BREAKING NEWS

৫ মাঘ  ১৪২৮  বুধবার ১৯ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

মা ও মেয়েকে দীর্ঘদিন ধরে ধর্ষণ, অভিযুক্ত পুলিশকর্মীর ছেলে

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: June 10, 2017 5:56 am|    Updated: June 10, 2017 5:56 am

Cop's son rapes woman and daughter, arrested in Delhi

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দিন কয়েক আগে গুরগাঁওয়ের ঘটনায় শিউরে উঠেছিলেন সাধারণ মানুষ৷ ১৯ বছরের যুবতীকে ধর্ষণ ও তাঁর শিশুকে খুন করে চম্পট দিয়েছিল তিন দুষ্কৃতী৷ রক্তাক্ত অবস্থায় সন্তানের মৃতদেহ নিয়ে মেট্রোয় সফর করতে হয়েছিল নির্যাতিতাকে৷ সব দেখেও মুখ ফিরিয়ে ছিলেন দিল্লিবাসী৷ পরে গ্রেপ্তার করা হয় তিনজনকে৷ সেই ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতে ফের শিরোনামে উঠে এল আরও এক ধর্ষণের খবর৷ এক মহিলা এবং তাঁর মেয়েকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠল পুলিশের ছেলের বিরুদ্ধে৷

[ফের স্বাভাবিক ছন্দে ফিরছে পাহাড়, ম্যালে পর্যটকদের ভিড়]

বাবা পুলিশ৷ তাই কুকর্ম করলেও বিপদে পড়তে হবে না৷ সম্ভবত এমনই মানসিকতা নিয়েই গত তিন সপ্তাহ ধরে এক বিধবা মহিলা এবং তাঁর ১৫ বছরের মেয়েকে ধর্ষণ করে যাচ্ছিল দিল্লি পুলিশের সাব-ইন্সপেক্টরের ছেলে৷ অবশেষে শুক্রবার গ্রেপ্তার করা হয় তাকে। যুবকের বিরুদ্ধে অভিযোগ, ধর্ষণের ঘটনা ভিডিও করে মহিলার মুখ বন্ধ রাখতে চেয়েছিল অভিযুক্ত আশিস কুমার৷ পুলিশ জানিয়েছে, আশিসের মোবাইলে এমন ১০টি ভিডিও ক্লিপ পাওয়া গিয়েছে৷ সবকটি ভিডিওই ৩৫ বছরের মহিলার বাড়ির ভিতর রেকর্ড করা৷

[চ্যারিটি ম্যাচে মারাদোনার বিরুদ্ধে মাঠে নামবেন সৌরভ]

পুলিশ সূত্রে খবর, মহিলাকে ধর্ষণের পর যখন তাঁর ১৫ বছরের মেয়ের দিকেও হাত বাড়ায় আশিস, তখনই আর সহ্য করতে পারেননি নির্যাতিতা৷ সাহস করে পুলিশে অভিযোগ জানিয়েছিলেন৷ সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই মহিলার বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করা হয় বিএ ফাইনাল বর্ষের ছাত্র আশিস কুমারকে৷ দীর্ঘদিন ধরেই ওই মহিলার উপর নজর ছিল দিল্লির গোকলপুরের বাসিন্দা আশিসের৷ মহিলার সঙ্গে আলাপ জমিয়ে তাঁর বাড়ির ঠিকানা জোগাড় করেছিল সে৷ কিন্তু আশিসের কু-মতলবের কথা মহিলা প্রথমে বুঝতে পারেননি৷ পরে তাঁর বাড়ি আসা শুরু করলে ঘটে এমন অপ্রীতিকর ঘটনা৷ গত বছরই স্বামীহারা হয়েছেন তিনি৷ মেয়ে দশম শ্রেণির ছাত্রী৷ গোটা ঘটনায় আতঙ্কিত তাঁরা৷ এদিকে, সংবিধানের ৩৭৬ ও ৫০৬ নম্বর ধারায় মামলা রুজু হয়েছে পুলিশ-পুত্রের বিরুদ্ধে৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে