০৯ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  বুধবার ২৫ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

এবার বুথে না গিয়েও দেওয়া যাবে ভোট! অভিনব প্রযুক্তির ভাবনা নির্বাচন কমিশনের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: February 17, 2020 7:51 pm|    Updated: February 17, 2020 7:51 pm

Election Commission will allow electors to vote from far away.

ফাইল ছবি

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কর্মসূত্রে বাড়ি থেকে অনেক দূরে থাকেন। ছুটি না পওয়ায় ভোট দিতে যাওয়া সম্ভব হয় না। যার ফলে ইচ্ছে থাকলেও নিজের গণতান্ত্রিক অধিকার প্রয়োগ করতে পারেন না বহু মানুষ। এবার সেই সব নাগরিকদের জন্য অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ভাবনা নির্বাচন কমিশনের (Election Commission)। মাদ্রাজ আইআইটির সঙ্গে গাঁটছড়া বেঁধে নির্বাচন কমিশন এমন একটি প্রযুক্তি আনার কথা ভাবছে, যাতে ভোটকেন্দ্রে না গিয়েও নিজের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারবেন নাগরিকরা।

আইআইটি মাদ্রাজ একটি অভিনব ভোটিং মেশিন তৈরি করছে। যার মাধ্যমে ভোটকেন্দ্র থেকে অনেক দূরেও ভোট দিতে পারবেন ভোটাররা। এই প্রকল্পের তদারকির দায়িত্ব পেয়েছেন সিনিয়র ডেপুটি ইলেকশন কমিশনার সন্দীপ সাক্সেনা (Sandeep Saxena)। তিনি এ প্রসঙ্গে জানিয়েছেন, “এটার নাম টু ওয়ে ব্লক চেন ভোটিং মেশিন। এই ইভিএম তৈরির জন্য ব্লক চেন প্রযুক্তি ব্যবহার করা হচ্ছে। এর সঙ্গে যুক্ত থাকবে বায়োমেট্রিক ডিভাইস। এবং সেই সঙ্গে থাকবে ক্যামেরা।” ভোটার কার্ডের মাধ্যমে এই যন্ত্রটি প্রথমে ভোটারদের পরিচয় নিশ্চিত করার চেষ্টা করবে। একবার ভোটারদের পরিচয় নিশ্চিত হয়ে গেলে তৈরি হবে একটি ই-ব্যালট পেপার। ওই ব্যক্তি কোন কেন্দ্রের ভোটার তা নিজে থেকেই শনাক্ত করবে মেশিনটি। যে ই-ব্যালট পেপার তৈরি হবে, তাতে ওই কেন্দ্রের যাবতীয় প্রার্থীর নাম থাকবে। সেই ব্যালট পেপারটিতেই ভোট দিতে পারবেন ভোটার। সঙ্গে সঙ্গে ভোটটি নথিভুক্ত হবে রিটার্নিং অফিসারের কাছে। রাজনৈতিক দলগুলির এজেন্টরাও জানতে পারবেন কোন ব্যক্তি ভোট দিয়েছেন।

EVM

[আরও পড়ুন: অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা নিয়ে বৈঠক, ফেব্রুয়ারিতেই মুখোমুখি অমিত শাহ ও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়!]

দেশের যে কোনও প্রান্তেই এই ভোটিং মেশিনের ব্যবস্থা করতে পারবে নির্বাচন কমিশন। তবে, বাড়িতে বসে এর মাধ্যমে ভোট দেওয়া যাবে না। কমিশন প্রত্যেক শহরে একটি নির্দিষ্ট জায়গায় এই মেশিনটির ব্যবস্থা করবে। সেখানে গিয়েই ভোট দিতে হবে। আসলে, যাঁরা কর্মসূত্রে বাইরে থাকেন, তাঁদের জন্যই এই মেশিনটির ব্যবস্থা করা হচ্ছে। উদাহরণ হিসেবে বলা যেতে পারে, বাংলার কোনও ভোটার যদি কর্মসূত্রে দিল্লিতে বা বেঙ্গালুরুতে থাকেন, তিনি সেখানে বসেই লোকসভা বা বিধানসভা ভোট দিতে পারবেন। এক্ষেত্রে অবশ্য, আগে থেকেই তাঁকে নিজের কেন্দ্রের রিটার্নিং অফিসারের সঙ্গে যোগাযোগ করতে হবে। এবং তাঁর কাছে এই বিশেষ সুবিধাগ্রহণের আবেদন করতে হবে। কমিশন জানিয়েছে, এই নতুন ভোটিং পদ্ধতি যুগান্তকারী হতে পারে। এর ফলে ভোটের হার অনেকটাই বাড়ানো যাবে। সব থেকে বড় ব্যপার হল, এই গোটা প্রক্রিয়াতেও নাগরিকদের গোপনীয়তার অধিকার খর্ব হবে না। কারণ, এই ভোটিং প্রক্রিয়াটিও পুরোপুরি নিরাপদ।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে