BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

বিচ্ছিন্নতাবাদের ইতিহাস অতীত, বৈদেশিক অনুদান গ্রহণের অনুমতি পেল স্বর্ণমন্দির

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: September 11, 2020 1:43 pm|    Updated: September 11, 2020 1:43 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রায় তিন দশক পর বৈদেশিক অনুদান গ্রহণের অনুমতি পেল স্বর্ণমন্দির। এবার বিদেশ থেকেও শিখ ধর্মের অনুগামীরা মন্দিরের তহবিলে আর্থিক অনুদান দিতে পারবেন। শিখ ধর্মের নিয়মানুযায়ী আয়ের দশ ভাগের এক ভাগ (গুরুমুখীতে দশওয়ানদ্ধ) জনকল্যাণমূলক কাজে দান করতে হয়। কিন্তু বিদেশ থেকে অনুদান গ্রহণের অনুমতি না থাকায় চাইলেও মন্দিরে দান করতে পারছিলেন না প্রবাসী শিখরা। প্রায় তিন দশক পর এবার সেই সমস্যার সমাধান হয়েছে।

[আরও পড়ুন: চিন যে ভারতের জমি কেড়ে নিচ্ছে, সেটাও কি ঈশ্বরের দোষ?‌ ফের কেন্দ্রকে নিশানা রাহুলের]

জানা গিয়েছে, শিখদের দীর্ঘদিনের দাবি মেনে স্বর্ণমন্দির কর্তৃপক্ষকে ফরেন কন্ট্রিবিউশন রেগুলেশন অ্যাক্টে বিদেশ থেকে আর্থিক অনুদান নিতে পারবে হরমিন্দর সাহেব বা স্বর্ণমন্দির। এই মর্মে সেপ্টেম্বরের ৯ তারিখ সম্মতি দিয়েছে কেন্দ্র। মোদি সরকারের এই পদক্ষেপে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে শিরোমণি গুরুদ্বার প্রবন্ধক কমিটি বা স্বর্ণমন্দিরের লঙ্গর পরিচালনা কর্তৃপক্ষের সভাপতি গোবিন্দ সিং লঙ্গওয়াল বলনে, “১৯৮৪ সালের পর থেকে স্বর্ণমন্দিরে বিদেশ থেকে আশা আর্থিক অনুদান বন্ধ করে দেওয়া হয়। কিন্তু এবার ফরেন কন্ট্রিবিউশন অ্যাক্টে অনুমতি মেলায় বিদেশের সঙ্গতগুলিও সরাসরি স্বর্ণমন্দিরের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠাতে পারবে।”

উল্লেখ্য, শিখ সন্ত্রাসবাদ তথা খলিস্তান আন্দোলনের জন্য প্রাক্তন আটের দশকে স্বর্ণমন্দিরে আসা বিদেশী অনুদানে রাশ টেনেছিল তৎকালীন কেন্দ্র সরকার। অভিযোগ ছিল, কানাডা, আমেরিকা, ব্রিটেন-সহ একাধিক দেশ থেকে খলিস্তানি আন্দোলনের নেতা প্রয়াত জার্নেল সিং ভিন্দ্রানওয়ালের কাছে টাকা আসত। এবং স্বর্ণমন্দির সেই বিচ্ছিন্নতাবাদীদের গড় ছিল। প্রসঙ্গত, ১৯৮৪ সালে পৃথক খলিস্তানের দাবিতে উত্তাল হয়ে ওঠে পাঞ্জাব। অমৃতসর স্বর্ণমন্দিরে ঘাঁটি গেড়ে গোটা রাজ্যে হিংসাত্মক ঘটনা চালাতে থাকে বিচ্ছিন্নতাবাদীদের নেতা জার্নেল সিং ও তার অনুগামীরা। এই আন্দোলন থামাতে ৩ জুন শুরু হয় অপারেশন ব্লু-স্টার। আর ৮ জুনের মধ্যে বিচ্ছিন্নতাবাদীদের দখল থেকে উদ্ধার হয় স্বর্ণমন্দির।

এবার অতীতের সেই রক্তাক্ত অধ্যায়ে ইতি টেনে স্বর্ণমন্দির নিয়ে নয়া পদক্ষেপ করল কেন্দ্র। এই মর্মে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ জানান, বরাবরই দুস্থদের পাশে দাঁড়িয়েছে স্বর্ণমন্দির। সেবামূলক সেই কাজ আরও এগিয়ে নিয়ে যেতে বিদেশী অনুদান গ্রহণের অনুমতি প্রদান করেছে কেন্দ্র। বিশ্লেষকদের মতে, খলিস্তানি সন্ত্রাসের রক্তাক্ত অধ্যায় ভুলিয়ে শিখদের মনে বিশ্বাস জাগানোর চেষ্টা করছে মোদি সরকার। 

[আরও পড়ুন: কাশ্মীরে বড়সড় সাফল্য সেনার, কুপওয়ারা থেকে প্রচুর অস্ত্র-সহ গ্রেপ্তার দুই জইশ জঙ্গি]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement