১১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  শুক্রবার ২৭ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

ছ’মাসে ২০০ জনকে নগ্ন ছবি পাঠানোর অভিযোগ! গ্রেপ্তার কর্ণাটকের বৃদ্ধ

Published by: Abhisek Rakshit |    Posted: November 8, 2020 5:54 pm|    Updated: November 8, 2020 5:54 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:‌ একের পর এক ইচ্ছেমতো ফোন নম্বর ডায়াল করে ফোন। ফোন বাজলেই তা রেখে দেওয়া। পরবর্তীতে সেই নম্বরে একের পর এক নগ্ন ছবি পাঠানো। এভাবে প্রায় ২০০ জনকে নগ্ন ছবি পাঠানোর অভিযোগ উঠেছে কর্ণাটকের এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। ওই ২০০ জনের মধ্যে আবার ১২০ জনই মহিলা। শুনতে অবাক লাগলেও এমনই কুকীর্তি করে আপাতত হাজতে অভিযুক্ত।

জানা গিয়েছে, ওই ব্যক্তির নাম ও রামকৃষ্ণ। ৫৪ বছর বয়সি রামকৃষ্ণ কর্ণাটকের (Karnataka) চিত্রদুর্গের (Chitradurga) চাল্লাকেরের (Challakere) বাসিন্দা। দীর্ঘ ছ’‌মাস ধরেই এই কাজ করছিল সে। স্থানীয় অনেককেই এভাবে ফোনে নগ্ন ছবি পাঠিয়ে হেনস্তা করত। শেষপর্যন্ত স্থানীয়দের অভিযোগের ভিত্তিতেই তদন্তে নামে পুলিশ। গত শুক্রবার রাতে গ্রেপ্তার করে অভিযুক্তকে। জেরায় নিজের দোষ স্বীকারও করে নিয়েছে রামকৃষ্ণ।

[আরও পড়ুন: প্রথম দফায় করোনার টিকা পাবেন ৩০ কোটি ভারতীয়, কারা ঠাঁই পাচ্ছেন কেন্দ্রের তালিকায়?]

পুলিশ জানিয়েছে, একটি নম্বর থেকে একাধিক নগ্ন ছবি পাওয়ার বেশ কয়েকটি অভিযোগ জমা পড়ে স্থানীয় থানায়। এরপরই নম্বরটি কার জানতে তদন্ত শুরু হয়। কিন্তু ফোনটি সুইচড অফ থাকায় বেশ কিছুদিন তল্লাশি করেও রামকৃষ্ণের হদিশ পায়নি পুলিশ। শেষে শুক্রবার ফোনটি অন করতেই পুলিশ তার লোকেশন হাতে পেয়ে যায়। এরপরই গ্রেপ্তার করা হয় অভিযুক্তকে। এরপর জেরায় ওই ব্যক্তি পুরো ঘটনাটি জানান। বলেন, ইচ্ছেমতো নম্বর ডায়াল করতেন। ফোন রিং হলেই রেখে দিতেন। তারপর সেই নম্বরে একের পর এক নগ্ন ছবি পাঠাতেন। চাল্লাকেরেরই অন্তত ৫০ জন মহিলাকে এভাবে নগ্ন ছবি পাঠিয়েছিলেন। লজ্জার খাতিরে প্রথমে অনেকেই অভিযোগ জানাননি। তবে ওই ব্যক্তির গ্রেপ্তারির খবর পেয়ে অনেকেই আবার সাহস করে এগিয়ে এসে অভিযোগ দায়ের করেছেন। তা দেখেই কার্যত চক্ষু চড়কগাছ পুলিশ আধিকারিকদের।

[আরও পড়ুন: ভূস্বর্গে অনুপ্রবেশের সময় গুলির লড়াইয়ে খতম তিন পাকিস্তানি জঙ্গি, শহিদ ৩ ভারতীয় জওয়ান]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement