২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি হলেন মুকুল রায়, বড় পদে অনুপম হাজরাও

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: September 26, 2020 4:14 pm|    Updated: September 28, 2020 1:54 pm

An Images

নন্দিতা রায়, নয়াদিল্লি: অবশেষে লোকসভা ভোটের সাফল্যের ‘পুরস্কার’ পেলেন বিজেপি নেতা মুকুল রায় (Mukul Roy)। সর্বভারতীয় স্তরে মুকুলকে বড় পদ দিল বিজেপি। শনিবার বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডা দলের নতুন কমিটি ঘোষণা করেছেন। আর তাতে দলের সর্বভারতীয় সহ-সভাপতির পদ দেওয়া হয়েছে মুকুলকে। সেই সঙ্গে বড় পদ পেয়েছেন অনুপম হাজরাও। তাঁকে দেওয়া হয়েছে কেন্দ্রীয় সম্পাদকের পদ। অনুপমও মুকুলের হাত ধরেই বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন।

প্রসঙ্গত বিজেপিতে যোগ দেওয়ার পর থেকে এখনও পর্যন্ত বড় কোনও পদ পাননি মুকুল। তবে গত লোকসভা ভোটে তাঁকে দলের নীতি নির্ধারণ এবং প্রচারের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল। লোকসভা ভোটের আগে তাঁর হাত ধরেই বহু তৃণমূল নেতা বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন। লোকসভায় সাফল্যও পেয়েছে গেরুয়া শিবির। যদিও তারপর থেকে এতদিন পর্যন্ত বঙ্গ রাজনীতির বড় কোনও পদ তাঁকে দেওয়া হয়নি। এর মধ্যে মুকুল এবং দিলীপের সংঘাত নিয়েও বহু কালি খরচ হয়েছে। সদ্যই দিলীপকে আরও একবার রাজ্য সভাপতি হিসেবে বেছে নিয়েছে বিজেপি (BJP)। তারপর থেকেই মনে করা হচ্ছিল মুকুলকে কেন্দ্রীয় স্তরে কোনও পদ দেওয়া হতে পারে। এবং সেইমতোই প্রাক্তন রেলমন্ত্রী হয়ে গেলেন দেশের বৃহত্তম রাজনৈতিক দলের সহ-সভাপতি। যদিও এর আগে বা বর্তমানে যারা এই পদে আছেন, তাঁরা জাতীয় রাজনীতির থেকে রাজ্য রাজনীতিতেই বেশি সক্রিয় থাকেন। মুকুলের ক্ষেত্রেও হয়তো তাঁর ব্যতিক্রম হবে না।

[আরও পড়ুন: ‘আপনার অভাব অনুভব করছে দেশ’, জন্মদিনের শুভেচ্ছায় মনমোহনকে বললেন রাহুল]

মুকুলের পাশাপাশি বড় পদ পেয়েছেন তাঁর ‘অনুগামী’ অনুপম হাজরাও (Anupam Hazra)। অনুপমকে বিজেপির কেন্দ্রীয় সম্পাদক করা হয়েছে। বোলপুরের প্রাক্তন সাংসদ ২০১৯ লোকসভায় যাদবপুর থেকে প্রার্থী হন। কিন্তু সেবার মিমি চক্রবর্তীর কাছে বিরাট ব্যবধানে হারতে হয় তাঁকে। তারপর থেকে ততটা সক্রিয় ছিলেন না দলে। এবার তাঁকেও দেওয়া হল বড় পদ। এছাড়াও জাতীয় মুখপাত্র প্যানেলে রাখা হয়েছে দার্জিলিংয়ের সাংসদ রাজু সিং বিস্তাকে। মাঝখান থেকে বাদ পড়লেন রাহুল সিনহা। যিনি কিনা এতদিন দলের কেন্দ্রীয় সম্পাদক ছিলেন। নতুন কমিটিতে তিনি কোনও পদ পাননি। 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement