Advertisement
Advertisement
Badrinath national highway

বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত উত্তরাখণ্ড, ধসের জেরে বন্ধ বদ্রীনাথ জাতীয় সড়ক, ভাইরাল হাড়হিম ভিডিও

গতকালও যেখানে রাস্তা ছিল আজ সেখানে বিশাল বিশাল পাথরের চাঁই!

Massive landslide on Badrinath national highway, traffic disrupted
Published by: Amit Kumar Das
  • Posted:July 10, 2024 5:06 pm
  • Updated:July 10, 2024 5:45 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: গতকালও যেখানে রাস্তা ছিল আজ সেখানে বিশাল বিশাল পাথরের চাঁই! ভয়ংকর ভূমিধসে এমনই বেহাল অবস্থা উত্তরাখণ্ডের। প্রবল বৃষ্টির জেরে বদ্রীনাথ জাতীয় সড়কে ধস নেমে বন্ধ হয়ে গিয়েছে রাস্তা। শুধু তাই নয়, এই ঘটনায় উত্তরাখণ্ডের প্রায় ২৫০টি রাস্তা তীব্র যানজটের জেরে কার্যত স্তব্ধ। বদ্রীনাথ জাতীয় সড়কে ধসের একাধিক ভিডিও প্রকাশ্যে এসেছে। যা রীতিমতো আতঙ্কের।

গত কয়েকদিন ধরে উত্তরাখণ্ডে ভারী বৃষ্টির জেরে তৈরি হয়েছে বন্যা পরিস্থিতি। বিপদসীমার উপর দিয়ে বইতে শুরু করেছে পাহাড়ি নদীগুলি। একইসঙ্গে চলছে ভূমিধস। গতকাল রাত থেকে একাধিক জায়গায় ভূমিধসের পাশাপাশি খসে পড়ে একের পর এক বিশাল পাথর। হাড়হিম করা সেই ঘটনার এক ভিডিও সোশাল মিডিয়ায় প্রকাশ উত্তরাখণ্ড পুলিশ। যেখানে দেখা যাচ্ছে পাহাড়ের উপর থেকে গড়িয়ে পড়ছে বিশাল পাথরের চাঁই। এই ঘটনার জেরে বন্ধ হয়ে গিয়েছে চামোলি বদ্রিনাথ হাইওয়ে। বিপর্যস্ত উত্তরাখণ্ডের একাধিক জেলার জনজীবন। বন্ধ হয়ে গিয়েছে চারধাম যাত্রাও।

Advertisement

[আরও পড়ুন: ৮০ লক্ষ গ্রাহকের তথ্য ফাঁস! Angel One-এ হ্যাকার হানায় উদ্বিগ্ন বিনিয়োগকারীরা]

এদিকে ভয়াবহ এই পরিস্থিতি থেকে এখনই মুক্তির কোনও সম্ভাবনা নেই বলে জানাচ্ছে আবহাওয়া দপ্তর। আগামী কয়েকদিন গোটা রাজ্যজুড়ে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাষ দিয়েছে হাওয়া অফিস। ভারী বৃষ্টির লাল সতর্কতা জারি করা হয়েছে নৈনিতাল-সহ উত্তরাখণ্ডের ৬ জেলায়। ভারী বৃষ্টির পাশাপাশি কাংড়া, কুলু, কিন্নৌর, মান্ডি, সিরমাউর এবং শিমলায় হড়পা বানের সতর্কতাও জারি করা হয়েছে। এছাড়াও হলুদ সতর্কতা জারি করা হয়েছে উত্তর কাশি, চামোলি, রুদ্রপ্রয়াগে।

[আরও পড়ুন: ‘নাকখত দিয়ে ক্ষমা চান’, হিন্দু মন্তব্যে রাহুলকে তোপ মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রীর]

মঙ্গলবার ধস নামে জোশীমঠের চুন্দু এলাকায়। এই ঘটনার জেরে আতঙ্কিত উত্তরাখণ্ডের তীর্থযাত্রীরা। একটানা বৃষ্টি ও ধসের ফলে উত্তরাখণ্ডের বহু জায়গায় আটকে পড়েছেন পর্যটকরাও। অবশ্য খারাপ আবহাওয়া ও ধসের কারণে দিনদুয়েক আগেই চারধাম যাত্রা বন্ধ করে দিয়েছিল উত্তরাখণ্ড সরকার। উল্লেখ্য, গত শনিবার ধসের কারণে প্রাণ হারিয়েছেন দুই পর্যটক।

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ