Advertisement
Advertisement
Pakistani boat

মাদক জিহাদ! গুজরাট উপকূলে ৪০০ কোটি টাকার হেরোইন-সহ আটক পাকিস্তানি নৌকা

এর আগে গুজরাটে আদানির বন্দরে আফগান জাহাজ থেকে ২০ হাজার কোটি টাকার মাদক উদ্ধার হয়েছিল।

Coast Guard seizes Pakistani boat with ‘heroin worth Rs 400 crore’ | Sangbad Pratidin
Published by: Subhajit Mandal
  • Posted:December 20, 2021 11:54 am
  • Updated:December 20, 2021 11:54 am

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের পাকিস্তান থেকে ভারতের মাটিতে মাদক পাচারের ছক বানচাল। গুজরাট উপকূলে ৪০০ কোটি টাকার হেরোইন-সহ ধরা পড়ল পাকিস্তানি নৌকা (Pak Boat)। নৌকাটিতে ছিল ৬ পাক নাগরিকও। এমনটাই জানিয়েছে প্রতিরক্ষামন্ত্রক।

প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, উপকূল রক্ষা বাহিনী (Indian Coast Guard) এবং গুজরাট পুলিশের দুর্নীতিদমন শাখার যৌথ অভিযানে গুজরাট উপকূল থেকে ‘আল হুসেইনি’ (Al Huseini) নামের একটি পাকিস্তানি নৌকা আটক হয়েছে। নৌকাটি আন্তর্জাতিক জলসীমা অতিক্রম করে ভারতীয় জলসীমায় ঢুকে পড়েছিল। নৌকাটি থেকে ৭৭ কেজি হেরোইন উদ্ধার হয়েছে। যার আনুমানিক বাজারমূল্য ৪০০ কোটি টাকা। প্রতিরক্ষামন্ত্রক জানিয়েছে, জাহাজটিকে গুজরাট সীমান্তে আনা হয়েছে। ঠিক কী উদ্দেশ্যে ওই বিপুল পরিমাণ মাদক ভারতের দিকে আনা হচ্ছিল, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

[আরও পড়ুন: সংসদে বিরোধী ঐক্যে চিড় ধরানোর চেষ্টা! কেন্দ্রের আলোচনার প্রস্তাব খারিজ পাঁচ বিরোধী দলের]

প্রসঙ্গত, গত সেপ্টেম্বর মাসেই আদানি গোষ্ঠীর (Adani Group) মুন্দ্রা বন্দরে একটি জাহাজ থেকে দু’টি কন্টেনার বোঝাই প্রায় ৩ হাজার কিলোগ্রাম হেরোইন বাজেয়াপ্ত করা হয়েছিল। যার বাজারমূল্য প্রায় ২০ হাজার কোটি টাকা। রাজস্ব গোয়েন্দা বিভাগের আধিকারিকদের ওই অভিযানে মাদক-সহ গ্রেফতার করা হয় দুই ব্যক্তিকে। পরে গোয়েন্দা সূত্রে জানা যায়, আফগানিস্তান থেকে ‘পাউডার’ আমদানির নাম করে মাদক চোরাচালানে যুক্ত ছিলেন তাঁরা। এই ঘটনার পর বিশেষ নির্দেশিকা জারি করে আদানি গোষ্ঠী। সংস্থার তরফে জানানো হয়, ইরান, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে আসা কোনও কার্গো কন্টেনার আর খালাস করতে দেওয়া হবে না তাদের বন্দরে।

[আরও পড়ুন: ‘সর্দার প্যাটেল বেঁচে থাকলে আরও আগে স্বাধীন হত সৈকত রাজ্য’, গোয়ায় মন্তব্য মোদির]

প্রতিরক্ষা বিশেষজ্ঞদের আশঙ্কা, আদানিদের বন্দরের মাধ্যমে মাদক ভারতে ঢোকাতে না পেরে ঘুরপথে ভারতে মাদক ঢোকানোর চেষ্টা করছে পাকিস্তান। পাক পাচারকারীদের উদ্দেশ্য, বিপুল পরিমাণ মাদক এদেশের চালান করে যুব সমাজকে বিপথে চালনা করা। কিন্তু ভারতীয় নিরাপত্তারক্ষীদের তৎপরতায় এই ‘মাদক জিহাদে’ এখনও সাফল্য পায়নি পাকিস্তান।

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ