Advertisement
Advertisement
Bullet Train

এরোপ্লেনের গতিতে ছুটবে ভারতের প্রথম বুলেট ট্রেন, কবে শুরু ট্রায়াল?

জাপানের সহযোগিতায় পুরোদমে চলছে কাজ।

India to Conduct First Trial Run of Bullet Train | Sangbad Pratidin

ছবি: প্রতীকী

Published by: Monishankar Choudhury
  • Posted:April 14, 2022 2:25 pm
  • Updated:April 14, 2022 2:25 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পরীক্ষামূলক ভাবে চালান হবে ভারতের প্রথম বুলেট ট্রেন (Bullet Train)। এরোপ্লেনের মতোই গতিতে দৌড় শুরু করবে এই বুলেট ট্রেন। ৩৫০ কিমি প্রতি ঘণ্টা গতিবেগে চলবে বুলেট ট্রেন, এমনটাই জানা যাচ্ছে আধিকারিকদের তরফ থেকে। তবে এই গতিবেগ শুধুমাত্র পরীক্ষার সময়ে। যাত্রীবাহী ট্রেন চলবে প্রতি ঘন্টায় ৩২০ কিমি গতিতে। এই ট্রেন প্রথমবারের (Bullet Train Trial Run) জন্য চালান হবে গুজরাটের সুরাট এবং বিলিমোরার মধ্যে।

জানা গিয়েছে, ২০২৬ সালে এই ট্রেন সম্পূর্ণ ভাবে তৈরি হয়ে যাবে। ইতিমধ্যেই জাপানের সহযোগিতায় অনেকটাই কাজ এগিয়ে গিয়েছে বলে জানিয়েছেন ন্যাশনাল হাই স্পিড রেল কর্পোরেশন লিমিটেডের (NHSRCL) একজন আধিকারিক। ভারতে নিযুক্ত জাপানের রাষ্ট্রদূত সাতোশি সুজুকি-সহ ভারতের অন্যান্য আধিকারিকরা গুজরাটে গিয়ে কাজ পরিদর্শন করেছেন। কাজের অগ্রগতি দেখে এক আধিকারিক বলেছেন, “যাত্রী সুবিধা এক অন্য উচ্চতায় পৌঁছে যাবে এই ট্রেনের ফলে। আকাশ পথে যাতায়াতের ক্ষেত্রে টক্কর দিতে পারবে বুলেট ট্রেন।”

Advertisement

[আরও পড়ুন: একবারই দান করা যাবে শুক্রাণু ও ডিম্বাণু, কৃত্রিম প্রজননের নিয়মে বড় বদল আনল কেন্দ্র]

এরোপ্লেনে যাতায়াতের ক্ষেত্রে যে সমস্যা গুলি রয়েছে, বুলেট ট্রেনে সেগুলি থাকবে না বলেই জানিয়েছেন তিনি। বিমান যাত্রার তুলনায় অনেক কম সময় লাগবে চেক ইন করতে। এছাড়াও যাত্রীরা বিমানের তুলনায় অনেক বেশি জিনিসপত্র নিতে পারবেন অতিরিক্ত ব্যাগেজ চার্জ ছাড়া। এরোপ্লেন যাত্রার সময়ে মোবাইল বা ল্যাপটপের মাধ্যমে কোনও যোগাযোগ রাখা যায় না, বুলেট ট্রেনে সেই সমস্যাও থাকবে না। প্লেনের ইকোনমি ক্লাসের মতোই ভাড়া থাকবে এই ট্রেনের।

Advertisement

“জাপানের বুলেট ট্রেনের প্রযুক্তি বিশ্বসেরা”, বলেছেন ন্যাশনাল হাই স্পিড রেল কর্পোরেশন লিমিটেডের ম্যানেজিং ডিরেক্টর সতীশ অগ্নিহোত্রী। প্রসঙ্গত, ভারতে বুলেট ট্রেন তৈরির জন্য ৮০ শতাংশ ঋণ এসেছে জাপানের তরফ থেকে। ইতিমধ্যে প্রায় দেড় কিলোমিটার লম্বা একটি ব্রিজ তৈরি হচ্ছে যেখানে বুলেট ট্রেনের জন্য বিশেষ রেললাইন বসানো যাবে। বুলেট ট্রেনগুলি চলবে ‘স্ল্যাব ট্র্যাক সিস্টেম’ নামের বিশেষ রেললাইনে। আহমেদাবাদ থেকে মুম্বই যেতে তিন ঘণ্টা সময় লাগবে বলে জানা গিয়েছে।

[আরও পড়ুন: ‘আপনাদের দেশে মানবাধিকার নিয়েও আমরা চিন্তিত’, আমেরিকাকে যোগ্য জবাব বিদেশমন্ত্রীর]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ