BREAKING NEWS

১৭ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শনিবার ৪ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

নিপার ছোবলে কেরলে আরও ২ জনের মৃত্যু

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 31, 2018 12:21 pm|    Updated: May 31, 2018 12:21 pm

Killer Nipah virus claims two in Kerala, toll touches 15

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কেরলে ফের নতুন করে ছড়াল নিপা ভাইরাসের আতঙ্ক। রাজ্যে নিপা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও দু’জনের মৃত্যু হয়েছে। এই নিয়ে কেরলে নিপায় আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা হল ১৫।

পুনের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ভিরোলজি জানিয়েছে, এখনও পর্যন্ত নিপায় আক্রান্তের সংখ্যা ১৭। বুধবার কেরাসেরি থেকে এক যুবকের রক্তেও নিপার উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। তার বয়স ২৮ বছর। তবে শুধু কেরল নয়, নিপার আতঙ্ক তাড়া করে বেড়াচ্ছে দেশের অন্য অনেক জায়গার মানুষকে। সোমবার কলকাতায় এক জওয়ানের মৃত্যু হয়েছে। অনুমান করা হচ্ছে, নিপা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েই মৃত্যু হয়েছে তাঁর। ২ মে তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। তাঁর নাম সেনু প্রসাদ। তিনি কেরলের বাসিন্দা ছিলেন। কলকাতার ফোর্ট উইলিয়ামে পোস্টিং ছিলেন তিনি। তাঁর রক্তের নমুনা পুণেতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। দেশে এটিই একমাত্র প্রতিষ্ঠান যেখানে নিপা ভাইরাস পরীক্ষা করা যায়।

[ ৭ পয়সা কমল পেট্রলের দাম, খুশি হতে পারছেন না গ্রাহকরা ]

নিপা ভাইরাস শুধু মানুষ নয়, অন্যান্য প্রাণীদের উপরেও থাবা বসায়। এছাড়া নিপায় আক্রান্ত কারওর সংস্পর্শে এলেও এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার তীব্র আশঙ্কা থাকে। ভারতে এবছর প্রথম নিপার নমুনা পাওয়া যায় কেরলের কোঝিকোড়ে। সেখানকার একটি বাড়ির অব্যবহৃত কুয়োর মধ্যে বাদুড়ের মৃতদেহ আবিষ্কৃত হয়। ওই বাড়িতে চারজন থাকতে। তাঁদের প্রত্যেকেরই মৃত্যু হয়েছে।

[ কাশ্মীরে ধসের জেরে আটকে পড়ে বিপাকে বাংলার পর্যটকরা, দ্রুত পদক্ষেপের নির্দেশ মুখ্যমন্ত্রীর ]

নিপা নিজে এখন কেরল তো বটেই, পশ্চিমবঙ্গেও চলছে সতর্কতামূলক প্রচার। এই ভাইরাসে আক্রান্ত হলে প্রথমে জ্বর হয়। তারপর শুরু হয় মাথাব্যথা ও ক্লান্তি। শ্বাসজনিত সমস্যাও দেখা দেয়। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে (WHO), এই প্রক্রিয়া চলতে থাকলে রোগী ২৪ থেকে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে কোমায় চলে যেতে পারে। নিপার প্রধান বাহক বাদুড়। বাদুড়ে খাওয়া কোনও ফল খেলে মানুষের শরীরের প্রবেশ করতে পারে নিপা ভাইরাস।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে