড়িয়ে দিচ্ছে।

[আরও পড়ুন:বিয়ের উপহার হিসেবে পাওয়া সব অর্থ সেনা খাতে দেবেন CRPF জওয়ান]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং