৯ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

প্রবল শিলাবৃষ্টিকে উপেক্ষা করে মদের জন্য দাঁড়িয়ে অসংখ্য মানুষ, ভাইরাল ভিডিও

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: May 5, 2020 8:55 pm|    Updated: May 5, 2020 10:59 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনার সংক্রমণ রুখতে লকডাউন চলছে দেশে। প্রথম দুটি দফার লকডাউনে মদের দোকান বন্ধ থাকলেও অর্থনীতিকে চাঙ্গা করতে তৃতীয় দফার প্রথমদিনেই খুলে গিয়েছে মদের দোকান। আর তারপরই দোকানের সামনে হাজার হাজার মানুষের লাইন দেখে স্তম্ভিত হয়ে পড়েছেন গৃহবন্দিরা। সোশ্যাল মিডিয়ার সৌজন্য বিভিন্ন রাজ্যের ছবি ও ভিডিও দেখে চোখ কপালে উঠেছে তাঁদের। আর মাত্র দুদিনের মধ্যে ৩৫ হাজার কোটি টাকার মদ বিক্রি হওয়ার ফলে কিছুটা হলেও চাঙ্গা হয়েছে অর্থনীতি।

আর তা সম্ভব হয়েছে মদের ক্রেতাদের জন্য! রোদ, ঝড় আর বৃষ্টি উপেক্ষা করে অতিরিক্ত কর দিয়ে মদ কিনেছেন তাঁরা। ফলে এই লকডাউনের বাজারে টাকা ঢুকেছে কেন্দ্র ও রাজ্যগুলির অর্থভাণ্ডারে। মঙ্গলবার এইরকম কিছু অকুতোভয় ক্রেতাদের দেখা গেল প্রবল শিলাবৃষ্টিকে উপেক্ষা করে রেনকোট পরে কিংবা ছাতা নিয়ে মদের দোকানের সামনে লাইন দিতে। উত্তরাখণ্ডের নৈনিতালের এই ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়াতে পোস্ট হওয়ার পরেই ভাইরাল হয়েছে।

[আরও পড়ুন: পাতাল থেকে উদ্ধার বিষ্ণুমূর্তি, লকডাউন উড়িয়ে উপচে পড়ল ভিড় ]

৪০ সেকেন্ডের ওই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, নৈনিতালের মল রোড এলাকায় মেঘের কারণে চারিদিক অন্ধকার হয়ে গিয়েছে। ঝড়ের সঙ্গে হচ্ছে প্রচণ্ড শিলাবৃষ্টিও। প্রতিকূল এই আবহাওয়ার মধ্যেও রেনকোট পরে বা ছাতা মাথায় দিয়ে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে মদের দোকানে লাইন দিয়েছেন অসংখ্য মানুষ। অনেকে আবার কোনও কিছু না নিয়ে লাইনে দাঁড়িয়ে রয়েছে। তবে কোনও রকম ঠেলাঠেলি বা ধাক্কাধাক্কি করছেন না কেউ।

মঙ্গলবার বিকেল পাঁচটা ২৮ মিনিটে ভিডিওটি শেয়ার হওয়ার পরে এখনও পর্যন্ত সেটি দেখে ফেলেছেন ২৫ হাজারের বেশি মানুষ। তাঁদের মধ্যে কেউ কেউ বলছেন, ৪০ দিন ধরে মদের দোকান বন্ধ থাকায় প্রচুর মানুষ বেপরোয়া হয়ে পড়েছিলেন। করোনাতঙ্কের থেকেও মদ খেতে না পাওয়াটা তাঁদের কাছে বড় সমস্যার জিনিস বলে মনে হয়েছিল। তাই তৃতীয় দফার লকডাউনের শুরুতেই মদের দোকান খুলে যাওয়ায় অনেকেই আর অপেক্ষা করতে পারেননি। সোজা চলে এসেছেন দোকানে। তবে অন্য জায়গার তুলনায় নৈনিতালের মানুষ যে অনেক সচেতন তা এই ভিডিওটি দেখলেই বোঝা যাচ্ছে।

[আরও পড়ুন: ‘আপনারাই আমাদের দেশের অর্থনীতি’, মদের লাইনে দাঁড়ানো মানুষের মাথায় পুষ্পবৃষ্টি ব্যক্তির]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement