BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘কেন্দ্রের সাথে কথা বলুন’, পরিযায়ী শ্রমিকদের ফেরানোর দাবিতে মমতাকে চিঠি অধীরের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: April 19, 2020 10:48 am|    Updated: April 19, 2020 10:48 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভিনরাজ্যে আটকে থাকা পরিযায়ী শ্রমিকদের সমস্যা নিয়ে বারবার সরব হয়েছেন লোকসভার কংগ্রেসের দলনেতা অধীর রঞ্জন চৌধুরি। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে (Narendra Modi) এই সমস্যা নিয়ে আগেই চিঠি লিখেছেন তিনি। এবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে চিঠি দিলেন অধীরবাবু। ভিনরাজ্যে আটকে থাকা বাঙালি শ্রমিকদের রাজ্যে ফেরাতে প্রয়োজনে কেন্দ্রের কাছে দরবার করার পরামর্শ দিলেন প্রদেশ কংগ্রেসের প্রাক্তন সভাপতি।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে উদ্দেশ্য করা চিঠিতে কংগ্রেস নেতা লিখেছেন, “সারা ভারতবর্ষে লকডাউনের জন্য বাংলার বহু মানুষ আটকে আছেন। তাঁদের বেশিরভাগই দিনমজুর, শ্রমিক, রোজগারহীন, অসহায়। এছাড়াও বহু মানুষ, কেউ পড়তে গিয়ে, কেউ চিকিৎসার জন্য গিয়ে ভিনরাজ্যে আটকে আছেন। যারা প্রতিকুল পরিস্থিতির জন্য শোচনীয় অবস্থার সম্মুখীন।” অধীর চৌধুরি (Adhir Ranjan Chowdhury) বলছেন, গত তিন সপ্তাহে বহু মানুষ তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করে সাহায্য চেয়েছেন। তিনি সাধ্যমতো চেষ্টাও করছেন সাহায্য করার। কিন্ত কেন্দ্র ও রাজ্যের সমন্বয় ছাড়া পরিযায়ী শ্রমিকদের দুর্দশা ঘোচানো সম্ভব নয়।

[আরও পড়ুন: বাড়িটাই যেন ‘কন্ট্রোল রুম’, বাংলার পরিযায়ী শ্রমিকদের সাহায্যার্থে নিরলস অধীর চৌধুরি]

রাজ্য সরকারকে এই শ্রমিকদের দুর্দশা ঘোচাতে কয়েকটি পরামর্শও দিয়েছেন অধীর। মুখ্যমন্ত্রীকে কংগ্রেস নেতা বলছেন, যারা ভিনরাজ্যে আটকে আছেন বাংলাভাষায় তাঁদের জন্য কেন্দ্রীয় হেল্পলাইন খোলা হোক। এবং নাম নথিভুক্ত করে সংশ্লিষ্ট রাজ্য সরকারের কাছে এদের জন্য সুব্যবস্থা করার আবেদন জানানো হোক। লকডাউন দীর্ঘমেয়াদি হলে এই ব্যবস্থা সম্ভব নয়, সেক্ষেত্রে এদের রাজ্যে ফেরানোর ব্যবস্থা করা হোক। অধীরবাবু বলছেন, “আমি পরিযায়ী শ্রমিকদের সমস্যা নিয়ে আগেই প্রধানমন্ত্রীর কাছে দরবার করেছি। আপনিও চাইলে বাংলার মানুষের প্রয়োজনে কেন্দ্রের কাছে বারবার আবেদন করুন। আমাকে পাশে পাবেন।” এছাড়া বাংলার রেশন দুর্নীতি নিয়েও সরব হয়েছেন লোকসভার কংগ্রেস দলনেতা। তাঁর দাবি, জাতি, ধর্ম, দল নির্বিশেষে সবার জন্য রেশনের সুব্যবস্থা কর‍তে হবে। প্রয়োজনে রেশন সমস্যার জন্য আলাদা হেল্পলাইন খোলার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement