১৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ৬ ডিসেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রাজীব হত্যাকারীদের মুক্তির সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার দাবিতে আদালতে যাচ্ছে কংগ্রেস

Published by: Kishore Ghosh |    Posted: November 21, 2022 4:52 pm|    Updated: November 21, 2022 4:54 pm

Now Congress To Challenge Supreme Court Order Rajiv Gandhi Killers' Release | Sangbad Pratidin

সোমনাথ রায়, নয়াদিল্লি: গত ১১ নভেম্বর প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীকে হত্যার (Rajiv Gandhi Assassination) অপরাধে দোষী সাব্যস্ত ৬ জনকে মুক্তির নির্দেশ দেয় সুপ্রিম কোর্ট (Supreme Court)। সেদিনই সুপ্রিম নির্দেশের বিরোধিতা করেছিল কংগ্রেস (Congress)। সোমবার কংগ্রেসের তরফে জানানো হল, দোষীদের মুক্তি দেওয়ার সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা জন্য শীর্ষ আদালতে আবেদন জানাবে তারা। আগামী ৩ থেকে ৪ দিনের মধ্যে আদালতে এই বিষয়ে আবেদন জানানো হবে।

১৯৯১ সালের ২১ মে তামিলনাড়ুর শ্রীপেরমবদুরে একটি নির্বাচনী জনসভায় আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণে মৃত্যু হয়েছিল প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীর। এই ঘটনায় মোট ৭ জনকে দোষী সাব্যস্ত করে মৃত্যুদণ্ডের নির্দেশ দেয় আদালত। পরে ২০১৪ সালে সুপ্রিম কোর্টে মৃত্যুদণ্ড যাবজ্জীবন কারাদণ্ডে বদলে যায়। এর মধ্যে গত ১১ নভেম্বর একটি নির্দেশে সুপ্রিম কোর্ট রাজীব গান্ধী হত্যা মামলায় সাজাপ্রাপ্ত ছ’জনকে মুক্তির নির্দেশ দেয়। জেলমুক্ত হয় নলিনী শ্রীহরণ, রবিচন্দ্রন, শান্থন, মুরুগান, রবার্ট পায়াস এবং জয়কুমার। এর আগে মে মাসে আর এক যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত পেরারিভালনকে মুক্তি দিয়েছিল সুপ্রিম কোর্ট।

[আরও পড়ুন: বুরারি কাণ্ডের ছায়া রাজস্থানে, বাড়ি থেকে উদ্ধার একই পরিবারের ৬ জনের মৃতদেহ]

ব্যক্তিগত ভাবে সোনিয়া গান্ধী রাজীব হত্যার সঙ্গে জড়িতদের ‘ক্ষমা’ করলেও, সাজাপ্রাপ্তদের মুক্তি নিয়ে আপত্তি জানিয়েছিল দল কংগ্রেস। সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশকে ‘গ্রহণযোগ্য নয়’ এবং ‘সম্পূর্ণ ভুল’ বলে অভিহিত করেছিল কংগ্রেস। দলের তরফে মন্তব্য করা হয়েছিল, ওই অপরাধীরা জেল থেকেই মুক্তি পেয়েছেন। তারা কিন্তু জামিন পাননি। ফলে তাঁদের যেন ‘হিরো’ হিসাবে কখনই দেখা না হয়। সোমবার কংগ্রেস সূত্রে খবর, রাজীব গান্ধীকে হত্যার অপরাধে দোষী সাব্যস্ত ৬ জনকে মুক্তি দেওয়ার সিদ্ধান্তকে পুনর্বিবেচনার আবেদন করবে কংগ্রেস।

[আরও পড়ুন: এ কোন সমাজ! দলিত মহিলা জল খাওয়ায় গোমূত্র দিয়ে ট্যাঙ্ক পরিষ্কার করলেন উচ্চবর্ণের লোকেরা]

এদিকে আরও একটি সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার আবেদন জমা পড়তে চলেছে সুপ্রিম কোর্টে। ছাওয়ালা ধর্ষণ কাণ্ডের (Chhawla Rape Case) এক দশক পরে আসামিদের বেকসুর খালাস করেছিল সুপ্রিম কোর্ট (Supreme Court)। রায়দানের পরে নির্যাতিতার পরিবারের সদস্য ও বেশ কয়েকজন সমাজকর্মীকে বিক্ষোভ দেখাতে দেখা গিয়েছিল আদালত চত্বরে। ‘সুপ্রিম’ রায়ের পর্যালোচনা চাইবেন, জানিয়েছিলেন মৃতার পরিবার। তার আগেই শীর্ষ আদালতের রায় পুনর্বিবেচনার আরজি জানাতে চলেছে দিল্লি সরকার (Delhi Government)। ইতিমধ্যে এই বিষয়ে দিল্লির উপরাজ্যপাল ভিকে সাক্সেনা অনুমতি দিয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে