BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘পদবী ছাড়া কিছুই নেই’, জ্যোতিরাদিত্য ইস্যুতে বিজেপিকে কটাক্ষ প্রশান্ত কিশোরের

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: March 10, 2020 7:05 pm|    Updated: March 10, 2020 8:57 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মঙ্গলবার সকালে কংগ্রেস থেকে পদত্যাগ করেছেন জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া। তারপরই অমিত শাহের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাসভবনে গিয়ে বৈঠক করেছেন তিনি। তারপরই জল্পনা শুরু হয় আজ সন্ধেতেই বিজেপিতে যোগদান করবেন তিনি। তারপরই তাঁকে রাজ্যসভার সাংসদ বানিয়ে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায় জায়গা করে দেবেন নরেন্দ্র মোদি। এই নিয়ে জল্পনা চলাকালীন মধ্যপ্রদেশের সদ্য প্রাক্তন ওই কংগ্রেস নেতাকে মাকাল ফলের সঙ্গে তুলনা করলেন ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোর। সিন্ধিয়া পদবি ছাড়া জ্যোতিরাদিত্যের কাছে আর কিছুই নেই বলে কটাক্ষ করলেন।

গান্ধী পরিবারকে মাথায় তুলে রাখার জন্য যে বিজেপি কংগ্রেসকে দিনরাত কটাক্ষ করে। তারাই আজ পরিবারতান্ত্রিক রাজনীতির ধারক-বাহক হয়ে উঠছে বলেও ব্যঙ্গ করেন জেডিইউ(JDU)-র প্রাক্তন সহ-সভাপতি প্রশান্ত কিশোর। তিনি টুইট করেন, ‘গান্ধী পদবীর প্রতি প্রেমের জন্য যাঁরা কংগ্রেসকে কটাক্ষ করেন। তাঁরা নেতৃত্ব দেন বলে সবসময় সমালোচনা করেন। তাঁরা মনে করছেন একজন সিন্ধিয়া চলে গেলে কংগ্রেস জোর ধাক্কা খাবে। কিন্তু, আসল ঘটনা হল সিন্ধিয়া পদবী ছাড়া জননেতা হিসেবে জ্যোতিরাদিত্যর তেমন কোনও অবদান নেই। রাজনৈতিক সংগঠক এবং প্রশাসক হিসেবেও তিনি কিছু করতে পারেননি।’

[আরও পড়ুন: করোনার সঙ্গে ‘দোসর’ কলেরা! বেঙ্গালুরুতে বন্ধের মুখে স্ট্রিট ফুড ]

 

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, মঙ্গলবার সকালে নিজের অ্যাকাউন্ট থেকে ইস্তফার চিঠি টুইট করেন জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া। তার কয়েক মিনিটের মধ্যে কংগ্রেস থেকে তাঁকে ‘বহিষ্কার’ করা হয়। এপ্রসঙ্গে কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক কেসি বেণুগোপাল বলেন, ‘দলবিরোধী কাজের জন্য তাঁকে তাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে।’ বিজেপি এদিনই মধ্যপ্রদেশের সব বিধায়ককে ভোপালে আসতে বলেছে। সেখানে সন্ধ্যা ছ’টা থেকে এক হোটেলে তাদের বৈঠক হবে। সম্ভবত তার পরেই বিজেপি মধ্যপ্রদেশে সরকার গড়ার দাবি জানাবে। মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসাবে তুলে ধরা হবে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহানকে।

[আরও পড়ুন: ‘ঘর ওয়াপসি’, জ্যোতিরাদিত্যের বিজেপিতে যোগের সম্ভাবনায় মন্তব্য পিসি যশোধরার]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement