BREAKING NEWS

২৬ বৈশাখ  ১৪২৮  সোমবার ১০ মে ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

লকডাউনের আশঙ্কায় শেয়ার বাজারে রক্তক্ষরণ, একধাক্কায় অনেকটা নামল সেনসেক্স

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: April 12, 2021 2:06 pm|    Updated: April 12, 2021 2:18 pm

Share

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সপ্তাহের শুরুতেই ফের ধস নামল শেয়ার বাজারে। একধাক্কায় সেনসেক্সের সূচক নামল প্রায় ১৮০০ পয়েন্ট। যার জেরে একটা সময় সেনসেক্সের সূচক নেমে এসেছিল ৪৭ হাজার ৭০০ পয়েন্টে। একইভাবে রেকর্ড পতন হয়েছে ন্যাশনাল স্টক এক্সচেঞ্জের নিফটিতেও। যা বাজারের কারবারিদের জন্য রীতিমতো ধাক্কা হতে পারে।

বলে রাখা ভাল, লকডাউন পর্বে ইতিহাসের সবচেয়ে রক্তাক্ত দিনের সাক্ষী হয় দালাল স্ট্রিট। সেনসেক্স (Sensex) নেমে দাঁড়ায় ২৫ হাজরের কোঠায়। লকডাউন মিটতেই অবশ্য সেনসেক্স ঊর্ধ্বমুখী হওয়ার ইঙ্গিত মিলেছিল। মাত্র কয়েক মাসের মধ্যে হাসি ফুটেছিল দালাল স্ট্রিটের কারবারিদের মুখে। এবছরের শুরুর দিকে রীতিমতো স্বর্ণযুগ কেটেছে শেয়ার বাজারে। জানুয়ারির মাঝামাঝি প্রথমবার ৫০ হাজারের গণ্ডি পেরিয়েছিল সেনসেক্সের সূচক। যা হয়েছিল মূলত করোনার টিকাকরণ শুরু হওয়া এবং মার্কিন মুলুকে ক্ষমতা হস্তান্তরের জেরে। গত ৫ ফেব্রুয়ারি ইতিহাসে প্রথমবার তা পেরিয়ে যায় ৫১ হাজারের গণ্ডি। সেনসেক্সের সূচক গিয়ে দাঁড়ায় ৫১ হাজার ৩১ পয়েন্টে।

[আরও পড়ুন: বাতিল হোক সিবিএসই বোর্ডের পরীক্ষা, কেন্দ্রকে চিঠি প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর]

কিন্তু গত কয়েক সপ্তাহে নতুন করে শুরু হয়েছে করোনার প্রকোপ। এই মুহূর্তে গতবছরের থেকেও আরও দ্রুতহারে বাড়ছে মারণ ভাইরাসটির সংক্রমণ। যার প্রভাব সরাসরি পড়ছে বাজারে। এমনিতে মহারাষ্ট্রে আগামী ১৪ এপ্রিলের পর লকডাউন হওয়া একপ্রকার নিশ্চিত। সেই লকডাউনের আশঙ্কাই এবার শেয়ার বাজারে বড়সড় ধাক্কা দিল। সোমবার বাজার খুলতেই হু হু করে পড়তে থাকে সূচক। একটা সময় ১ হাজার ৮১১ পয়েন্ট অর্থাৎ প্রায় ৩.৬৫ শতাংশ নেমে যায়। সেনসেক্স দাঁড়ায় ৪৭ হাজার ৭৮০ পয়েন্টে। একইভাবে নিফটিও রেকর্ড ৩.৪১ শতাংশের পতনের পর ১৪ হাজার ৩০০ পয়েন্টেরও নিচে নেমে যায়। সাম্প্রতিক অতীতে শেয়ার বাজারে এত বড় পতন দেখা যায়নি। ওয়াকিবহাল মহলের ধারণা, করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করা না গেলে বাজার নিয়ন্ত্রণ করাটা সহজ হবে না।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement