১৮ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  রবিবার ৫ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ছেলের বিয়েতে পাঁচদিনের মুক্তি লালুর, কিন্তু পিছু ছাড়ছে না সিবিআই মামলা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 9, 2018 4:15 pm|    Updated: May 9, 2018 4:15 pm

Parole for Lalu Prasad Yadav, CBI’s IRCTC probe gains momentum

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ছোট ছেলে তেজ প্রতাপ যাদবের বিয়ের জন্য পাঁচ দিনের প্যারোলে মুক্তি পেয়েছেন বিহারের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা রাষ্ট্রীয় জনতা দল প্রধান লালু প্রসাদ যাদব। কিন্তু তারপরেও অস্বস্তি ও অশান্তি পিছু ছাড়ছে না যাদব পরিবারের। কারণ আইআরসিটিসি হোটেল কেলেঙ্কারিতে নাম থাকার দরুণ লালু, তাঁর স্ত্রী রাবড়ি দেবী ও ছেলে তেজস্বী যাদবের বিরুদ্ধে ইতিমধ্যেই আদালতে ২০ হাজার পাতার বেশি তথ্য-প্রমাণ লিপিবন্ধ করে পেশ করেছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা সিবিআই। নয়াদিল্লির পাতিয়ালা কোর্টে এই তথ্য পেশ করেছেন সিবিআইয়ের তদন্তকারীরা।

[বেঙ্গালুরুর ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার প্রায় ৯,৭৪৬টি ভোটার কার্ড, বিজেপি-কংগ্রেস চাপানউতোর শুরু]

জানা গিয়েছে, পেশ করা তথ্যে সিবিআই একাধিক স্থানে উল্লেখ করেছে বিহারের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী লালু প্রসাদ যাদব, তাঁর স্ত্রী রাবড়ি দেবী ও ছেলে তেজস্বী যাদবের নাম। এছাড়াও রয়েছে আরও ১১ জন অভিযুক্তের নাম। লালু ও তাঁর পরিবারের সদস্যদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, ২০০৪ থেকে ২০০৯ প্রথম ইউপিএ সরকারের আমলে রেলমন্ত্রী থাকাকালীন আইআরসিটিসি-র দুটি হোটেলের টেন্ডার একটি বেসরকারি হোটেলকে পাইয়ে দেওয়ার জন্য নিজের প্রভাব খাটিয়ে ছিলেন লালু প্রসাদ। এই বিযয়ে গত বছরের ৭ জুলাই এফআইআর দায়ের করেছিল সিবিআই। গত বছরের ১১ সেপ্টেম্বর সিবিআইয়ের দপ্তরে হাজিরাও দিতে হয়েছিল প্রাক্তন রেলমন্ত্রী লালু প্রসাদ যাদবকে। গত মাসেই সিবিআইয়ের জেরার মুখে পড়েছিলেন আরজেডি প্রধানের স্ত্রী রাবড়ি ও বড় ছেলে তেজস্বী। ২০১৭-তে যখন এই কেলেঙ্কারি সামনে আসে তখন, বিহারের বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমারের জনতা দল ইউনাইটেড বা জেডিইউ-য়ের সঙ্গে ‘মহাজোট’ সরকার চালাচ্ছিল লালুর আরজেডি। উপমুখ্যমন্ত্রী ছিলেন কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত লালুর ছেলে তেজস্বী। কিন্তু এরপরেই ছন্দপতন ঘটেছিল, লালুর আরজেডির সঙ্গে সম্পর্ক ত্যাগ করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার। জোট ভেঙে বেরিয়ে এসে, বিজেপির হাত ধরে পুনরায় মুখ্যমন্ত্রীর কুর্সিতে বসেছিলেন স্বচ্ছ ভাবমূর্তির জেডিইউ প্রধান।

[দল জিতলে তিনিই প্রধানমন্ত্রী, জানিয়ে দিলেন রাহুল গান্ধী]

পশুখাদ্য কেলেঙ্কারি মামলায় দোষী সাব্যস্থ হওয়ায় বিহারের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর বর্তমান ঠিকানা রাঁচির বিরসা মুণ্ডা সেন্ট্রাল জেল। যদিও শারীরিক অসুস্থতার দোহাই দিয়ে তিনি জেলের চেয়ে বেশি সময় কাটিয়েছেন প্রথমে দিল্লির এইমস হাসপাতাল ও পরে রাঁচির রাজেন্দ্র ইনস্টিটিউট অফ মেডিক্যাল সায়েন্সে। আগামী ১২ মে বিহারের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী দারোগা প্রসাদ রাইয়ের নাতনীর সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হতে চলেছেন লালুর ছোট ছেলে তেজ প্রতাপ যাদব। সেজন্যই ৯ মে থেকে ১৩ মে পাঁচদিনের জন্য প্যারলে মুক্তি পায়েছেন লালু প্রসাদ যাদব। তবে এই মুক্তিও সুখের হচ্ছে না লালু ও তাঁর পরিবারের।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে