BREAKING NEWS

২১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বুধবার ৮ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

খাবার পৌঁছতে দেরি, বচসার মাঝে গ্রাহকের কানে কামড় ‘সুইগি’র ডেলিভারি বয়ের

Published by: Sayani Sen |    Posted: November 7, 2019 5:19 pm|    Updated: November 7, 2019 5:20 pm

Swiggy's delivery boy beats in a customers ear at Chennai

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: খুব খিদে পেয়েছে। রান্না করার সময় নেই। তাই ভরসা খাদ্য সরবরাহকারী সংস্থা। স্মার্টফোনে তাই এক ক্লিকেই ‘সুইগি’তে বেশ কিছু খাবার অর্ডার দিয়েছিলেন এক ব্যক্তি। কিন্তু খাবার পৌঁছতে সময় লেগে গেল প্রায় ঘণ্টাখানেক। তার জেরে গ্রাহকের সঙ্গে বচসা লেগে যায় ডেলিভারি বয়ের। কথা কাটাকাটির শেষে গ্রাহকের কানে কামড়ে দিল ওই যুবক।

আর বালাজি নামে ওই ব্যক্তি চেন্নাইয়ের বাসিন্দা। তিনি ‘সুইগি’র মাধ্যমে বেশ কিছু খাবার অর্ডার দেন। স্মার্টফোন হাতে নিয়ে খাবারের জন্য অপেক্ষা করছিলেন বালাজি। প্রায় ঘণ্টাখানেক কেটে যায়। এমন সময় তাঁর স্মার্টফোন বাজতে শুরু করে। তিনি কথা বলেন ডেলিভারি বয়ের সঙ্গে। তারও বেশ কিছুক্ষণ পর ওই ডেলিভারি বয় এসে বালাজির হাতে খাবার পৌঁছে দেন। অর্ডার দেরিতে পাওয়ার জেরে অ্যাপসে খুব খারাপ রেটিং দেন বালাজি। তা নিয়ে বালাজির সঙ্গে ওই ডেলিভারি বয়ের বচসা শুরু হয়। অভিযোগ, অশান্তি চলাকালীন ডেলিভারি বয় ফোন করে তার বন্ধুবান্ধবদের ডেকে পাঠায়। তারা জড়ো হয়ে যায়। বালাজিকে ওই ডেলিভারি বয় এবং তার বন্ধুবান্ধব মিলে মারধর করে। এমনকী বালাজির কানও কামড়ে দেওয়া হয় বলেও অভিযোগ। বালাজির দাবি, শুধু মারধরই নয়। ডেলিভারি বয় এবং তার বন্ধুবান্ধবরা ছিনতাইও করে নেওয়া হয়।

[আরও পড়ুন: ভরসা দিলীপের বচন! গোল্ড লোন চাইতে গরু নিয়ে হাজির কৃষক]

আক্রান্ত হওয়ার পরই বালাজি সোজা স্থানীয় থানায় যান। পুলিশের কাছে ওই ডেলিভারি বয়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ জানান তিনি। বালাজির অভিযোগের ভিত্তিতে ওই ডেলিভারি বয় এবং তার বন্ধুবান্ধবদের আটক করে পুলিশ। তবে পুলিশি জেরায় ডেলিভারি বয় বালাজির অভিযোগ অস্বীকার করেছে। তার পালটা দাবি, বালাজি সঠিক ঠিকানা না দেওয়ায় তাঁর বাড়িতে পৌঁছতে দেরি হয়। নিজের দোষ স্বীকার না করেই অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে বালাজি। ওই ডেলিভারি বয়কে জিজ্ঞাসাবাদ করার পরেই তাদের ছেড়ে দেয় পুলিশ। তবে পুলিশের সিদ্ধান্তে সহমত নন ওই গ্রাহক।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে