BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

করোনা পরিস্থিতি: রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হল ১৯৮

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: April 19, 2020 9:01 am|    Updated: April 19, 2020 9:20 pm

An Images

করোনা সংক্রমণের বিরুদ্ধে কঠিন লড়াই লড়েই চলেছে ভারত তথা গোটা বিশ্ব। মারণ জীবাণু প্রাণ কেড়েছে বিশ্বের ১ লক্ষ ৬০ হাজার ছাড়িয়েছে। সংক্রমণ ছড়িয়েছে ২৩ লক্ষেরও বেশি মানুষের শরীরে। মৃত্যুর নিরিখে রেকর্ড গড়ছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। সেখানে করোনার বলি ৩৯ হাজার ছাড়িয়েছে। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে ভারতেও বাড়ছে ভাইরাসের দাপট। দেশে আক্রান্তের সংখ্যা ১৬,১১৬। মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫১৯। গোটা দেশের ১৭০ জেলাকে ‘হটস্পট’ হিসেবে চিহ্নিত করেছিল স্বাস্থ্যমন্ত্রক, যার মধ্যে বাংলার চার জেলাও রয়েছে। তবে সাম্প্রতিক রিপোর্ট অনুযায়ী, ২২টি জেলা করোনামুক্ত বলে ঘোষণা করা হয়েছে। স্পর্শকাতর এলাকাগুলি চিহ্নিত করে সিল করেছে প্রশাসন। পশ্চিমবঙ্গে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ১৯৮। স্বাস্থ্য দপ্তরের রিপোর্ট অনুযায়ী, রবিবার পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ১২ জনের। করোনা সংক্রান্ত সমস্ত আপডেট:

রাত ৯.১৫: জব্বলপুরের হাসপাতাল থেকে পলাতক করোনা আক্রান্ত। খোঁজ দিতে পারলে নগদ ১০ হাজার টাকার পুরস্কার ঘোষণা মধ্যপ্রদেশ পুলিশের।

রাত ৯টা: উত্তর-পূর্ব ও পূর্ব ভারতে আটকে থাকা ১৬০ জন ব্রিটিশ নাগরিককে বিশেষ বিমান কলকাতা থেকে ব্রিটেনে ফেরানো হল।

রাত ৮.২০: রাজ্যে ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত ২০ জন। মোট আক্রান্ত বেড়ে হল ১৯৮। মৃত্যু এখনও পর্যন্ত ১২ জনের, জানিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের স্বাস্থ্যদপ্তর।

রাত ৮টা: ৪ মে থেকে আন্তর্জাতিক এবং অন্তর্দেশীয় বিমানের বুকিং না নেওয়ার জন্য বিমান সংস্থাগুলিকে নির্দেশ ডিরেক্টর জেনারেল অফ সিভিল এভিয়েশনের। ওইদিন থেকে পরিষেবা শুরু হবে কিনা তা নিয়ে কোনও সিদ্ধান্ত হয়নি বলে জানিয়েছে DGCA।

সন্ধে ৭.৩০: চিকিৎসকরা রেকর্ড সংখ্যক করোনা পরীক্ষার নজির অন্ধ্রপ্রদেশের। মুখ্যমন্ত্রীর দপ্তর জানিয়েছে, দিনে প্রতি এক লক্ষ মানুষের মধ্যে ৫,৫০৮ জনের টেস্ট করা হচ্ছে।

সন্ধে ৭.২০: সোমবার থেকে আংশিক সচল হবে লোকসভার কার্যালয়। ২৫ শতাংশ কর্মী দপ্তরে এসে কাজ করবেন, বাকিরা বাড়ি থেকেই করবেন।

সন্ধে ৬.৫০: দেশে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হল ৫১৯, আক্রান্ত ১৬,১১৬। সুস্থ হয়েছেন ২৩০২। ২৪ ঘণ্টায় দেশে মৃত্যু হয়েছে ৩১ জনের। নতুন করে আক্রান্ত ১৩২৪, পরিসংখ্যান কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের।

বিকেল ৪.১০: দেশে COVID হাসপাতালের সংখ্য়া ৭৫৫, স্বাস্থ্যকেন্দ্র রয়েছে ১৩৮৯ টি। এখানে গুরুতর অসুস্থদের চিকিৎসা করার মতো পরিকাঠামো আছে। সাংবাদিক সম্মেলনে জানালেন স্বাস্থ্যমন্ত্রকের যুগ্ম সচিব লব আগরওয়াল।

দুপুর ৩.৩০: লকডাউন শেষ হওয়ার আগে পরিযায়ী শ্রমিকরা কোনওভাবেই বাড়ি ফিরতে পারবেন না।  প্রয়োজনে আগামী সপ্তাহ থেকে চালু হওয়া কর্মক্ষেত্রে কাজে লাগাতে হবে এই শ্রমিকদেরই। রাজ্যগুলিকে অ্যাডভাইজারি পাঠাল স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক।

Migrant-Labours advisory

দুপুর ৩.১৫: রাজ্যে করোনা আক্রান্ত স্বাস্থ্য অধিকর্তার শারীরিক অবস্থার অবনতি। তাঁকে ভেন্টিলেশনে রাখা হয়েছে। খবর সল্টলেকের বেসরকারি হাসপাতাল সূত্রে।

দুুপুর ২.৩০: লকডাউনের মাঝে সন্তান প্রসবের জন্য ৭ কিলোমিটার হেঁটেও হাসপাতালে পৌঁছতে পারেননি কর্ণাটকের গৃহবধূ। মাঝে একটি ডেন্টাল ক্লিনিকেই সন্তান প্রসব। মা-সন্তান উভয়েই সুস্থ বলে খবর। 

 

দুপুর ২.১৬: নিজামুদ্দিন  ফেরত ১২০০ ব্যক্তি যেখানে একসঙ্গে ছিলেন, দিল্লির সেই নারেলা কোয়ারেন্টাইন সেন্টারের দখল নিল সেনাবাহিনী। রয়েছেন স্বাস্থ্যকর্মীরা।

দুপুর ২.০৫: চেন্নাইয়ে এক পুলিশ কর্তার শরীরে করোনা সংক্রমণ।  ৫২ বছরের সাব-ইন্সপেক্টর ভরতি হাসপাতালে।

দুপুর ১.৩৩: করোনা সংক্রমণে চিন্তা বাড়াচ্ছে বাহকরা। কাদের শরীরে লুকিয়ে করোনার জীবাণু, বুঝতে পুল টেস্টের বিজ্ঞপ্তি রাজ্য সরকারের। ICMR এর নির্দেশ মেনে ‘কেরল মডেল’ অনুসরণ করে এই সিদ্ধান্ত।

Pool-Test-Notice

দুপুর ১.১৮: করোনা থাবা বসাল পূর্ব বর্ধমান জেলায়।  খণ্ডঘোষে একজনের শরীরে মিলল COVID-19 জীবাণু। তিনি কলকাতা থেকে ফিরেছিলেন বলে খবর। পরিবারের সদস্য এবং প্রতিবেশীদের ৩১ জনকে নিয়ে যাওয়া হয়েছে কোয়ারেন্টাইনে। সিল করে দেওয়া হয়েছে গ্রামটি। 

[আরও পড়ুন: লকডাউনের জের, ব্যাপক কাটছাঁট রেলকর্মীদের বেতনে]

দুপুর ১:   সংক্রামক এলাকা (Containment Zone) নিয়ে জারি চিন্তা। এখনই কোনও ছাড় নেই দিল্লিতে। 

দুপুর ১২.২২: সামনে রমজান। করোনা আবহে  রমজানের জন্য বিশেষ গাইডলাইন প্রকাশ করল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।  উৎসবে শামিল হলেও মানতে হবে WHO’র গাইডলাইন। 

বেলা ১১.৪০: ই-কমার্সের মাধ্যমে অনাবশ্যকীয় পণ্য কেনাবেচা আপাতত স্থগিত থাকছে। বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়ে দিল স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক।

MHA-E-commerce

বেলা ১১:  দিল্লিতে ৪৫ দিনের এক শিশুর মৃত্য়ু হল করোনা আক্রান্ত হয়ে। ওই হাসপাতালে আরও কয়েকজন শিশুর শরীরে মিলেছে করোনার জীবাণু। ছোটদের শরীরে সংক্রমণের বাড়বাড়ন্ত উদ্বেগের, মনে করছে চিকিৎসক মহল। 

সকাল ১০.৫০: পর্যাপ্ত টেস্ট কিট মিলেছে, আগামী সপ্তাহের মধ্য়ে ৪২০০০ ব়্যাপিড টেস্ট হবে। জানালেন দিল্লির স্বাস্থ্যমন্ত্রী সত্যেন্দ্র জৈন। 

সকাল ৯.২৭: কমছে মৃত্য়ুর হার। দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় সাতাশ জনের মৃত্যু হয়েছে, দাবি স্বাস্থ্য মন্ত্রকের।

সকাল ৯.২০: দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১৫,৭১২। মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫০৭। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ২২৩০ জন। টুইটারে পরিসংখ্যান দিল স্বাস্থ্য মন্ত্রক।

সকাল ৯.০৩: ফের রাজ্য সরকারকে খোঁচা রাজ্যপালের। লকডাউনে ত্রাণ বিলি নিয়ে রাজনীতির অভিযোগে সরব হওয়ায় গতকাল রাজ্যের দায়িত্বপ্রাপ্ত মুখ্যসচিব তাঁকে চিঠি দিয়ে বিস্তারিত জানান। আজ তারই জবাবে টুইট ধনকড়ের।

সকাল ৮.৫৪:  মানুষের হাতে পর্যাপ্ত ক্যাশ নেই। কেন্দ্রকে তোপ দেগে টুইট প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী চিদম্বরমের।

সকাল ৮: লকডাউনের পরিবেশে সাহায্যের হাত বাড়ালেন ভুবনেশ্বরের এক মহিলা। সাত ভাড়াটের একমাসের ভাড়া পুরোপুরি মকুব করে দিয়েছেন।

[আরও পড়ুন: কুসংস্কারের ফাঁদে, গ্রাম থেকে করোনা তাড়াতে নিজের জিভ কাটলেন যুবক]

সকাল ৭.৪৮: মহমারি নিয়ে লড়াইয়ের মাঝেই ভিন্ন উপহার প্রকৃতির। ভরা গ্রীষ্মে হিমাচলের লাহুল-স্পিতিতে তুষারপাতের দৃশ্যে মন ভাল করে দিল অনেকেরই।

HP-snow

সকাল ৭.২১: ‘রেড জোন’ হওয়ায় হাওড়ার প্রসূতিকে ফিরিয়ে দেওয়ার অভিযোগ এনআরএস হাসপাতালের বিরুদ্ধে। বাড়িতে প্রসবের ফলে যথাযথ চিকিৎসা পরিষেবা না পেয়ে মৃত্যু সদ্যোজাতের। সেসময় কর্তব্যরত স্বাস্থ্যকর্মীদের তিন মাসের জন্য সাসপেন্ড করার সিদ্ধান্ত নিল স্বাস্থ্য দপ্তর।

[আরও পড়ুন: হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন খেয়ে পেট ব্যথা-বমিভাব, চিন্তায় ICMR কর্তারা]

সকাল ৭: থামছে না মৃত্যুমিছিল। গত ২৪ ঘণ্টা আমেরিকায় প্রাণহানি ১৮৯১ জন। পরিসংখ্যান জন হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement