BREAKING NEWS

১৪ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

গান্ধী গড় দখল করে নয়া চ্যালেঞ্জ নিতে প্রস্তুত ‘জায়ান্ট কিলার’ স্মৃতি

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: May 31, 2019 3:36 pm|    Updated: May 31, 2019 3:36 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সময়টা ভালই যাচ্ছে৷ পারিবারিক ও পেশাগত জীবনে একের পর এক সাফল্য৷ আইসিএসই, আইএসসি-তে ছেলেমেয়েদের রেজাল্ট দারুণ হয়েছিল৷ তা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় উচ্ছ্বাসও প্রকাশ করেছিলেন৷ এবার আরও আত্মবিশ্বাসী হয়ে নতুন করে কাজের জায়গায় ফিরছেন তিনি৷  সেখানে নতুন চ্যালেঞ্জের মুখেও বটে৷ বলা হচ্ছে স্মৃতি ইরানির কথা৷ মোদির দ্বিতীয় মন্ত্রিসভায় বস্ত্রমন্ত্রকের পাশাপাশি যিনি বাড়তি দায়িত্ব পেয়েছেন নারী ও শিশুকল্যাণ মন্ত্রকের৷

[আরও পড়ুন: রাজপথ থেকে রাজদরবারে, প্রধানমন্ত্রীর মন্ত্রিসভায় এলেন ‘ওড়িশার মোদি’]

অভিনয় ছেড়ে পাকাপাকি রাজনীতিতে নামার পরই পরিশ্রম, নিষ্ঠার পুরস্কার পেয়েছিলেন স্মৃতি ইরানি৷ প্রথম মন্ত্রিসভায় গুরুত্বপূর্ণ একটি দায়িত্বই তাঁকে দিয়েছিলেন নরেন্দ্র মোদি৷ মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রক৷ কিন্তু খোদ মন্ত্রীরই শিক্ষাগত যোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন ওঠায় বিতর্ক বাড়ে৷ তিনি আদৌ স্নাতক কি না, মন্ত্রক সামলানোর যোগ্য কি না, এসব নিয়ে দীর্ঘ সমালোচনার মুখে পড়তে হয় তাঁকে৷ দোসর ছিল দলিত ছাত্র রোহিত ভেমুলার রহস্যমৃত্যুতে স্মৃতির বিতর্কিত মন্তব্য, জেএনইউ ক্যাম্পাসের অস্থিরতা ঠেকাতে তাঁর ব্যর্থতার মতো একাধিক বিষয়৷

মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রকে থাকাকালীন স্মৃতিকে নিয়ে এমনই নানাবিধ বিতর্কে জেরবার হতে হয়েছিল নরেন্দ্র মোদিকে৷ শেষমেশ মন্ত্রকের দায়িত্ব থেকে তাঁকে সরিয়ে বস্ত্রমন্ত্রকে বসিয়ে বিতর্কে ইতি টানার চেষ্টা করেছিলেন মোদি৷ সে কাজে খুব যে সফল হয়েছিলেন, তা বলা যায় না৷ কারণ, তারপরও বস্ত্রমন্ত্রী স্মৃতির শিক্ষাগত যোগ্যতা প্রমাণে রীতিমত মামলা দায়ের হয়৷ আইনি জটে জড়িয়ে পড়েন তিনি৷

[আরও পড়ুন: মোদি সরকার ২.০: মন্ত্রক বদলাল রাজনাথ-নির্মলার, ঘর সামলাবেন শাহ]

তবে বস্ত্রমন্ত্রকে ভাল পারফরম্যান্সের জন্য ২০১৭-এ অতিরিক্ত দায়িত্ব হিসেবে তাঁকে দেওয়া হয় তথ্য-সম্প্রচার মন্ত্রকও৷ কারণ, সেই বছরই উপরাষ্ট্রপতি হয়ে মন্ত্রক থেকে অব্যাহতি নেন বেঙ্কাইয়া নায়ডু৷ ফলে বাড়তি দায়িত্ব পড়ে স্মৃতির কাঁধে৷ আর ২০১৯-এর ভোটপরীক্ষায় বেশ ভাল নম্বরেই পাশ করেছেন ছোটপর্দার ‘তুলসী’৷ গান্ধীদের গড় আমেঠি লোকসভা কেন্দ্রে রাহুল গান্ধীর বিরুদ্ধে কঠিন লড়াইয়ে জিতেছেন তিনি৷ বিপুল ভোটে স্মৃতি হারিয়ে দিয়েছেন কংগ্রেস সভাপতিকে৷ দলকে উপহার দিয়েছেন দীর্ঘকাল গান্ধীদের দখলে থাকা আমেঠি কেন্দ্রটি৷

তারই পুরস্কার পেলেন ‘জায়ান্ট কিলার’ স্মৃতি ইরানি৷ মোদি মন্ত্রিসভা ২.০ তে তিনি পেলেন নারী ও শিশুকল্যাণ মন্ত্রকের দায়িত্ব৷ মহিলা হওয়ায় ভেবেচিন্তে তাঁর হাতে এই মন্ত্রক তুলে দিয়েছেন মোদি৷ সেইসঙ্গে পুরনো বস্ত্রমন্ত্রকটিও রয়েছে স্মৃতির হাতেই৷ তবে সামগ্রিকভাবে মোদির এবারের মন্ত্রিসভায় মহিলা মন্ত্রীর সংখ্যা কমেছে৷ ৯ থেকে কমে হয়েছে ৬৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement