৭ ফাল্গুন  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সোমনাথ রায়, নয়াদিল্লি: আন্দোলনের জয়। পুরনো ফি দিয়েই জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ে রেজিস্ট্রেশন করানো যাবে সেমিস্টারের। আজ দিল্লি হাই কোর্টে এই সংক্রান্ত মামলার শুনানি চলাকালীন বিচারপতিরা অন্তর্বর্তীকালীন নির্দেশ দেন। যাতে বলা হয়েছে, বর্ধিত ফি দিতে হবে না। হস্টেল ফি-ও আপাতত একই থাকবে। রেজিস্ট্রেশনের জন্য এক সপ্তাহ সময় বাড়িয়ে দেওয়া হোক। নির্দেশে আরও বলা হয়েছে, পড়ুয়াদের সঙ্গে কর্তৃপক্ষকে বসে আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করতে হবে। দিল্লি হাই কোর্টের এই নির্দেশাবলিতে আপাতত স্বস্তি ফিরল জেএনইউ-এর ছাত্রছাত্রীদের।

বিচারপতিরা জেএনইউ-এর পড়ুয়াদের উদ্দেশে জানিয়েছেন তাঁরা যেন আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে সেমিস্টারের জন্য রেজিস্ট্রেশন করিয়ে নেন। কর্তৃপক্ষকেও রেজিস্ট্রেশনের সময়সীমা বাড়াতে বলা হয়েছে। এর জন্য কোনও জরিমানাও নেওয়া যাবে না বলে নির্দেশ দিয়েছেন বিচারপতিরা। পাশাপাশি, আলোচনাক্রমে সমস্যার স্থায়ী সমাধান খুঁজে বের করার পরামর্শ আদালতের।

[আরও পড়ুন: সাধারণতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে ব্রাজিলের রাষ্ট্রপতির উপস্থিতি নিয়ে বিতর্ক, প্রতিবাদ জানাবে বামেরা]

দিল্লির জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের হস্টেল ফি বৃদ্ধি নিয়ে সেই অক্টোবর মাস থেকে আন্দোলন চলছিল ছাত্র সংসদ এসএফআইয়ের নেতৃত্বে। বর্ধিত ফি প্রত্যাহার না হওয়া পর্যন্ত সেমিস্টারও বয়কট করার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন আন্দোলনরত পড়ুয়ারা। এই পরিস্থিতিতে যাঁরা সেমিস্টার দিতে আগ্রহী, তাদেরও রেজিস্ট্রেশন করাতে বাধা দেওয়া হয় বলে অভিযোগ উঠেছে। যার ফলে গত ৪ তারিখ ক্যাম্পাসে হামলার ঘটনা ঘটে। তা নিয়ে তোলপাড় হয়ে উঠেছিল দেশের শিক্ষামহল। এর জন্য জেএনইউয়ের রেজিস্ট্রার প্রমোদ কুমার এসএফআই সদস্যদেরই দায়ী করেছিলেন। ফি নিয়ে সুস্থ সমাধানে আসতে মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রকের ডাকা বৈঠকে পড়ুয়ারা হাজির থাকলেও, একাধিকবার তা এড়িয়েছেন উপাচার্য নিজে। জটিলতা কাটিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ে সেমিস্টারের জন্য পড়ুয়াদের রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া দ্রুত শেষ করার নির্দেশ দিয়েছিল মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রক। এবার সেই একই নির্দেশ দিল দিল্লি হাই কোর্ট।

[আরও পড়ুন: কেরল-পাঞ্জাবের পর এবার রাজস্থান, বিধানসভায় পেশ CAA বিরোধী প্রস্তাব]

শুক্রবার আদালতের রায়ের পর স্বস্তিতে জেএনইউ ছাত্র সংসদ থেকে সাধারণ পড়ুয়া সকলেই। তাঁদের এতদিনকার আন্দোলনের জয় বলে মনে করছে ছাত্র সংসদ। আপাতত পুরনো ফি-তেই সেমিস্টারে বসার সুযোগ পাওয়ায় ফের ক্লাসে ফিরছেন পড়ুয়ারা। আশা করছেন, স্থায়ী সমাধান মিলবে খুব দ্রুতই।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং