BREAKING NEWS

১৯ শ্রাবণ  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ৫ আগস্ট ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

দেশের স্বার্থের সঙ্গে আপস করেছে সরকার? লাদাখে সেনা প্রত্যাহার নিয়ে প্রশ্ন রাহুলের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: July 7, 2020 1:26 pm|    Updated: July 7, 2020 1:26 pm

National interest is paramount, Rahul asks 3 questions

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লাদাখ ইস্যুতে রাহুল গান্ধীর প্রশ্নবাণ যেন কিছুতেই শেষ হচ্ছে না। একের পর এক ইস্যু তুলে লাগাতার কেন্দ্রের সমালোচনা করে চলেছেন তিনি। এমনকী, সদ্য লাদাখ থেকে দুই দেশের তরফে যে সেনা প্রত্যাহারের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে, সেটা নিয়েও প্রশ্ন তুলে দিয়েছেন তিনি। প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতির অভিযোগ, এই সেনা প্রত্যাহারের জন্য জাতীয় স্বার্থের সঙ্গে আপস করতে হয়েছে ভারত সরকারকে।

[আরও পড়ুন: চিনের সঙ্গে সংঘাত এড়ানোর কৌশল! দলাই লামাকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানালেন না মোদি]

মঙ্গলবার লাদাখ (Ladakh) নিয়ে কেন্দ্রকে তিনটি প্রশ্ন করলেন রাহুল। যার পরতে পরতে একটাই ইঙ্গিত, সরকার চিনের সঙ্গে সমঝোতা করার সময় জাতীয় স্বার্থের সঙ্গে আপস করেছে। প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি টুইটে বলছেন, “জাতীয় স্বার্থ সবসময় শিরোধার্য। আর সরকারের উচিত সেটা রক্ষা করা।” এরপরই তাঁর প্রশ্ন, “চিনের সঙ্গে আলোচনার সময় কেন সরকার আগের স্থিতাবস্থা ফিরিয়ে দেওয়ার দাবি জানাল না? কেন আমাদের দেশের মাটিতে ২০ জন নিরস্ত্র জওয়ানের মৃত্যুর পরও চিনের কোনও শাস্তি হল না? কেন গালওয়ান উপত্যকার উপর ভারতের সার্বভৌম ক্ষমতার দাবি জোরাল করা হল না?

[আরও পড়ুন: দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা পেরল ৭ লক্ষ, কুড়ি হাজারের গণ্ডি টপকাল মৃতের সংখ্যাও]

লাদাখে চিনের আগ্রাসন নিয়ে শুরু থেকেই কেন্দ্রের সমালোচনায় মুখর বিরোধীরা। বিশেষ করে রাহুল গান্ধী (Rahul Gandhi) প্রধানমন্ত্রীর বিদেশনীতিকে বারবার প্রশ্নের মুখে ফেলেছেন। রাহুলের অভিযোগ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি চিনের সামনে আত্মসমর্পণ করেছেন। চিন ভারতের জমি দখল করে বসে আছে, অথচ মোদি তা স্বীকার পর্যন্ত করতে চাইছেন না। কখনও প্রধানমন্ত্রীকে ‘ভীতু’ বলে কটাক্ষ করেছেন, আবার কখনও নরেন্দ্র মোদির (Narendra Modi) পরিবর্তে ‘সারেন্ডার মোদি’ বলে তোপ দেগেছেন। এবার দু’দেশের মধ্যে যে শান্তি প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে, সেটা নিয়েও প্রশ্ন তুলে দিলেন প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement