BREAKING NEWS

৩ কার্তিক  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ২১ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

দেবীপক্ষে নারীর জন্য বড় পদক্ষেপ বিজেপির, সদর দপ্তরে বসছে ন্যাপকিন ভেন্ডিং মেশিন

Published by: Biswadip Dey |    Posted: October 7, 2021 8:31 pm|    Updated: October 8, 2021 8:36 am

Sanitary pad vending machine will be inaugurated by National President of Mahila Morcha in BJP office। Sangbad Pratidin

নন্দিতা রায়, নয়াদিল্লি: দীনদয়াল উপাধ্যায় মার্গে বিজেপির (BJP) সদর দপ্তরে বসতে চলেছে অটোমেটিক স্যানিটারি ন্যাপকিন ভেন্ডিং মেশিন। শুক্রবার ওই যন্ত্রটির উদ্বোধন করবেন বিজেপির জাতীয় মহিলা মোর্চার সভাপতি বানতি শ্রীনিবাসন। গেরুয়া শিবিরের এই পদক্ষেপকে কার্যত নজিরবিহীন বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল। এই প্রথম বিজেপির তরফে এই ধরনের কোনও যন্ত্র বসানো হল।

সাধারণ ভাবে বিজেপির বিরুদ্ধে পুরুষ-আধিপত্যের অভিযোগ তোলে বিরোধীরা। তবে এরই পাশাপাশি গেরুয়া শিবিরের দর্শনে নারীকে ‘মাতৃ’জ্ঞানে দেখার কথাও বলা হয়। সেই জায়গায় দাঁড়িয়ে বিজেপির এই সিদ্ধান্তকে তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল। বৃহস্পতিবার থেকেই শুরু হয়েছে নবরাত্রি। আর সেই উৎসব পালনের আবহেই এবার নারীর অস্বস্তি দূর করতে দলের সদর দপ্তরে এই পদক্ষেপ করতে চলেছে বিজেপি। এ নিয়ে বিজেপি সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়ের বক্তব্য, ”মহিলাদের ক্ষমতায়নের পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সরকার এবং বিজেপি যে তাদের স্বাস্থ্যের কথা ভাবে, এই পদক্ষেপ তারই প্রমাণ। ভারত যে অনেক এগিয়ে গিয়েছে তার উদাহরণও বলতে পারেন।”

[আরও পড়ুন: করোনায় মৃত ২৮০০ রেলকর্মীর পরিবারের সদস্য চাকরি পেয়েছে, জানিয়ে দিল রেল]

সামাজিক ট্যাবুর কারণে ঋতুস্রাবের মতো স্বাভাবিক ঘটনাকে ঘিরে আজও রয়ে গিয়েছে লজ্জার পরত। স্কুল-কলেজের পড়ুয়া হোক কিংবা কর্মরতা কেউ- আচমকা শুরু হয়ে যাওয়া ঋতুস্রাব কিংবা ঋতুস্রাব চলাকালীন প্যাড বদল সংক্রান্ত বিষয়ে অস্বস্তিতে পড়তে হয় অনেক মহিলাকেই। এটি যে প্রাকৃতিক একটি বিষয়, তা দীর্ঘদিনের প্রচলিত সংস্কারের ফাঁদে পড়ে এখনও লজ্জা ও সঙ্কোচের বিষয় হয়েই রয়ে গিয়েছে।

কিন্তু গত কয়েক বছরে ছবিটা অনেকটাই বদলেছে। ২০১৭ সালে দেশের প্রথম রাজ্য হিসেবে কেরলের স্কুলে বসেছিল এই মেশিন। ২০১৮ সালে দেশের প্রথম রেল স্টেশন হিসেবে ভোপালে বসেছিল ন্যাপকিন যন্ত্র। তৈরি হয়েছিল নয়া ইতিহাস। এভাবেই স্কুল-কলেজ-রেলস্টেশনের মতো স্থানে এই ধরনের মেশিন বসানোর পদক্ষেপের পরে এবার বিজেপির তরফে দলীয় কার্যালয়েও বসতে চলেছে এই যন্ত্র। কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী ড. সুভাষ সরকার বলেন, ”আজ প্রধানমন্ত্রী যে সবার বিকাশের কথা ভেবেছেন এই পদক্ষেপ তার প্রতিফলন। দেশের মা, বোনদের প্রকৃত সম্মান দেওয়া তাঁদের স্বাস্থ্যের দিকে নজর দেওয়ার জন্য মোদিজি ইতিমধ্যেই জনৌষধিতে ১ টাকায় স্যানিটারি প্যাডের ব্যবস্থা করেছেন।”

[আরও পড়ুন: লখিমপুর কাণ্ডে উদ্বিগ্ন সুপ্রিম কোর্ট! উত্তরপ্রদেশ সরকারকে ‘স্টেটাস রিপোর্ট’ জমা দেওয়ার নির্দেশ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement