৫ আশ্বিন  ১৪২৬  সোমবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রবিবার রাতে ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষে ভয়াবহ দুর্ঘটনার কবলে পড়ল যাত্রী বোঝাই একটি বাস। ঘটনায় ইতিমধ্যেই মৃত্যু হয়েছে ১৫ জনের। আহত অন্তত ৩৫। মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলেই আশঙ্কা করা হচ্ছে।

ঘটনাটি ঘটে মহারাষ্ট্রের ঢুলে এলাকার নিমগুল গ্রামের কাছে। পুলিশ সূত্রে খবর, যাত্রীদের নিয়ে শাহাদার দিকে রওনা দিয়েছিল সরকারি বাসটি। রাত সাড়ে ১০ টা নাগাদ নিমগুল গ্রামের কাছে বাসটি পৌঁছনোর পরই উলটো দিক থেকে দ্রুত গতিতে আসা একটি ট্রাক সজোরে ধাক্কা মারে বাসটিকে। ট্রাকটি এতই তীব্র গতিতে আসছিল যে প্রায় গোটা বাসটির উপর দিয়েই তা চলে যায়। ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান ১১ জন। আহতের উদ্ধার করে স্থানীয় স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। তবে ইতিমধ্যেই মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৫-য়। আহত অন্তত ৩৫। আহতদের মধ্যে অনেকের অবস্থাই আশঙ্কাজনক। তাই মৃতের সংখ্যা বাড়তে পারে বলেই মনে করা হচ্ছে। ঢুলে পুলিশের সিনিয়র আধিকারিক হেমন্ত পাতিল জানান, কীভাবে এমন ভয়াবহ দুর্ঘটনা ঘটল, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। মৃতদেহগুলিকে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। যদিও ঘটনায় এখনও কাউকে গ্রেপ্তার করা হয়নি।

[আরও পড়ুন: বৃষ্টিতে তিন রাজ্যে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৮, দিল্লিতে জারি বন্যা সতর্কতা]


একটি ক্রেন ব্যবহার করে দুর্ঘটনাগ্রস্থ বাসটিকে রাস্তা থেকে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়। আপাতত ওই রাস্তায় যান চলাচল স্বাভাবিক। দোনদাইচা থানায় ইতিমধ্যেই একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। ঢুলে থানার এএসপি রাজু ভুজবাল বলেন, নিহতদের পরিবারকে ১৫ হাজার টাকা এবং আহতদের প্রত্যেককে এক হাজার টাকা করে দেওয়া হবে।

[আরও পড়ুন: দুধের দাম চেয়ে আরপিএফের হাতে গুলিবিদ্ধ, ঝাড়খণ্ডে গর্ভবতী মেয়ে-সহ মৃত দম্পতি]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং