Advertisement
Advertisement

Breaking News

চিনা অতিথিদের ঘর দেবে না দিল্লির হোটেল

লাদাখ সংঘর্ষের জের, চিনা নাগরিকদের ঘরভাড়া দিতে নারাজ দিল্লির হোটেল অ্যাসোসিয়েশন

চিনা দ্রব্য বয়কটের পাশাপাশি এভাবেও প্রতিবাদে শামিল হোটেল ব্যবসায়ীরা।

Chinese guests are not welcome, Delhi Hotels Associaction's messege
Published by: Sucheta Sengupta
  • Posted:June 25, 2020 5:06 pm
  • Updated:June 25, 2020 5:50 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লাদাখে ভারত-চিন সংঘর্ষের জেরে দেশে চিন-বিরোধিতা বাড়ছে বই কমছে না। দিনকয়েক ধরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রেন্ডিং #BoycottChina. চিনা পণ্য বয়কটের ডাক দিয়েছেন দেশবাসী। চিন থেকে আসা কোনও দ্রব্যে ক্লিয়ারেন্স দিচ্ছে না কলকাতা বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ। এমন চিন-বিরোধিতার পরিবেশে আরও কড়া সিদ্ধান্ত নিল দিল্লির হোটেল অ্যাসোসিয়েশন। রাজধানীতে আগত চিনের কোনও নাগরিককেই ঘরভাড়া দেবেন না, এই সিদ্ধান্তে এককাট্টা হলেন হোটেল মালিকরা। তাঁদের বার্তা, চিনা পণ্য বয়কটের পাশাপাশি চিনা অতিথিদেরও স্বাগত জানাবেন না।

দিল্লি হোটেল অ্যান্ড হাউজ ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের আওতায় একটু কম ভাড়ার প্রায় তিন হাজার হোটেল আছে। রাজধানীতে কোনও কাজে অথবা ঘুরতে এলে বহু সাধারণ বিদেশি অতিথিই এসব হোটেলে থাকা পছন্দ করেন। কিন্তু এবার চিনাদের জন্য বন্ধ হল এসব হোটেল, লজের দরজা। অ্যাসোসিয়েশনের তরফে স্পষ্ট জানিয়ে দেওয়া হল, চিনা অতিথিদের আর স্বাগত জানাতে পারবে না তারা। সংগঠনের তরফে জানানো হয়েছে, সাম্প্রতিক লাদাখ পরিস্থিতিতে চিনের প্রতি ক্ষুব্ধ দেশের ব্যবসায়ী মহল। সেই পথে হেঁটেই ‘বয়কট চিন’ আন্দোলনের একটা অংশ হিসেবে দিল্লি হোটেল অ্যাসোসিয়েশন এই সিদ্ধান্ত নিল।

Advertisement

[আরও পড়ুন: বেসরকারি সংস্থার জন্য মহাকাশ গবেষণার দরজা ‘আনলক’ করল কেন্দ্র]

গত সপ্তাহে লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় বিনা প্ররোচনায় ভারতীয় সেনাদের উপর চিন সেনার হামলা এবং তাতে ২০ জন ভারতীয় জওয়ানের শহিদ হওয়ার খবর ছড়িয়ে পড়তেই সামগ্রিকভাবে চিন-বিরোধিতায় সুর চড়িয়েছেন দেশবাসী। ভারতে চিনা পণ্যের বেশ ভাল বাজার। কিন্তু সেসব পণ্যের প্রতি মোহভঙ্গ হওয়ায় বহু সাধারণ মানুষ থেকে রাজনৈতিক দলের নেতা, কর্মীরাও Boycott China – এই সুর তুলে প্রতিবাদে শামিল হয়েছেন। দেশের বিভিন্ন প্রান্তে এ নিয়ে বিক্ষোভ হয়েছে। এমনকী চিন সেনার আগ্রাসনের বিরুদ্ধে ভারতের পক্ষ নিয়ে এককাট্টা হয়েছেন কলকাতার চায়না টাউনের বাসিন্দারাও। এই অবস্থায় দিল্লির হোটেল অ্যান্ড হাউজ ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন অনেকে।

Advertisement

[আরও পড়ুন: করোনা চিকিৎসার নামে প্রতারণা! দুই রাজ্যে নিষিদ্ধ পতঞ্জলির ‘করোনিল’]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ