BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২৭ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

অটুট দেশের সংস্কৃতি, অযোধ্যায় হতে চলা মসজিদের জন্য প্রথম অনুদান দিলেন এক হিন্দু

Published by: Sulaya Singha |    Posted: October 4, 2020 5:42 pm|    Updated: October 4, 2020 5:42 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অযোধ্যায় রাম মন্দির গড়ার জন্য ইট থেকে অর্থ, কোনওকিছু দান করতেই পিছপা হননি মুসলিম সম্প্রদায়ের মানুষেরা। সুপ্রিম কোর্টের রাযকে স্বাগত জানিয়ে রাম জন্মভূমিতে প্রভু শ্রীরামকে ফেরাতে হিন্দুদের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়েছিলেন অনেক মুসলিম বন্ধুও। অযোধ্যায় নয়া মসজিদ গড়ার সময়ও ফের সেই একই ছবি ফুটে উঠল। শীর্ষ আদালতের নির্দেশে পাঁচ একর জমির উপর তৈরি হতে চলা মসজিদের জন্য সর্বপ্রথম অর্থ দান করলেন এক হিন্দু।

মসজিদ ট্রাস্টের সচিব আতহার হুসেন জানান, রোহিত শ্রীবাস্তব নামের লখনউ বিশ্ববিদ্যালয়ের এক কর্মী শনিবারই মসজিদের নির্মাণ কাজে ২১ হাজার টাকা দান করেছেন। তাঁর কথায়, “ভারতে ইন্দো-ইসলাম সংস্কৃতির ছবিটাই ফুটে উঠল। তাই তো মসজিদ নির্মাণের প্রথম অনুদান এল একজন হিন্দুর তরফ থেকে।” সুন্নি ওয়াকফ বোর্ডের তৈরি ইন্দো-ইসলামিক কালচারাল ফাউন্ডেশন সরকারের দেওয়া পাঁচ একর জমিতে যে মসজিদ, জাদুঘর, গ্রন্থাগার ও কমিউনিটি কিচেন নির্মাণ করবে, এই অর্থ সেখানেই কাজে লাগবে বলে জানান আতহার হুসেন।

[আরও পড়ুন: আসনরফা নিয়ে অসন্তোষ! বিহারে নীতীশ কুমারের সঙ্গ ছাড়ল চিরাগ পাসওয়ানের এলজেপি]

এদিকে এ প্রসঙ্গে রোহিত শ্রীবাস্তব বলেন, “আমি এমন একটা প্রজন্মের মানুষ, যেখানে ধর্মের বেড়াজাল নেই। আমার মুসলিম বন্ধুদের সঙ্গেই হোলি আর দিওয়ালি সেলিব্রেট করতে অভ্যস্ত আমি। ওরাও আমাকে ছাড়া ইদের উৎসবে মেতে ওঠে না। ভারতের কোটি কোটি হিন্দু-মুসলিমের কাহিনি আমারই মতো। সেখান থেকেই এই প্রয়াস। অন্যান্য হিন্দু বন্ধুদেরও বলব, আপনারাও এগিয়ে আসুন। মসজিদের জন্য সাধ্যমতো অনুদান দিন।”

রাম মন্দিরের (Ram Temple) ভূমিপুজোর দিন ঘোষণার পরেই জানা গিয়েছিল অযোধ্যায় (Ayodhya) শীঘ্রই নতুন মসজিদও গড়ে উঠবে। ইতিমধ্যেই প্রকাশ করা হয়েছে তার লোগো। কিছুটা এগিয়েছে নির্মানের প্রাথমিক কাজও। মসজিদ তৈরির দায়িত্বে থাকা আতাহার হুসেন জানিয়েছিলেন, ১৫ হাজার বর্গফুট জায়গা নিয়ে মক্কার বিখ্যাত কাবা মসজিদের আদলেই তৈরি হতে পারে এই মসজিদ। কাবা মসজিদে যেমন কোনও গম্বুজ নেই, তেমনই দেখতে হতে পারে এটি। যদিও বিষয়টি এখনও আলোচনার স্তরেই আছে বলে জানিয়েছে ট্রাস্ট।

[আরও পড়ুন: আগামী জুলাইয়ের মধ্যেই ২৫ কোটি দেশবাসী পেতে পারেন করোনা ভ্যাকসিন: স্বাস্থ্যমন্ত্রক]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement