২১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বুধবার ৮ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ফের গোরক্ষকদের তাণ্ডব, মধ্যপ্রদেশে ২৫ জনকে গরু পাচারকারী সন্দেহে বেঁধে মার

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: July 8, 2019 12:58 pm|    Updated: July 8, 2019 1:06 pm

Cow vigilantes thrash 25 in Madhya Pradesh, probe launched

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দ্বিতীয়বারের জন্য প্রধানমন্ত্রী পদে বসেছেন নরেন্দ্র মোদি৷ সবে পেশ হয়েছে সরকারের প্রথম বাজেট৷ ‘সবকা সাথ, সবকা বিশ্বাস’-এর বার্তা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। কিন্তু চিন্তা বাড়াতে শুরু করেছে গোরক্ষকরা৷ ২০১৪ সালের পর গেরুয়া শিবিরের বিরুদ্ধে যে অভিযোগ উঠেছিল, এবারও সেই একই অভিযোগ মাথাচাড়া দিতে শুরু করেছে৷

[আরও পড়ুন: সঙ্গমে রাজি নয় স্ত্রী, নিজেই নিজের যৌনাঙ্গ কাটল ব্যক্তি!]

সম্প্রতি একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে৷ যেখানে দেখা যাচ্ছে, বেশ কয়েকজন যুবককে গরু পাচারের অভিযোগে বেঁধে মারধর করা হচ্ছে। শুধু তাই নয়, ওই যুবকদের কান ধরে ওঠবোস করাচ্ছে গোরক্ষকরা। পাশপাশি তাঁদের জোর করে ‘গোমাতা কি জয়’ স্লোগানও বলানো হয়। গত ৭ জুলাই ঘটনাটি ঘটেছে, মধ্যপ্রদেশের খান্ডওয়া জেলায়। জানা গিয়েছে, ২১টি ট্রাকে করে গরু নিয়ে যাচ্ছিল প্রায় ২৫ জনের একটি দল। তখনই তাদের পাকড়াও করে গোরক্ষকরা। চলে বেদম মার। ট্রাকগুলি ও চালকদের স্থানীয় থানায় নিয়ে যায় গ্রামবাসীরা। এদিকে ঘটনার ভিডিও ভাইরাল হয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক। খান্ডওয়া জেলার পুলিশ সুপার শিবদয়াল সিং জানিয়েছেন, অবৈধভাবে গরুগুলিকে মহারাষ্ট্রে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল। আক্রান্ত ব্যবসায়ীদের কাছে বৈধ নথি নেই। ফলে তাদের বিরুদ্ধে গরু পাচারের মামলা দায়ের করা হয়েছে। একই সঙ্গে তিনি আরও জানান, মারধরের অভিযোগে স্থানীয় বেশকিছু লোকের বিরুদ্ধেও মামলা রুজু করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, প্রথম মোদি সরকারের সময় থেকেই পথেঘাটে টহল দেওয়া শুরু করেছিল গোরক্ষকরা। তাদের হামলায় মৃত্যুর বেশ কয়েকটি ঘটনাও ঘটেছে। তারপরই হামলাকারীদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। বিপুল জনমত নিয়ে ক্ষমতায় ফেরার পর সংখ্যালঘুদের আশ্বস্ত করে ‘সবকা সাথ, সবকা বিকাশ’ স্লোগানও দিয়েছেন মোদি। তবে তাঁর কথাতে কর্ণপাত করছে না গোরক্ষকরা। মধ্যপ্রদেশের ঘটনা ফের সেই কথায় প্রমাণ করল।                            

[আরও পড়ুন: ধর্মের আড়ালে সন্ত্রাসের ছোবল, তিউনিসিয়ায় নিষিদ্ধ বোরখা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে