BREAKING NEWS

১১ মাঘ  ১৪২৭  সোমবার ২৫ জানুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‌প্রয়াত ‌ভারতের তথ্যপ্রযুক্তি বিপ্লবের পথিকৃৎ তথা TCS-এর প্রতিষ্ঠাতা ফকিরচাঁদ কোহলি

Published by: Abhisek Rakshit |    Posted: November 26, 2020 10:46 pm|    Updated: November 26, 2020 11:01 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রয়াত হলেন ‘‌ভারতের তথ্যপ্রযুক্তি শিল্পের জনক’ (Father of India’s IT Industry)‌ হিসেবে পরিচিত ‘পদ্মভূষণ’‌ প্রাপ্ত ফকিরচাঁদ কোহলি বা এফসি কোহলি (Faqir Chand Kohli)। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৬ বছর। দেশের অন্যতম বৃহৎ তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থা TCS–এর প্রতিষ্ঠাতা এবং প্রথম সিইও ছিলেন এফসি কোহলি। বৃহস্পতিবারই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। তাঁর মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমেছে তথ্যপ্রযুক্তি মহলেও।

দেশের প্রযুক্তি বিপ্লবের পথিকৃৎ ছিলেন এই ফকির চাঁদ কোহলি। ভারতে ১০০ বিলিয়ন ডলারের আইটি শিল্প গড়ে তুলতে তিনিই সহায়তা করেছিলেন। ১৯২৪ সালের ১৯ মার্চ পেশোয়ারে (Peshowar) জন্মগ্রহণ করেছিলেন ফকির চাঁদ কোহলি। এরপর পাঞ্জাব বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে লাহোরের (Lahore) সরকারি কলেজ থেকে বিএ এবং বিএসসি পাশ করেন। পরে তিনি কানাডার কুইন্স বিশ্ববিদ্যালয়ে যান এবং ইলেকট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে বিএসসি পাশ করেন।

[আরও পড়ুন:‌ জাতীয় পতাকায় অশোক চক্রের জায়গায় ইসলামিক হরফ, গুজরাটে গ্রেপ্তার ৪]

এরপর ১৯৫০ সালে ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজি থেকে মেকানিকাল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে এমএস করেন। এরপর ১৯৫১ সালে ভারতে (India) ফিরে আসেন। যোগ দেন টাটা ইলেকট্রিক কম্পানিতে যোগদান করেন। ১৯৭০ সালে সংস্থার ডিরেক্টর পদে বসেন। তাঁর আমলেই বিদ্যুৎ সিস্টেমের নকশা এবং নিয়ন্ত্রণের জন্য ডিজিটাল কম্পিউটার ব্যবহার শুরু হয়।

এরপর ১৯৬৯ সালের সেপ্টেম্বরে কোহলি TCS–এর জেনারেল ম্যানেজার হন। ১৯৯৪ সালে তিনি কোম্পানির ডেপুটি চেয়ারম্যান হন এবং তারপর বাকিটা ইতিহাস। ১৯৯১ সালে তিনি টাটা–আইবিএম–র অংশ হিসাবে আইবিএমকে ভারতে আনতে সক্রিয়ভাবে কাজ করেছিলেন। ১৯৯৯ সালে ৭৫ বছরের দীর্ঘ কর্মজীবন থেকে তিনি অবসর গ্রহণ করেন। এরপর ২০০২ সালে তথ্যপ্রযুক্তি শিল্পে অনবদ্য অবদানের জন্য ‘‌পদ্মভূষণ’ (Padma Bhushan)‌ পেয়েছিলেন তিনি। তাঁর প্রয়াণে শোকজ্ঞাপন করেছে টিসিএসও।

[আরও পড়ুন:‌ ‌আগামী ছ’‌মাস ডাকা যাবে না ধর্মঘট, উত্তরপ্রদেশে বিতর্কিত ESMA জারি করল যোগী প্রশাসন]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement