১৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ৬ ডিসেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

২০ কোটি টাকা তোলা চাওয়ার অভিযোগ, বাংলার CID কর্তার বিরুদ্ধে FIR দায়ের মুম্বইয়ের ব্যবসায়ীর

Published by: Paramita Paul |    Posted: November 17, 2022 11:47 am|    Updated: November 17, 2022 11:50 am

Mumbai Businessman lodged FIR against WB CID officer for extorting money | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কলকাতা বা রাজ্য পুলিশের কর্মীদের বিরুদ্ধে কখনও তোলাবাজি তো কখনও ডাকাতির অভিযোগ উঠেছে। সম্প্রতি একাধিক মামলায় নাম জড়িয়ে সাসপেন্ড হয়েছে জনাকয়েক পুলিশ কর্মী ও আধিকারিক। এবার রাজ্যের সিআইডি (CID) কর্তার বিরুদ্ধে তোলাবাজির অভিযোগ দায়ের হল মুম্বইয়ে। অভিযোগ, কোলাবার (Colaba) এক পানশালা ব্যবসায়ীর থেকে ১০ কোটি টাকা চেয়েছিলেন সিআইডি আধিকারিক-সহ মোট ৪ জন। এমনকী, পানশালার মালিক ও তাঁর স্ত্রীকে খুনের হুমকিও দেওয়া হয়েছিল বলেও দাবি। যদিও সিআইডি সূত্রে দাবি, ব্যবসায়ীর অভিযোগ ভিত্তিহীন। 

দক্ষিণ মুম্বইয়ের (Mumbai) নামী এক পানশালার মালিক জিতেন্দ্র চান্দেরলাল নভলানি। মুম্বই পুলিশের কাছে ৪ জনের বিরুদ্ধে তোলাবাজি, খুনের হুমকি দেওয়ার অভিযোগ দায়ের করেছেন তিনি। অভিযুক্তরা হলেন রাজর্ষি বন্দ্যোপাধ্যায়, সুমিত বন্দ্যোপাধ্যায়, সুদীপ দাসগুপ্ত-সহ মোট ৪ জন। অভিযুক্তদের মধ্যে রাজর্ষি বন্দ্য়োপাধ্যায় বাংলার সিআইডি আধিকারিক বলে খবর। অভিযোগ, জিতেন্দ্র চান্দেরলাল নভলানি ও তাঁর স্ত্রী ভূমিকাকে খুনের হুমকি দিয়ে ১০ কোটি টাকা আদায় করতে চেয়েছিল অভিযুক্তরা। এর মধ্যে ২০ লক্ষ টাকাও হাতিয়েছিল অভিযুক্তরা। ওরলি রেস্তরাঁয় অভিযুক্তদের সঙ্গে নভলানির একটি বৈঠকও হয় বলে খবর। তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। অভিযোগের সত্যতা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

[আরও পড়ুন: চিকিৎসার নামে চুরি গেল দু’টি কিডনি! প্রতারক ডাক্তারের কিডনি চাইলেন মহিলা]

উল্লেখ্য, একাধিক অভিযোগে বিদ্ধ অভিযোগকারী নভলানিও। শিবসেনা সাংসদ সঞ্জয় রাউত সাংবাদিক সম্মেলন করে তোলাবাজির অভিযোগ করেছিলেন এই পানশালা ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে। বলেছিলেন, এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটের আধিকারিকদের হয়ে কাজ করছেন নভলানি। অনৈতিক আর্থিক লেনদেন মামলায় ইডির কোপ থেকে বাঁচানোর পরিবর্তে মোটা টাকা নিতেন ব্যবসায়ী। মুম্বইয়ের ৮০ ব্যবসায়ীর ব্যাংক থেকে প্রায় ৬০ কোটি টাকা নভলানির কাছে গিয়েছিল বলে দাবি করেছিলেন রাউত। মহারাষ্ট্রের দুর্নীতিবিরোধী শাখার হাতে গ্রেপ্তারও হয়েছিলেন তিনি।

এমনকী, দেওয়ান হাউজিং ফিনান্স কর্পোরেশন লিমিটেড মামলাতেও নাম জড়িয়েছিল এই ব্যবসায়ীর। এবার সেই পানশালার মালিক অভিযোগ আনলেন বাংলার সিআইডি কর্তার বিরুদ্ধে। যা ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।

[আরও পড়ুন: ঐন্দ্রিলা শর্মার মৃত্যুর গুজবে তোলপাড় নেটপাড়া, কেমন আছেন অভিনেত্রী?]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে