BREAKING NEWS

১৩ কার্তিক  ১৪২৭  শুক্রবার ৩০ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

‘বিজেপি বেশি আসন পেলেও নীতীশ কুমারই মুখ্যমন্ত্রী হবেন’, জল্পনা উড়িয়ে মন্তব্য অমিত শাহের

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: October 18, 2020 12:36 pm|    Updated: October 18, 2020 12:36 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নীতীশ কুমারের সঙ্গে বিবাদের জেরে বিহারের বিধানসভা নির্বাচনের আগে সেখানে এনডিএ জোট ছেড়েছে লোক জনশক্তি পার্টি। এই নিয়ে টানাপোড়েন চলার মাঝেই প্রয়াত হয়েছেন ওই দলের প্রধান ও কেন্দ্রীয় খাদ্যমন্ত্রী রামবিলাস পাসওয়ান। আর তারপর থেকেই বিজেপি ও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির প্রশংসা করলেও বিহারের মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে লাগাতার অভিযোগ করছেন রামবিলাসের ছেলে চিরাগ পাসওয়ান। নির্বাচনের পর পরিস্থিতিতে বদল আসবে বলেও ইঙ্গিত দিয়েছেন। এর ফলে নানা জল্পনাও তৈরি হয়েছে। শনিবার সেইসব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে নীতীশ কুমারই যে বিহারের এনডিএ জোটের প্রধান মুখ তা পরিষ্কার জানিয়ে দিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

এপ্রসঙ্গে মন্তব্য করতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘বিহারের বিধানসভা নির্বাচনে নীতীশ কুমার (Nitish Kumar)-ই হলেন এনডিএ (NDA) জোটের মুখ। ওখানে যদি বিজেপি বেশি সংখ্যক আসনে জিতে সংখ্যাগরিষ্ঠ দলও হলেও নীতীশ কুমারই মুখ্যমন্ত্রী হবেন। এই বিষয়টি আমরা আগেই ঘোষণা করেছি। তাই প্রতিশ্রুতি ভাঙার কোনও কারণই থাকতে পারে না। এছাড়া অন্য কোনও সমীকরণ তৈরির জায়গা নেই। নেই কোনও যদি বা কিন্তু।’

[আরও পড়ুন: বেনজির বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত হায়দরাবাদ, ক্রমশ বাড়ছে মৃতের সংখ্যা ]

নির্বাচনের পর বিহার ডবল ইঞ্জিনের সরকার পাবে ঘোষণা করে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন,’ ফলাফল প্রকাশের পর বিহারে ডবল ইঞ্জিনের সরকার তৈরি হবে। একদিকে বিহারকে নেতৃত্ব দেবেন নীতীশ কুমার অন্যদিকে কেন্দ্রের নেতৃত্বে থাকবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। বিষয়টি বুঝতে পেরে বিহারে এবার এনডিএ জোটের পক্ষেই রয়েছেন মানুষ। করোনা মহামারী ও লকডাউনের সময় প্রধানমন্ত্রী যে প্রকল্পগুলি ঘোষণা করেছেন, সেগুলিতে বিহারের মানুষ বিশেষ উপকূত। তাই তাঁদের অন্যদিকে যাওয়ার কোনও প্রশ্নই নেই।’

লোক জনশক্তি পার্টি (LJP) -এর এনডিএ জোট ছাড়ার প্রসঙ্গে প্রশ্ন করলে তিনি বলেন, ‘আমাদের তরফে ওদের যথেষ্ট আসন দেওয়ার প্রস্তাব পেশ করা হয়েছিল। তারপরও ওরা জোট থেকে সরে যায়। এটা সম্পূর্ণ ওদের সিদ্ধান্ত।’

[আরও পড়ুন: ‘করোনা আবহে ভারতে মুসলিম বিদ্বেষ বেড়েছে’, লাহোর সাহিত্য উৎসবে বিতর্কিত মন্তব্য থারুরের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement