Advertisement
Advertisement
Coromandel Express Accident

ওড়িশা রেল দুর্ঘটনা: মৃত্যু বাংলার ১০৩ জনের, কটক হাসপাতালে গিয়ে বললেন মুখ্যমন্ত্রী

আর্থিক সাহায্য ও চাকরির ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী।

Orissa train accident: Death toll in West Bengal rises to 103, says CM Mamata Banerjee from Cuttack | Sangbad Pratidin
Published by: Sucheta Sengupta
  • Posted:June 6, 2023 3:30 pm
  • Updated:June 6, 2023 4:19 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভয়াবহ রেল দুর্ঘটনায় (Coromandel Express Accident) প্রাণ হারিয়েছেন মোট ২৭৮ জন। তার মধ্যে বাংলারই ১০৩ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। তাঁদের সকলকে শনাক্ত করা গিয়েছে। নিখোঁজের সংখ্যা এখনও পর্যন্ত ৩১। মঙ্গলবার কটক (Cuttack) হাসপাতালে গিয়ে চিকিৎসক, নার্সদের সঙ্গে কথা বলে, আহতদের সঙ্গে দেখা করার পর এই তথ্য জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (CM Mamata Banerjee)। জানালেন, সকলের চিকিৎসার সমস্ত খরচ বহন করবে রাজ্য সরকার। নিহতদের পরিবার পিছু ৫ লক্ষ টাকা করে আর্থিক সাহায্য দেওয়া হবে। এছাড়া দুর্ঘটনার কবলে পড়ে যাঁরা কাজের ক্ষমতা হারিয়েছেন, তাঁদের জন্য হোম গার্ডের চাকরি দেওয়ার ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী।

গত ২ জুন, সন্ধেবেলা ওড়িশার বালেশ্বরের কাছে তিন-তিনটি ট্রেন লাইনচ্য়ুুত হয়ে ভয়াবহ দুর্ঘটনা  ঘটে। চেন্নাইগামী করমণ্ডল এক্সপ্রেস, হামসফর এক্সপ্রেস ও মালগাড়ির সংঘর্ষে এখনও পর্যন্ত মৃত্য়ু হয়েছে ২৭৮ জনের। দুর্ঘটনার পরদিনই ঘটনাস্থলে গিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সরেজমিনে পরিস্থিতি  খতিয়ে দেখেন। দু’দিন পর ফের ওড়িশা (Orissa) গেলেন তিনি। এবার আহতদের দেখতে গেলেন। দুর্ঘটনায় বাংলার ৫১ জন ভরতি এই হাসপাতালে। তাঁদের মধ্যে ৮ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।  তাঁদেরই শারীরিক অবস্থা কেমন, তার খোঁজখবর নিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়। কটক হাসপাতালের চিকিৎসক, নার্সদের ধন্যবাদ জানান।

Advertisement

Advertisement

এরপর মুখ্যমন্ত্রী কটক হাসপাতালেই আহতদের আত্মীয়দের সঙ্গে কথা বলেন। তাঁদের মনোস্তাত্বিক পরামর্শ দিয়ে বলেন, ”যাঁরা হাসপাতালে ভরতি রয়েছেন, তাঁদের কাছে গিয়ে বেশি দুর্ঘটনার কথা বলবেন না। বরং হাসি-ঠাট্টা করুন, মাথায় হাত বুলিয়ে দিন। তাহলে দেখবেন, তাঁরা অনেক চাঙ্গা থাকবেন। দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠবেন। মনে রাখবেন, চিকিৎসার চেয়েও মনের জোরটা দেওয়া বেশি জরুরি।” 

[আরও পড়ুন: বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনাল: ওভালের সবুজ পিচ কতটা বিপজ্জনক ভারতের জন্য?]

এখানে এক মহিলা তাঁর স্বামী, শাশুড়ির আহত হওয়ার কথা জানিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে সাহায্য়ের কথা বলেন। তাঁকে আশ্বস্ত করে মুখ্যমন্ত্রী জানান, আপনাদের হোম গার্ডের চাকরি দেওয়া হবে, বাড়ির কাছাকাছিই কাজ করবেন। হোম গার্ডে অনেক মহিলা আছেন তো।” কটক থেকে এরপর মুখ্যমন্ত্রী যান ভুবনেশ্বর এইমসে। সেখানেও রাজ্যের বেশ কয়েকজন চিকিৎসাধীন। তাঁদের সঙ্গে দেখা করে ফেরার পথে মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজে যাওয়ার কথা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। 

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ

হাইলাইটস

  • কটক