২৩  শ্রাবণ  ১৪২৯  বুধবার ১০ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

যোগীরাজ্যে নর্দমা থেকে আইন পড়ুয়ার বস্তাবন্দি দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য, গ্রেপ্তার ৩

Published by: Anwesha Adhikary |    Posted: July 3, 2022 7:50 pm|    Updated: July 3, 2022 7:53 pm

Law Student dead body found in sack in Uttar Pradesh | Sangbad Pratidin

ছবি: প্রতীকী

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এক আইন পড়ুয়ার মৃতদেহ উদ্ধার করল উত্তরপ্রদেশ (Uttar Pradesh) পুলিশ। একটি বস্তার মধ্যে ভরে ড্রেনে ফেলা দেওয়া হয়েছিল দেহটি। পুলিশ জানিয়েছে, বেশ কিছুদিন ধরে নিখোঁজ ছিল ওই মৃত ব্যক্তি। সেই ঘটনার তল্লাশি চালাতে গিয়েই দেহ উদ্ধার করে পুলিশ। শুধু তাই নয়, এই ঘটনায় তিন সন্দেহভাজনকে আটক করা হয়েছে। জেরায় তারা দোষ স্বীকারও করে নিয়েছে। আপাতত মৃতদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। তিন অভিযুক্তের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, মৃতের নাম যশ রাস্তোগি (Uttar Pradesh Law Student)। কেন খুন হতে হল তাঁকে? গোটা ঘটনা বিশদে জানিয়েছে তিন অভিযুক্ত। একটি সমকামী অ্যাপ ব্যবহার করে ওই তিন যুবকের আপত্তিকর ভিডিও বানিয়েছিল যশ। সেই ভিডিও জনসমক্ষে প্রকাশ করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে তিনজনের কাছ থেকে টাকা আদায় করত সে। দিন দিন টাকা চাওয়ার পরিমাণ বাড়ছিল। তাই অতিষ্ঠ হয়ে যশকে খুন করার সিদ্ধান্ত নেয় আলিশান, সালিম ও শাভেজ নামে তিন অভিযুক্ত।

[আরও পড়ুন: ‘শীঘ্রই বাংলায় ক্ষমতা দখল করবে BJP’, জাতীয় কর্মসমিতিতে প্রত্যয়ী শাহ]

যশের পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, গত ২৬ জুন থেকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না তাঁকে। সেই কারণেই পুলিশের দ্বারস্থ হন পরিবারের সদস্যরা। তাঁদের অভিযোগের ভিত্তিতেই তল্লাশি শুরু করে উত্তরপ্রদেশ পুলিশ। সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায়, স্কুটি নিয়ে যাচ্ছেন যশ। কিন্তু তারপরে আর দেখা যায়নি তাঁকে। যশের মোবাইলের লোকেশন ট্র্যাক করা হয়। শেষবারের মতো মোবাইলের লোকেশন যে জায়গায় ছিল, সেখান থেকেই আটক করা হয় তিন অভিযুক্তকে। তারপর জেরার মুখে ভেঙে পড়ে সব কথা স্বীকার করে নেয় তারা।

জানা যায়, পরিকল্পনা মাফিক যশকে একটি নির্দিষ্ট জায়গায় আসতে বলে তিনজন। সেখানেও তুমুল ঝগড়া হয় তাদের মধ্যে। তারপরেই শাভেজ ও আলিশান মিলে খুন করে যশকে। তারপরে সালিমের সাহায্যে একটি বস্তায় ভরে ড্রেনে ফেলে দেয় মৃতদেহটি। পুলিশের তরফে বলা হয়েছে, কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে তিন অভিযুক্তের বিরুদ্ধে।

[আরও পড়ুন: সহকর্মী দলিত, মানতে না পেরে পিটিয়ে খুন করল উত্তরপ্রদেশের কনস্টেবল]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে