২ কার্তিক  ১৪২৬  রবিবার ২০ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: গান্ধী পরিবারের তিন সদস্য রাহুল গান্ধী, প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরা এবং সোনিয়া গান্ধীর নিরাপত্তা নিয়ে বড়সড় সিদ্ধান্ত নিল কেন্দ্র। গান্ধী পরিবারের এসপিজি নিরাপত্তা আরও কড়া করা হল। এবার থেকে বিদেশযাত্রাতেও বাধ্যতামূলক এসপিজি নিরাপত্তা। অর্থাৎ গান্ধী পরিবারের যে কোনও সদস্য এবার থেকে বিদেশে যেতে চাইলেও তাদের কেন্দ্রীয় সরকারের দেওয়া স্পেশাল প্রোটেকশন গ্রুপের জওয়ানদের সঙ্গে নিয়ে যেতে হবে।

[আরও পড়ুন: আরও জোরাল নাগাল্যান্ডের পৃথক পতাকার দাবি, এবার আসরে বিরোধীরাও]

সোমবার কেন্দ্রের তরফে গান্ধী পরিবারের নিরাপত্তা নিয়ে একটি নয়া নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে। যাতে বলা হয়েছে, দেশের অভ্যন্তরে যেমন সব জায়গায় তাঁরা এসপিজি নিরাপত্তা নিয়ে যান, তেমনি বিদেশ সফরেও সব জায়গায় তাদের এসপিজির জওয়ানদের সঙ্গে নিয়ে যেতে হবে। এবং সেই সঙ্গে তাঁরা কোথায় যাচ্ছেন, কোন দেশের কোন প্রান্তে কখন থাকছেন, সব তথ্য কেন্দ্রকে জমা দিতে হবে বলেও জানানো হয়েছে। শুধু তাই নয়, সেই সঙ্গে কয়েকটি পুরোনো বিদেশ সফরের তথ্যও চাওয়া হয়েছে কেন্দ্রের তরফে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের দাবি, এই সবটাই ভিভিআইপিদের নিরাপত্তার জন্য। যদিও, রাজনৈতিক মহলের ধারনা, মূলত গান্ধী পরিবারের সদস্যদের শায়েস্তা করতেই এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিজেপি সরকার।

[আরও পড়ুন: আর কোনও গাছ কাটা যাবে না, আরে বনাঞ্চল নিয়ে স্থগিতাদেশ সুপ্রিম কোর্টের]

রাহুল গান্ধী আকছার বিদেশ ভ্রমণে যান। মাঝে মাঝেই তিনি কোথায় যাচ্ছেন তাঁর কোনও তথ্য মেলে না। যার জেরে তৈরি হয় ধন্দ। সদ্য কম্বোডিযা গিয়েছেন প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি। সে তথ্যও তিনি কাউকে দেননি। যার জেরে বাজারে খবর রটে, তিনি নাকি ব্যাংকক গিয়েছেন। কেন্দ্রের নয়া সিদ্ধান্তে এই ধরনের ধন্দও দূর হবে। যদিও কংগ্রেসের অভিযোগ, গান্ধী পরিবারের সদস্যদের কার্যকলাপের উপর নজরদারি করতেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে কংগ্রেস। দলের নেতাদের ব্যক্তি স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ করা হচ্ছে বলেও দাবি কংগ্রেসের। যদিও, রাহুলের তরফে বিবৃতি দিয়ে জানানো হয়েছে সরকার যদি নিরাপত্তার কথা ভেবে সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকে, তাহলে তিনি সেই সিদ্ধান্ত মানতে রাজি আছেন।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং