BREAKING NEWS

২১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বুধবার ৮ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘ফের তৈরি হবে বাবরি মসজিদ’, পোস্টার ঘিরে উত্তেজনা উত্তরপ্রদেশে

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: December 6, 2017 7:51 am|    Updated: September 20, 2019 6:51 pm

'Construct Babri Mosque again' posters emerge in UP

করা তুলল মসজিদ তৈরির দাবি?

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বাবরি ধ্বংসের ২৫ বছর পূর্তি হল। স্বাভাবিকভাবেই দিনটি ভারতবাসীর কাছে অত্যন্ত স্পর্শকাতর। তার মাত্রা আরও বাড়ল এক পোস্টারকে কেন্দ্র করে। উত্তরপ্রদেশের বিভিন্ন অঞ্চলে একটি পোস্টার পড়েছে। যেখানে স্পষ্ট লেখা আছে, বিতর্কিত ভূমিতে ফের গড়ে তোলা হবে বাবরি মসজিদ। এই পোস্টারের পরই বাড়ে বিতর্ক। নিরাপত্তা আরও জোরদার করা হয় বিভিন্ন অঞ্চলে।

বাবরি ধ্বংসের ২৫ বছর: দেশের কি মনে আছে এদিনের ইতিবৃত্ত? ]

মঙ্গলবারই বাবরি ধ্বংস ও রাম মন্দির সংক্রান্ত মামলার শুনানি শুরু হয় সুপ্রিম কোর্টে। তবে তার আগেই কার্যত মন্দির তৈরির দিনক্ষণ ঘোষণা হয়ে গিয়েছিল। আরএএস ও বিশ্ব হিন্দু পরিষদের তরফে সে ঘোষণায় প্রশ্ন উঠেছিল। বিচারাধীন বিষয় নিয়ে কী করে নেতারা মন্তব্য করছেন, সে প্রশ্নের সুরাহা হয়নি। এর মধ্যেই মামলার শুনানি শুরু হয়। কপিল সিব্বলের মতো আইনজীবীর মত ছিল, এরকম স্পর্শকাতর বিষয়ের শুনানি যেন পিছিয়ে দেওয়া হয়। ২০১৯ সাধারণ নির্বাচনের পর যেন তা শুরু করা হয়। এতে নারাজ হয় সুপ্রিম কোর্ট। চূড়ান্ত শুনানির দিন ধার্য হয় আগামী বছরের ৮ ফেব্রুয়ারি। ফলে এখনও ইস্যুটি বিচারাধীন। এর মধ্যেই মসজিদ তৈরির দাবি ওঠায় ফের নয়া বিতর্ক বেঁধেছে।

বাবরি বিতর্ক নিষ্পত্তিতে তৎপর সর্বোচ্চ আদালত, চূড়ান্ত শুনানি ৮ ফেব্রুয়ারি ]

সর্বভারতীয় এক সংবাদমাধ্যকে, উত্তরপ্রদেশের এক শীর্ষ পুলিশ কর্তা জানিয়েছেন, পোস্টার পড়েছে তা সত্যি। মিরাট, গাজিয়াবাদ, আলিগড়, শাহারাণপুরের বিভিন্ন এলাকায় দেখা গিয়েছে এই পোস্টার। যেখানে সাফ জানানো হয়েছে, পঁচিশ বছরের বিশ্বাসঘাতকতা শেষে ফের গড়ে তোলা হবে বাবরি মজসিদ। ‘পপুলার ফ্রন্ট অফ ইন্ডিয়া’ নামে এক সংগঠনের তরফেই এই পোস্টার ছড়িয়ে দেওয়া হয়।

[ ‘সেনারা দেশের জন্য প্রাণ দেন, ওঁদের সন্তানদের পড়ার খরচে কার্পণ্য নয়’ ]

এদিকে বাবরি ধ্বংসের পঁচিশ বছর উপলক্ষে সমস্ত রাজ্যগুলিকে নিরাপত্তার দিকে বাড়তি নজর দেওয়ার আবেদন জানিয়েছে কেন্দ্র। কোথাও কোনও সাম্প্রদায়িক হানাহানি যাতে না বাধে, সেদিকে খেয়াল রাখতে বলা হয়েছে। স্পর্শকাতর এলাকাগুলিতে অতিরিক্ত নিরাপত্তা বাহিনী বহাল করারও পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ে আজ সন্ধেয় একটি আলোচনা সভায় অংশ নেওয়ার কথা ছিল বিজেপি নেতা সুব্রহ্মণ্যম স্বামীর। যিনি জানিয়েছিলেন, আগামী দিওয়ালির সেলিব্রেশন হবে নবনির্মিত রামমন্দিরেই। কেন অযোধ্যাতে শুধু রাম মন্দিরই তৈরি হতে পারে, এদিন এই নিয়েই আলোচনা করার কথা ছিল তাঁর। কিন্তু নিরাপত্তাজনিত কারণেই সে আলোচনাসভা বাতিল করা হয়েছে।

নীল ছবির চেয়েও গুজরাটে বেশি চাহিদা হার্দিকের ‘সেক্স’ ভিডিওর ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে