২৬  শ্রাবণ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ১৬ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

নীল ছবির চেয়েও গুজরাটে বেশি চাহিদা হার্দিকের ‘সেক্স’ ভিডিওর

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: December 5, 2017 10:27 am|    Updated: December 5, 2017 10:27 am

Hardik Patel's sex video is getting popular ahead of Gujarat Election

নন্দিতা রায়, আমেদাবাদ: মেয়েটি কে? জান‌তে উৎসুক সবাই৷

রাজ্যের এ প্রান্ত পশ্চিমের কচ্ছের রান থেকে শুরু করে দক্ষিণের প্রায় শেষ প্রান্ত সুরাত, সর্বত্রই প্রশ্নটা ঘুরছে। কে ওই মেয়েটি তা জানার জন্য ভোটারদের মধ্যে কৌতূহল তুঙ্গে৷ স্মার্টফোনের দৌলতে এখন হাতে হাতে প্রায় বিনা খরচায় নীল ছবি যখন খুশি দেখার অভ্যাস হয়েছে অনেকের। কিন্তু গুজরাট নির্বাচনের আগে নীল ছবির চেয়ে বেশি চাহিদা ইউটিউবে আপলোড হওয়া হার্দিকের সেক্স ভিডিওর। সবাই জানতে চাইছে হার্দিকের সঙ্গিনীটি কে?

এদিকে, গুজরাট বিধানসভা নির্বাচনে স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কপালে চিন্তার ভাঁজ ফেলে দিয়েছেন এমন একজন যে নিজে নির্বাচনে লড়াই করার জন্য বয়সের গণ্ডি পার হননি এখনও৷ চব্বিশ বছরের পতিদার তথা প্যাটেল নেতা হার্দিক প্যাটেল। এবারের গুজরাট নির্বাচনে যাঁকে ‘গেম চেঞ্জার’ হিসেবে মনে করছেন অনেকেই। সেই হার্দিকের সঙ্গেই একটি ভিডিও-তে দেখা গিয়েছে মেয়েটিকে। হার্দিকের তুমুল বিজেপি বিরোধিতায় রাজ্যে বিজেপি যে বিপাকে পড়ছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না৷ মাসখানেক আগেই হার্দিকের একটি ব্যক্তিগত ‘ফুটেজ’ ভাইরাল হয়েছে। ভিডিও ক্লিপিংটিতে হার্দিকের মুখ দেখা গেলেও মেয়েটির মুখ একবারের জন্যও দেখা যায়নি৷ আর তাতেই কৌতূহল বেড়েছে মানুষের মধ্যে। মেয়েটি কি হার্দিকের প্রেমিকা, শুধুই বান্ধবী, নাকি নিছকই কোনও দেহপসারিণী!

[কাশ্মীরে জঙ্গিদমন অভিযানে বড়সড় সাফল্য, নিকেশ অমরনাথ হামলার ৩ চক্রী]

হার্দিক মদ্যপান করেন নাকি যৌনপল্লিতে যাতায়াত আছে তাঁর সে নিয়ে অবশ্য এখানকার মানুষজনের বিশেষ কোনো হেলদোল নেই৷ সবার শুধু একটাই প্রশ্ন, ফুটেজে দেখানো মেয়েটি কে! বিষয়টিকে পাত্তা দিতে রাজি নন হার্দিকও৷ চব্বিশ বছরের অবিবাহিত ছেলের ব্যক্তিগত জীবন থাকতেই পারে৷ তাতে কার কী বলার আছে এই বলে বিষয়টিকে লঘু করে দিতে চেয়েছেন তিনি। ফুটেজটি ভুয়া বলে দাবি করার পাশাপাশি তাঁর ভাবমূর্তিকে কালিমালিপ্ত করার জন্য বিজেপির তরফ থেকে এই ধরনের নোংরা রাজনীতি করা হয়েছে বলেও পালটা অভিযোগ করেছেন হার্দিক। হার্দিক অবশ্য এই ভিডিও প্রকাশের অনেক আগে থেকেই বলে আসছিলেন তাঁর ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে টানাটানি করতে পারে প্রতিপক্ষরা৷ তা হওয়াতে তিনিই যে খানিকটা রাজনৈতিক মাইলেজ পেয়ে গেলেন, তা বললে ভুল হবে না৷ সিডি কাণ্ড নিয়ে হার্দিকের পাশে দাঁড়িয়েছেন রাজ্যের আরেক তরুণ নেতা জিগনেশ মেওয়ানি৷ তাঁর কথায়, ‘‘যৌনতার অধিকার একটি মৌলিক অধিকার৷ কারও এই অধিকার নেই যে আপনার ব্যক্তিগত জীবনে নজর রাখবে।” তবে রাজ্যের সাধারণ মানুষের সঙ্গে কথা বলে এটা বেশ স্পষ্ট, যে হার্দিকের এই ভিডিও ফুটেজটি বেশ জনপ্রিয় হয়েছে গুজরাটে

[হাসপাতালের বেডে রোগীদের পাশেই শুয়ে সারমেয়, ভ্রূক্ষেপ নেই কর্মীদের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে