BREAKING NEWS

২১ শ্রাবণ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ৬ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

বড়সড় দুর্নীতির অভিযোগ, গান্ধী পরিবারের ৩টি ট্রাস্টের বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি গড়ল কেন্দ্র

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: July 8, 2020 12:09 pm|    Updated: July 8, 2020 12:09 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লাদাখ, করোনা এবং জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধির ত্রিমুখী আক্রমণের মধ্যেই কংগ্রেস তথা গান্ধী পরিবারের বিরুদ্ধে বড়সড় পদক্ষেপ কেন্দ্রের। সোনিয়া গান্ধী (Sonia Gandhi) পরিচালিত তিনটি ট্রাস্টের বিরুদ্ধে একাধিক আর্থিক দুর্নীতি এবং বেনিয়মের অভিযোগে তদন্ত শুরু করল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। রাজীব গান্ধী ফাউন্ডেশন (Rajiv Gandhi Foundation), রাজীব গান্ধী চ্যারিটেবল ট্রাস্ট এবং ইন্দিরা গান্ধী মেমোরিয়াল ট্রাস্টে বড়সড় দুর্নীতির অভিযোগের তদন্তের জন্য উচ্চস্তরের কমিটি তৈরি করা হয়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফে।

প্রয়াত প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীর নামে তৈরি সংস্থাটির সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী। এছাড়াও পরিচালন সমিতিতে রয়েছেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী, প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং ও পি চিদম্বরমের মতো কংগ্রেসের শীর্ষ নেতারা। অন্যদিকে রাজীব গান্ধী চ্যারিটেবল ট্রাস্ট এবং ইন্দিরা গান্ধী মেমোরিয়াল ট্রাস্টের (Indira Gandhi Memorial Trust) দায়িত্বেও আছেন সোনিয়া গান্ধীই। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের অভিযোগ, এই তিনটি ট্রাস্টেই কংগ্রেস আমলে বড়সড় দুর্নীতি হয়েছে। আর্থিক প্রতারণা আইন, আয়কর আইন, বিদেশি বিনিয়োগ আইনের মতো বহু আইন ভঙ্গ করেছে এই ট্রাস্টগুলি। এই তিনটি ট্রাস্টের বিরুদ্ধে তদন্ত করার জন্য একটি আন্তঃমন্ত্রক কমিটি গঠন করেছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক। যে কমিটির শীর্ষে থাকছেন ইডির ইডির স্পেশ্যাল ডিরেক্টর। তদন্তে শামিল করা হচ্ছে সিবিআই আধিকারিকদেরও।

[আরও পড়ুন: গালওয়ান উপত্যকা থেকে আদৌ পিছিয়েছে চিনা সেনা? উত্তর মিলল উপগ্রহ চিত্রে]

উল্লেখ্য, গত মাসে বিজেপি সভাপতি জেপি নাড্ডা অভিযোগ করেন,‘২০০৫-২০০৬ সালে চিনা দূতাবাসের কাছ থেকে আর্থিক অনুদান পেয়েছে রাজীব গান্ধী ফাউন্ডেশন।’ বিজেপির অভিযোগ, ওই টাকা পাওয়ার পরই ভারত ও চিনের মধ্যে বাণিজ্য চুক্তির প্রয়োজনীয়তা নিয়ে অতিসক্রিয় হয়ে ওঠে রাজীব গান্ধী ফাউন্ডেশন। তারপরই কংগ্রেস সরকারের আমলে চিনের (China) সঙ্গে Regional Comprehensive Economic Partnership বা RCEP চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। অভিযোগ, ওই চুক্তির ফলে লাভের চাইতে ক্ষতি বেশি হয়েছে ভারতের। শুধু তাই নয়, বিজেপি আরও অভিযোগ করেছে, ইউপিএ আমলে প্রধানমন্ত্রী বিপর্যয় মোকাবিলা তহবিল থেকেও রাজীব গান্ধী ফাউন্ডেশনে টাকা পাঠানো হত। গেরুয়া শিবিরের এই অভিযোগ পুরোপুরি নাকচ না করলেও, কংগ্রেস দাবি করেছে, তাঁদের কাছে এই তহবিলের পায়-পয়সার হিসেব আছে।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement