BREAKING NEWS

১৫  আষাঢ়  ১৪২৯  শুক্রবার ১ জুলাই ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

ভারতকে ইসলামিক রাষ্ট্র বানাতে চাইছে শারজিল ইমাম, দাবি দিল্লি পুলিশের

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: January 31, 2020 9:49 am|    Updated: January 31, 2020 9:49 am

Sharjeel Imam wants to turn India into Islamic nation: Delhi Police

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শাহিনবাগ আন্দোলনের অন্যতম হোতা শারজিল ইমাম কট্টরপন্থী। ভারতকে ইসলামিক রাষ্ট্র বানানোর ইচ্ছা রয়েছে তার। এবার এমনটাই দাবি করেছে দিল্লি পুলিশ। বিহার থেকে গ্রেপ্তার হওয়ার পর আপাতত দিল্লি পুলিশের হেফাজতেই রয়েছে শারজিল।

দিল্লি পলিশের স্পেশ্যাল সেলের তদন্তকারীরা জানিয়েছেন, জেরায় ভারতকে ইসলামিক দেশ বানানোর কথা বলেছে শারজিল। তার দাবি, ভারতে মুসলমানদের উপর চরম নির্যাতন চলছে, তাই সে প্রতিবাদ করছে। এবং দেশবিরোধী মন্তব্য করায় বিন্দুমাত্র অনুতপ্ত নয়। এক পুলিশ আধিকারিক জানিয়েছেন, জেরায় অসম-সহ উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলিকে ভারত থেকে বিচ্ছিন্ন করার মন্তব্যের কথা স্বীকার করেছে ওই ছাত্রনেতা। 

উল্লেখ্য, কয়েকদিন আগেই সোশ্যাল মিডিয়ায় শারজিলের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছিল। তাতে দেখা গিয়েছিল শারজিল মুসলিমদের একটি সভায় অসমকে ভারত থেকে বিচ্ছিন্ন করার কথা বলছেন। শুধু সেই ভিডিও নয় একাধিক ভাষণের ভিডিওতে এই একই বক্তব্য পাওয়া গিয়েছে। তারপরই শারজিলের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ১২৪ এ, ১৫৩ এ ও ৫০৫ ধারায় প্ররোচনামূলক বক্তব্য ও বিভিন্ন সম্প্রদায়ের মধ্যে বিভেদ ছড়ানোর অভিযোগে রাষ্ট্রদ্রোহিতা মামলা রুজু হয়। এবং বিহারের জেহানাবাদ থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। 

প্রসঙ্গত, সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদ চলছে দেশজুড়ে। তবে শাহিনবাগ ও জেএনইউতে বিক্ষব চলাকালীন একাধিকবার শোনা গিয়েছে উসকানিমূলক মন্তব্য। সদ্য মোদি সরকারের বিরোধিতা করতে গিয়ে জঙ্গি আফজল গুরুকেই নির্দোষ বলে দাবি করেছিলেন জেএনইউ’র এক স্বঘোষিত ছাত্রনেত্রী। শুধু তাই নয়, ভারত সরকার ও সুপ্রিম কোর্টের প্রতি তাঁর অনাস্থা জনসমক্ষে সদর্পে ঘোষণা করেন তিনি।   

গত সোমবার ওই ঘটনার একটি ভিডিও টুইট করেন বিজেপির মুখপাত্র সম্বিত পাত্র। সেখানে সাফ দেখা যায়, সংসদ হামলার চক্রী আফজল গুরুকে নির্দোষ বলে দাবি করছেন আফরিন ফাতিমা নামের ওই ছাত্রী। ভিডিওতে ওই ছাত্রী বলছেন, “আমরা এখানে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন ও নাগরিকপঞ্জি নিয়ে বিরোধ প্রদর্শন করছি। আমরা কাউকে বিশ্বাস করতে পারছি না। ভারত সরকার, সুপ্রিম কোর্ট কোনওটাতেই আমাদের আস্থা নেই। এই সুপ্রিম কোর্টই নির্দোষ আফজল গুরুকে ফাঁসির সাজা দিয়েছিল। এই আদালতই প্রমাণ না থাকা সত্বেও রাম মন্দির বানানোর নির্দেশ দিয়েছে। এদের থেকে আমরা কিছুই আশা করি না।”    

[আরও পড়ুন: জম্মুর টোল প্লাজায় পুলিশের সঙ্গে গুলির লড়াই, খতম এক পাকিস্তানি জঙ্গি]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে